মঙ্গলবার, ১ ডিসেম্বর ২০২০ খ্রীষ্টাব্দ | ১৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
দেশে চীনের ভ্যাকসিন ট্রায়ালের অনুমতি দিয়েছে সরকার  » «   অক্টোবর-নভেম্বরেই অক্সফোর্ডের ভ্যাকিসন  » «   রিজেন্ট হাসপাতালের এমডি মিজান গ্রেফতার  » «   নকল মাস্ককাণ্ডে ৩ দিনের রিমান্ডে অপরাজিতার শারমিন  » «   পানিতে দাঁড়িয়েই কয়রাবাসীর ঈদের নামাজ  » «   ২৪ ঘণ্টায় করোনা শনাক্তের রেকর্ড, মৃত্যু ৫০০ ছাড়ালো  » «   ফিনল্যান্ডে ভিন্ন আবহে ঈদ উদযাপন  » «   উপকূলে আমফানের আঘাত  » «   করোনা চিকিৎসায় ইতিবাচক ফলাফল দেখতে পেয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা  » «   করোনার টিকা আবিষ্কারের দাবি ইতালির বিজ্ঞানীদের  » «   জেলে করোনা আতঙ্কে প্রিন্সেস বাসমাহ  » «   ঘুষের প্রশ্ন কিভাবে আসে, বললেন ওষুধ প্রশাসনের ডিজি  » «   কিশোরগঞ্জে এবার করোনায় সুস্থ হলেন চিকিৎসক  » «   স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় অজ্ঞতাবশত ভুল বলিয়াছে: ডা. জাফরুল্লাহ  » «   বিশ্বে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ৩০ লাখ ছাড়িয়েছে  » «  

খালেদার কার্যালয়ে প্রকাশ্যে অস্ত্র হাতে মুফিদুল



???????????????????????????????নিউজ ডেস্ক :: হরতাল-অবরোধ প্রত্যাহার না করায় এবার বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়াকে গুলি করতে অস্ত্র হাতে তার কার্যালয়ের সামনে এলেন মুফিদুল ইসলাম নামে এক ব্যক্তি। যিনি নিজেকে ‘বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা প্রজন্ম লীগের’ একজন কর্মী হিসেবে পরিচয় দিয়েছেন।
প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা গেছে, মঙ্গলবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে তিনি খালেদা জিয়ার গুলশান কার্যালয়ের সামনে আসেন। এ সময় হঠাৎ করেই তার কোমর থেকে একটি অস্ত্র বের করেন এবং বলতে থাকেন, সে (খালেদা জিয়া) কোথায়? হরতাল-অবরোধ প্রত্যাহার করে নাই কেন? তাকে গুলি করে মারবো!
মুফিদুল ইসলামের এমন আকস্মিক আচরণে উপস্থিত গণমাধ্যম কর্মীদের মধ্যে ভীতির সঞ্চার হয়। পরে উপস্থিত আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্য তাকে সেখান থেকে সরিয়ে দেয়।
এর আগে সকাল সাড়ে দশটার দিকে ‘বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা প্রজন্ম লীগের’ সভাপতি ফাতেমা জলিল সাথী এবং সাধারণ সম্পাদক অ্যাড. স্বপন চৌধুরীর নেতৃত্বে প্রায় শতাধিক কর্মী নিয়ে খালেদা জিয়া কার্যালয় ঘেরাও করতে আসে। পরে পুলিশের হস্তক্ষেপে গুলশান গোলচত্বরে বিক্ষোভ দেখিয়ে চলে যায়।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: