সোমবার, ১২ এপ্রিল ২০২১ খ্রীষ্টাব্দ | ২৯ চৈত্র ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
‘শিশুবক্তা’ রফিকুলের মোবাইলে পর্নো ভিডিও!  » «   বর্ণাঢ্য আয়োজনে ভেরনো’র প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উদযাপন  » «   স্টকহোম বাংলাদেশ দূতাবাসে ‘গণহত্যা দিবস-২০২১’ পালিত  » «   নিকাব ছেড়ে পশ্চিমা পোশাকে ব্রিটেন ফেরার লড়াইয়ে শামীমা(ভিডিও)  » «   হারুন আর রশিদের জীবন বাঁচাতে এগিয়ে আসুন  » «   সংবাদ ২১ ডটকম সম্পাদক তৃতীয়বারের মত ইজিএন সচিব নির্বাচিত  » «   মাহমুদ-উস সামাদ চৌধুরী`র মৃত্যুতে বঙ্গবন্ধু পরিষদ ফিনল্যান্ডের শোক  » «   সংবাদ ২১ ডটকম সম্পাদক আন্তর্জাতিক `এইজে´র কমিটি সদস্য নির্বাচিত  » «   ফিনল্যান্ডে মহান ভাষা শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালন  » «   দেশে চীনের ভ্যাকসিন ট্রায়ালের অনুমতি দিয়েছে সরকার  » «   অক্টোবর-নভেম্বরেই অক্সফোর্ডের ভ্যাকিসন  » «   রিজেন্ট হাসপাতালের এমডি মিজান গ্রেফতার  » «   নকল মাস্ককাণ্ডে ৩ দিনের রিমান্ডে অপরাজিতার শারমিন  » «   পানিতে দাঁড়িয়েই কয়রাবাসীর ঈদের নামাজ  » «   ২৪ ঘণ্টায় করোনা শনাক্তের রেকর্ড, মৃত্যু ৫০০ ছাড়ালো  » «  

ক্যাচ নিয়ে ছলচাতুরী করে বিতর্কে পাকিস্তানি পেসার



স্পোর্টস ডেস্ক:: বিশ্বকাপের আগে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে একটি টি-টোয়েন্টি ও পাঁচ ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ খেলবে পাকিস্তান। এ জন্য ইংল্যান্ডের উদ্দেশে সবার আগে দেশ ছেড়েছে পাকিস্তান দল। যেহেতু প্রায় দুই মাসের সফর, তাই দলকে কঠোর শৃঙ্খলার মধ্যে থাকার নির্দেশ দিয়েছিল পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি)। ইংল্যান্ড সফরে গিয়ে এর আগেও বিতর্কে জড়িয়েছেন পাকিস্তানের ক্রিকেটাররা।

তাই পিসিবির ভাষ্য ছিল, ইংলিশ সংবাদমাধ্যম যেহেতু সব সময়ই পাকিস্তানি ক্রিকেটারদের দোষ-ত্রুটি খুঁজে বের করা চেষ্টা করে, তাই সাবধান থাকতে হবে। কিন্তু হাসান আলী তা হতে দিলেন কোথায়! ইংল্যান্ড সফরে এই পেসার বিতর্ক ছড়ালেন প্রথম ম্যাচেই!

দলের সবাইকে সতর্কতা ও নজরদারির মধ্যে থাকার নির্দেশ দিয়েছিল পিসিবি। অপরিচিত কারও সঙ্গে সাক্ষাৎ এবং তাঁদের সঙ্গে উপহার আদান-প্রদান এড়িয়ে চলার নির্দেশ দেওয়া হয়েছিল ক্রিকেটারদের। ক্রিকেটারদের দুর্নীতি ও বিতর্ক থেকে দূরে রাখতেই এমন নির্দেশনা দিয়েছিল দেশটির বোর্ড।

হাসান আলী এমন কোনো কিছু না করলেও তাঁর কর্মটি একধরনের দুর্নীতিই। শনিবার কেন্টের বিপক্ষে সফরের প্রথম প্রস্তুতি ম্যাচ ছিল পাকিস্তানের। এ ম্যাচে সরফরাজ আহমেদের দল ১০০ রানের জয় পেলেও স্বস্তি পায়নি পাকিস্তান। সেটি হাসান আলীর বিতর্কিত এক ক্যাচের জন্য।

পাকিস্তানের ৩৫৮ রান তাড়া করতে ব্যাট করছিল কেন্ট। ৩০তম ওভারে (৩ উইকেটে ১৭৬) কাউন্টি দলটির ব্যাটসম্যান অ্যালেক্স ব্লেক (৮৯) হাসান আলীর বলে মাথার ওপর ক্যাচ তোলেন। বোলিংয়ের ফলো-থ্রুতে গিয়ে ভীষণ সহজ ক্যাচটি এই পেসার হাতে ভালোভাবে জমা করতে পারেননি।

বল তাঁর হাত থেকে মাটিতে পড়ে গিয়েছিল। কিন্তু মাটিতে পড়ার আগে বলটি ধরার চেষ্টা না করে হাসান মেতে ওঠেন ক্যাচ উদ্‌যাপনে! যেন ক্যাচটি তিনি আসলেই ধরেছেন। কেন্ট এ নিয়ে আপত্তি জানালেও কাজ হয়নি। মাঠের আম্পায়ার ব্লেককে আউট ঘোষণা করেন।

ক্রিকেটের আইন অনুযায়ী, একটি ক্যাচ তখনই সম্পূর্ণ হয় যখন ‘বল এবং নিজের নড়াচড়ার ওপর ফিল্ডারের পূর্ণ নিয়ন্ত্রণ থাকে।’ হাসানের বিতর্কিত ক্যাচটির ভিডিও ফুটেজ দেখলে বোঝা যায়, বলের ওপর তাঁর পূর্ণ নিয়ন্ত্রণ ছিল না। এমনিতেই ইংল্যান্ডে সফরে গেলে পাকিস্তানের খেলোয়াড়দের বিতর্ক ছড়ানোর একটা দুর্নাম আছে। ২০১০ সালে বাট-আমির-আসিফদের স্পট ফিক্সিং কেলেঙ্কারির ঘটনা কেউ ভোলেনি। হাসান আলী তেমন কিছু না করলেও ক্যাচ নিয়ে ছলচাতুরী করে ভালোই বিতর্ক ছড়িয়েছেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: