শুক্রবার, ১৪ অগাস্ট ২০২০ খ্রীষ্টাব্দ | ৩০ শ্রাবণ ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
অক্টোবর-নভেম্বরেই অক্সফোর্ডের ভ্যাকিসন  » «   রিজেন্ট হাসপাতালের এমডি মিজান গ্রেফতার  » «   নকল মাস্ককাণ্ডে ৩ দিনের রিমান্ডে অপরাজিতার শারমিন  » «   পানিতে দাঁড়িয়েই কয়রাবাসীর ঈদের নামাজ  » «   ২৪ ঘণ্টায় করোনা শনাক্তের রেকর্ড, মৃত্যু ৫০০ ছাড়ালো  » «   ফিনল্যান্ডে ভিন্ন আবহে ঈদ উদযাপন  » «   উপকূলে আমফানের আঘাত  » «   করোনা চিকিৎসায় ইতিবাচক ফলাফল দেখতে পেয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা  » «   করোনার টিকা আবিষ্কারের দাবি ইতালির বিজ্ঞানীদের  » «   জেলে করোনা আতঙ্কে প্রিন্সেস বাসমাহ  » «   ঘুষের প্রশ্ন কিভাবে আসে, বললেন ওষুধ প্রশাসনের ডিজি  » «   কিশোরগঞ্জে এবার করোনায় সুস্থ হলেন চিকিৎসক  » «   স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় অজ্ঞতাবশত ভুল বলিয়াছে: ডা. জাফরুল্লাহ  » «   বিশ্বে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ৩০ লাখ ছাড়িয়েছে  » «   ফ্রান্সে টানা চতুর্থদিন মৃত্যুর রেকর্ড, ৪ হাজার ছাড়াল প্রাণহানি  » «  

মুম্বাই’র কাছে হেরে আম্পায়ারদের ওপর খেপলেন কোহলি



স্পোর্টস ডেস্ক:: শেষ ওভারে বেঙ্গালুরুর প্রয়োজন ছিল ১৭ রান। ক্রিজে তখন দুর্দান্ত খেলতে থাকা এবি ডি ভিলিয়ার্স। কিন্তু লাসিথ মালিঙ্গার করা ওভারটির প্রথম ৫ বলে আসে ১০ রান। শেষ বলে জয়ের জন্য প্রয়োজন হয় ৭ রানের। ৬ রান তুলতে পারলে সুপার ওভারে গড়াবে ম্যাচ।

স্ট্রাইকে থাকা ডি ভিলিয়ার্স নিতে পারলেন মাত্র ১ রান। ফলে ম্যাচটি ৬ রানে জিতে নেয় রোহিত শর্মার মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স। কিন্তু বিপত্তি বাধে অন্যখানে। টিভি রিপ্লেতে স্পষ্ট দেখা যায় বলটি করারর সময় দাগের বাইরে ছিল মালিঙ্গার পা। কিন্তু আম্পায়ার সেটি লক্ষ্য করেননি।

তাই ম্যাচ শেষে পরাজিত অধিনায়ক বিরাট কোহলি সব রাগ উগড়ে দেন আম্পায়ারদের ওপর। পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে ক্ষোভঝরা কণ্ঠে ভারত অধিনায়ক বললেন, ‘আমরা আইপিএল খেলছি, ক্লাব ক্রিকেট না। আম্পায়ারদের চোখ খোলা রাখা উচিত।’

বৃহস্পতিবার আইপিএলের ম্যাচে টস হেরে প্রথমে ব্যাট করতে নেমে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৮ উইকেটে ১৮৭ রান করে মুম্বাই। অধিনায়ক রোহিত শর্মা ৩৩ বলে করেন ৪৮ রান। সূর্যকুমার যাদব ২৪ বলে ৩৮ রান করেন। তবে মুম্বাইয়ের রান গতি পায় যুবরাজ সিং ও হার্দিক পান্ডিয়ার ব্যাটে।

যুজবেন্দ্র চাহালের বলে আউট হওয়ার আগে ৩টি ছয়ে সাজিয়ে ১২ বলে ২৩ রান করেন যুবরাজ। আর পান্ডিয়া ১৪ বলে ৩২ রান করে অপরাজিত থাকেন। মেরেছেন ৩টি ছক্কা ও ২টি চার।

বেঙ্গালুরুর হয়ে ৩৮ রানে ৪ উইকেট নিয়েছেন চাহাল। দুইটি করে উইকেট নিয়েছেন উমেশ যাদব ও মোহাম্মদ সিরাজ।জবাবে ব্যাট করতে নেমে রান আউটের শিকার হয়ে মাঠ ছাড়েন মঈন আলী (১৩)। ব্যক্তিগত ৩১ রানে অন্য ওপেনার অক্ষর প্যাটেল আউট হলে জুটি বাঁধেন কোহলি ও ডি ভিলিয়ার্স।

বিশ্বসেরা এই দুই ক্রিকেটারের ব্যাটে জয়ের স্বপ্ন বুনছিল বেঙ্গালুরু। কিন্তু তাতে বাধ সাধেন জসপ্রিত বুমরাহ। ভারত অধিনায়ককে পান্ডিয়ার তালুবন্দি করেন তিনি। ৩২ বলে ৪৬ রান করেন কোহলি।

তবে ডি ভিলিয়ার্স শেষ পর্যন্ত জয়ের চেষ্টা চালিয়ে যান। কিন্তু তার ৪১ বলে অপরাজিত ৭০* রানের ইনিংসটি দলের জয়ের জন্য যথেষ্ট হয়নি। নির্ধারিত ২০ ওভারে ৫ উইকেটে ১৮১ রান পর্যন্ত তুলতে পারে বেঙ্গালুরু। মুম্বাইর হয়ে ২০ রানে ৩ উইকেট নিয়ে ম্যান অব দ্য ম্যাচ হয়েছেন বুমরাহ।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: