মঙ্গলবার, ১১ মে ২০২১ খ্রীষ্টাব্দ | ২৮ বৈশাখ ১৪২৮ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
‘শিশুবক্তা’ রফিকুলের মোবাইলে পর্নো ভিডিও!  » «   বর্ণাঢ্য আয়োজনে ভেরনো’র প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উদযাপন  » «   স্টকহোম বাংলাদেশ দূতাবাসে ‘গণহত্যা দিবস-২০২১’ পালিত  » «   নিকাব ছেড়ে পশ্চিমা পোশাকে ব্রিটেন ফেরার লড়াইয়ে শামীমা(ভিডিও)  » «   হারুন আর রশিদের জীবন বাঁচাতে এগিয়ে আসুন  » «   সংবাদ ২১ ডটকম সম্পাদক তৃতীয়বারের মত ইজিএন সচিব নির্বাচিত  » «   মাহমুদ-উস সামাদ চৌধুরী`র মৃত্যুতে বঙ্গবন্ধু পরিষদ ফিনল্যান্ডের শোক  » «   সংবাদ ২১ ডটকম সম্পাদক আন্তর্জাতিক `এইজে´র কমিটি সদস্য নির্বাচিত  » «   ফিনল্যান্ডে মহান ভাষা শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালন  » «   দেশে চীনের ভ্যাকসিন ট্রায়ালের অনুমতি দিয়েছে সরকার  » «   অক্টোবর-নভেম্বরেই অক্সফোর্ডের ভ্যাকিসন  » «   রিজেন্ট হাসপাতালের এমডি মিজান গ্রেফতার  » «   নকল মাস্ককাণ্ডে ৩ দিনের রিমান্ডে অপরাজিতার শারমিন  » «   পানিতে দাঁড়িয়েই কয়রাবাসীর ঈদের নামাজ  » «   ২৪ ঘণ্টায় করোনা শনাক্তের রেকর্ড, মৃত্যু ৫০০ ছাড়ালো  » «  

৬ জোড়া যমজসহ ৩৮ বাচ্চা নিয়ে দিশেহারা উগান্ডান নারী



আন্তর্জাতিক ডেস্ক:: বিয়ে হয়েছিল মাত্র ১২ বছরে। এক বছর বাদে যমজ সন্তান জন্ম দেন। পরে আরও ৫ জোড়া যমজ সন্তানের মা হন তিনি।এভাবে মোট ৩৮ বাচ্চার মা হয়েছেন উগান্ডার নাবাতানজি। উগান্ডান এই নারী এত বাচ্চা নিয়ে সংসার চালাতে হিমশিম খাচ্ছেন। বছর তিনেক আগে তার স্বামী আবার তাকে ছেড়ে গেছেন।

রয়টার্স জানিয়েছে, ছেলে-মেয়েদের নিয়ে তিনি চার রুমের একটি পাকা বাড়িতে থাকেন। প্রথম যমজ সন্তান হওয়ার পর ডাক্তারের কাছে যান। ডাক্তার তাকে জানান, অস্বাভাবিক বড় ভ্রূণ কোষের কারণে জন্ম নিয়ন্ত্রণ পদ্ধতি যেমন পিল ব্যবহার করলে তার স্বাস্থ্যের ক্ষতি হতে পারে। সেই থেকে তিনি আর ওসব ব্যবহার করেননি।

নাবাতানজির পরিবার আফ্রিকার ইতিহাসে সবচেয়ে বড়। উগান্ডায় নারীদের জন্মদান ক্ষমতা এমনিতে বেশি। গড়ে প্রতি নারী প্রায় ৬টি করে সন্তান জন্ম দেয়।

এত বড় পরিবার নিয়ে ৩৯ বছর বয়সী নাবাতানজির এতটুকু আক্ষেপ নেই। তিনি বরং গর্বিত, ‘এটা সত্য সব বাচ্চাই আমার। আমার কোনো অনুতাপ নেই। সবাইকে আমি ভালোবাসি।’ছেলেমেয়েদের নিয়ে টিকে থাকতে ছোটখাটো ব্যবসা করছেন। স্থানীয় বাজারে বিভিন্ন ধাতুর তৈরি পণ্য বিক্রি করেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: