রবিবার, ১১ এপ্রিল ২০২১ খ্রীষ্টাব্দ | ২৮ চৈত্র ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
‘শিশুবক্তা’ রফিকুলের মোবাইলে পর্নো ভিডিও!  » «   বর্ণাঢ্য আয়োজনে ভেরনো’র প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উদযাপন  » «   স্টকহোম বাংলাদেশ দূতাবাসে ‘গণহত্যা দিবস-২০২১’ পালিত  » «   নিকাব ছেড়ে পশ্চিমা পোশাকে ব্রিটেন ফেরার লড়াইয়ে শামীমা(ভিডিও)  » «   হারুন আর রশিদের জীবন বাঁচাতে এগিয়ে আসুন  » «   সংবাদ ২১ ডটকম সম্পাদক তৃতীয়বারের মত ইজিএন সচিব নির্বাচিত  » «   মাহমুদ-উস সামাদ চৌধুরী`র মৃত্যুতে বঙ্গবন্ধু পরিষদ ফিনল্যান্ডের শোক  » «   সংবাদ ২১ ডটকম সম্পাদক আন্তর্জাতিক `এইজে´র কমিটি সদস্য নির্বাচিত  » «   ফিনল্যান্ডে মহান ভাষা শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালন  » «   দেশে চীনের ভ্যাকসিন ট্রায়ালের অনুমতি দিয়েছে সরকার  » «   অক্টোবর-নভেম্বরেই অক্সফোর্ডের ভ্যাকিসন  » «   রিজেন্ট হাসপাতালের এমডি মিজান গ্রেফতার  » «   নকল মাস্ককাণ্ডে ৩ দিনের রিমান্ডে অপরাজিতার শারমিন  » «   পানিতে দাঁড়িয়েই কয়রাবাসীর ঈদের নামাজ  » «   ২৪ ঘণ্টায় করোনা শনাক্তের রেকর্ড, মৃত্যু ৫০০ ছাড়ালো  » «  

দেপোরতিভোর মাঠে মেসিময় বার্সার জয়



Mesi_bg_964783620স্পোর্টস ডেস্ক :: লা লিগার ম্যাচে দেপোরতিভো লা করুনার মাঠে আতিথ্য গ্রহন করেছিল স্প্যানিস জায়ান্ট বার্সেলোনা। মেসিময় রাতে কাতালানরা জিতেছে বড় ব্যবধানে। লুইস এনরিকের শিষ্যরা ৪-০ গোলে হারিয়েছে দেপোরতিভোকে। আর ম্যাচের পুরোটা জুড়েই ছিলেন আর্জেন্টাইন ফুটবল জাদুকর লিওনেল মেসি।

এ ম্যাচে বার্সা কোচ লুইস এনরিক শুরুর একাদশে মাঠে নামান ক্লদিয়ো ব্রাভো, দানি আলভেজ, জেরার্ড পিকে, মাসচেরানো, জরদি আলবা, ইভান রেকিটিক, বাসকুয়েটস, আন্দ্রে ইনিয়েস্তা, লিওনেল মেসি, লুইস সুয়ারেজ আর নেইমারকে।

ম্যাচের নবম মিনিটে মেসির একটি শট রুখে দেন দেপোরতিভোর গোলরক্ষক ফ্যাব্রিসিয়ো। তবে, পরের মিনিটে আর্জেন্টাইন ফুটবল জাদুকরের হেড রুখে দিতে ব্যর্থ হন ফ্যাব্রিসিয়ো। ইভান রেকিটিকের বাড়ানো বলে দারুণ এক হেড করে গোল করেন মেসি। ফলে ম্যাচের দশম মিনিটেই লিড নেয় কাতালানরা।

৪-৩-৩ ফরমেটে খেলা বার্সার ডিফেন্সে থাকা পিকে বলের নিয়ন্ত্রন নিতে না পারলে ম্যাচের ২৫তম মিনিটে সহজ সুযোগ পায় স্বাগতিকরা। কাভালেরিয়োর সে প্রচেষ্টা তিনি নিজেই নষ্ট করেন গোলবারের বাইরে দিয়ে বল পাঠিয়ে। তবে, তার দুই মিনিট আগেই বার্সার হয়ে ব্যবধান দ্বিগুন করার সুযোগ পেয়েছিলেন সুয়ারেজ। তিনিও গোলবারের বাইরে দিয়ে বল পাঠিয়ে দেন।

ম্যাচের ৩৩ মিনিটের মাথায় নিজের ও দলের দ্বিতীয় গোলটি করেন আর্জেন্টাইন দলপতি। নিজের জোড়া গোল করতে মেসিকে সহায়তা করেন ব্রাজিল অধিনায়ক নেইমার। গোলবারের ডান দিক দিয়ে নেইমার বল বাড়িয়ে দেন সুয়ারেজআর মেসির মাঝে। আর সেখান থেকে বল পেয়ে দেপোরতিভোর গোলরক্ষককের মাথার উপর দিয়ে স্বাগতিকদের জালে দ্বিতীয়বারের মতো বল জড়ান মেসি।

মেসির দ্বিতীয় গোলের পাঁচ মিনিট পরে দেপোরতিভোর ডিফেন্সকে নিয়ে ছেলে খেলা করে মেসি বল বাড়ান রেকিটিককে। সেখান থেকে রেকিটিকের দেয়া পাসে দারুণ ভাবে বলের নিয়ন্ত্রন নেন সুয়ারেজ। তবে, লিভারপুলের সাবেক এ তারকা স্ট্রাইকার নিজের জড়তায় বল জড়িয়ে দেন স্বাগতিক গোলরক্ষকের গায়ে।

ম্যাচের বাকি সময়ে আর কোনো দল গোলের দেখা না পেলে মেসির জোড়া গোলে এগিয়ে থেকে বিরতিতে যায় বার্সা।

প্রথমার্ধে ৭৪ শতাংশ বল নিজেদের কাছে ধরে রাখা বার্সার মেসি, নেইমার আর সুয়ারেজ দ্বিতীয়ার্ধের শুরু থেকেই দেপোরতিভোর ডিফেন্সকে ব্যস্ত রাখেন। তবে, ৫৬ মিনিটের মাথায় পিকের ভুলে গোল হজম করতে হতো বার্সাকে। বল ক্লিয়ার করতে গিয়ে প্রায় নিজেদের জালে জড়িয়ে দিচ্ছিলেন তিনি। এক্ষেত্রে দলকে বিপদ থেকে রক্ষা করেন বার্সার গোলবারের নিচে দায়িত্ব পালন করা ক্লদিয়ো ব্রাভো।

এ ম্যাচে মনে হচ্ছিল আর্জেন্টাইন তারকা মেসি নিজেকে ছাড়িয়ে যেতে চাচ্ছেন। কখনো নিজেদের ডি বক্সে আবার কখনো মাঝমাঠে খেলছিলেন তিনি। আর প্রতিপক্ষের ডি বক্সে তো তার পদচারণা ছিলই। খেলার ৬২ মিনিটের মাথায় হ্যাটট্রিক গোল পূর্ণ করেন মেসি। রেকিটিকের ছোট পাসে বল নিয়ে দেপোরতিভোর ডিফেন্সে থাকা একাধিক খেলোয়াড়ের ফাঁক গলে নিজের ও দলের তৃতীয় গোলটি করেন মেসি।

এ গোলের মধ্য দিয়ে মেসি লা লিগায় ২২টি হ্যাটট্রিক পূর্ণ করেন।

খেলার ৭৮ মিনিটের মাথায় মেসি আবারো বল বাড়িয়ে দেন সুয়ারেজকে। তবে, এবারো গোল আদায় করে নিতে ব্যর্থ হন উরুগুয়ের তারকা। তবে, ৮৩ মিনিটের মাথায় আত্মঘাতী গোলে দেপোরতিভো আরও পিছিয়ে পড়ে। স্বাগতিক ফুটবলার সিডনির পায়ে লেগে নিজেদের জালেই বল জড়ালে বার্সা ৪-০ গোলে এগিয়ে যায়।

ম্যাচের বাকি সময়ে আর কোনো দল গোল পায়নি।

মেসিময় এ জয়ের ফলে বার্সেলোনা ১৯ ম্যাচ খেলে সংগ্রহ করেছে ৪৪ পয়েন্ট। জিতেছে ১৪ ম্যাচে আর হেরেছে তিনটি ম্যাচে। বাকি ম্যাচ দুটি ড্র হয় কাতালানদের। এক ম্যাচ কম খেলে রিয়াল মাদ্রিদ ৪৫ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের শীর্ষে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: