শনিবার, ২৬ মে ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
মিয়ানমারের ওপর অবরোধ আরোপের সুপারিশ কানাডিয়ান দূতের  » «   সালমান খানের সঙ্গে শাকিব খানের তুলনা করলেন পায়েল  » «   বিশ্বকাপ মিশনে নামার আগে মক্কায় পগবা  » «   সিটি নির্বাচনের প্রচারে এমপিরা কি অংশ নিতে পারবেন?  » «   তালিকা অনুযায়ী সবাইকে ধরা হবে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী  » «   আমজাদ হোসেনের জার্মানি পতাকা এবার সাড়ে পাঁচ কিলোমিটার  » «   ভক্তদের প্রশ্নের জবাব দিয়ে কক্সবাজার ছাড়লেন প্রিয়াঙ্কা  » «   জাপানে বন্ধুর ক্লাবই নতুন ঠিকানা ইনিয়েস্তার  » «   মুক্তামনির মৃত্যুতে প্রধানমন্ত্রীর শোক  » «   ‘ভারত থেকে এক বালতি পানিও আনতে পারেননি প্রধানমন্ত্রী’-রিজভী  » «   চৌদ্দগ্রামে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ মাদক বিক্রেতা নিহত  » «   জবিতে কোটা সংস্কার আন্দোলন নেতার ওপর হামলা  » «   নারীর মন-শরীর নিয়ন্ত্রণ করে পুরুষ আধিপত্য চায়: বিদ্যা  » «   আখাউড়ায় হচ্ছে ইন্টিগ্রেটেড চেকপোস্ট  » «   ২১ ঘণ্টা রোজা রাখছেন ৪ দেশের ধর্মপ্রাণ মুসলমান!  » «  

দুই বাংলার সিলেটিদের নিয়ে কলকাতায় তিন দিনব্যাপী সিলেট উৎসব



Sylhetসাহিত্য ডেস্ক:: আগামী ২৬ ডিসেম্বর থেকে কলকাতায় অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে তিন দিনব্যাপী ইন্দো-বাংলা সিলেট উৎসব। জালালাবাদ এসোসিয়েশন ঢাকা ও দক্ষিণ কলকাতা সিলেট এসোসিয়েশন-এর যৌথ আয়োজনে কলকাতার যোধপুরর্পাক হাইস্কুল মাঠে এ উৎসব অনুষ্ঠিত হবে।

বাউল শাহ আব্দুল করিমকে উৎসর্গ ও ‘আগে কী সুন্দর দিন কাটাইতাম’ থিমের উপর ভিত্তি করে বৃহত্তর সিলেটের ইতিহাস-ঐতিহ্য, সাহিত্য, সঙ্গীত, নৃত্য, নাটক, চলচ্চিত্র, আলোকচিত্র প্রভৃতি উপস্থাপন করা হবে উৎসবে। এসব উপস্থাপনায় বাংলাদেশ ও ভারতসহ বিশ্বের বিভিন্ন দেশে অবস্থানকারী বৃহত্তর সিলেটের প্রতিনিধিত্বশীল শিল্পী ও সংস্কৃতিকর্মীরা অংশ নেবেন।

২৬ ডিসেম্বর বিকেল ৪টায় বাংলাদেশের অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আব্দুল মুহিত প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে উৎসবের উদ্বোধন করবেন। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন অর্থ প্রতিমন্ত্রী এম এ মান্নান এবং ভারতে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত সৈয়দ মোয়াজ্জেম আলী।

উৎসবকে উপলক্ষে জালালাবাদ এসোসিয়েশন ঢাকার সভাপতি সি এম তোফায়েল সামি এবং সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ জগলুল পাশার নেতৃত্বে ৫০ সদস্যের সাংস্কৃতিক দল ও প্রায় আড়াইশ সদস্যের প্রতিনিধিদল কলকাতার উদ্দেশ্যে রওয়ানা দেবে।

অন্যান্য বিশিষ্ট ব্যক্তিত্বের মধ্যে সাবেক উপদেষ্টা সি এম শফি সামি, বাংলাদেশ ব্যাংকের সাবেক গভর্নর ড. ফরাস উদ্দিন, পূবালী ব্যাংকের চেয়ারম্যান হাফিজ আহমদ মজুমদার, রুপালী ব্যাংকের চেয়ারম্যান ড. আহমদ আল কবীর, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. সৈয়দ মনজুরুল ইসলাম, অধ্যাপক ড. ভীষ্মদেব চৌধুরী, জাতীয় অধ্যাপক ড. শাহলা খাতুন, সাংবাদিক হাসান শাহরিয়ার, পীর হাবিবুর রহমান, স্থপতি ও নির্মাতা শাকুর মজিদসহ প্রায় তিনশ জন এ উৎসবে যোগ দেবেন।

উৎসবে সিলেটের মরমী সাহিত্য ও অর্থনীতি নিয়ে পৃথক সেমিনারে প্রবন্ধ পাঠ করবেন সৈয়দ মঞ্জুরুল ইসলাম, অধ্যাপক ড. ভীষ্মদেব চৌধুরী, ড. ফরাস উদ্দিন এবং ড. আহমদ আল কবীর।

সুজেয় শ্যামের নেতৃত্বে ঢাকা থেকে সুবীর নন্দী, আকরামুল ইসলাম, শাম্মি আখতার, শুভ্র দেব, সেলিম চৌধুরী, ফজলুল কবীর তুহীন, বিশ্বজিত রায়, সিলেট থেকে জামাল উদ্দিন হাসান বান্না, লাভলি দেব, শামিম আহমেদ, মালতি পাল, লাভলি লষ্কর, প্রতীক এন্দো এবং সুনামগঞ্জ থেকে করিমপুত্র শাহ নূর জালাল, আব্দুর রহমান ও সিরাজ মিয়া সঙ্গীত পরিবেশন করবেন।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রদর্শিত হবে শাকুর মজিদ নির্মিত প্রামাণ্যচিত্র ভাটির পুরুষ-এর নির্বাচিত অংশ, সিলেটের আঞ্চলিক ভাষার চলচ্চিত্র বৈরাতী । এছাড়াও দ্বিতীয় রাতে সিলেটের নাট্যদল নৃত্য শৈলী’র উপস্থাপনায় শাহ আবদুল করিমের সঙ্গীত, জীবন ও দর্শন নিয়ে শাকুর মজিদের লেখা গীতি-নৃত্য-নাট্য মহাজনের নাও প্রদর্শন করা হবে।

সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে গান গাইবেন আরতি ধর, হিমাংশু গোশ্বামী (লন্ডন), কলকাতার সুরমা দোহার, বেলা প্রধান, কমলিকা, রথিজিত, শিলচরের বিক্রমজিত, সুব্রত খাজাঞ্ছি, মোম্বাইর মধুপর্ণা। ধামাইল নাচ ও কয়েকটি ন্রিত্যালেখ্য পরিবেশন করবে কলকাতার শ্রীভুমি, রঞ্জিনী ও তাঁর দল, শিলচরের মধ্যশহর সংস্কৃতি পরিষদ। কৌতুক পরিবেশনে থাকবেন মিরাক্কেল চ্যাম্পিয়ান তপন দাশ, সুরঞ্জিত, কবিতা আবৃত্তি করবেন মধুমিতা গুপ্তা, প্রবীর চৌধুরী, সিলেটি ছড়া পাঠ করবেন লোকমান আহমেদ আপন।

উৎসবে দুই বাংলার কীর্তিমান সিলেটিদের সম্মাননা দেয়া হবে।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: