শনিবার, ৬ জুন ২০২০ খ্রীষ্টাব্দ | ২৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
পানিতে দাঁড়িয়েই কয়রাবাসীর ঈদের নামাজ  » «   ২৪ ঘণ্টায় করোনা শনাক্তের রেকর্ড, মৃত্যু ৫০০ ছাড়ালো  » «   ফিনল্যান্ডে ভিন্ন আবহে ঈদ উদযাপন  » «   উপকূলে আমফানের আঘাত  » «   করোনা চিকিৎসায় ইতিবাচক ফলাফল দেখতে পেয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা  » «   করোনার টিকা আবিষ্কারের দাবি ইতালির বিজ্ঞানীদের  » «   জেলে করোনা আতঙ্কে প্রিন্সেস বাসমাহ  » «   ঘুষের প্রশ্ন কিভাবে আসে, বললেন ওষুধ প্রশাসনের ডিজি  » «   কিশোরগঞ্জে এবার করোনায় সুস্থ হলেন চিকিৎসক  » «   স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় অজ্ঞতাবশত ভুল বলিয়াছে: ডা. জাফরুল্লাহ  » «   বিশ্বে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ৩০ লাখ ছাড়িয়েছে  » «   ফ্রান্সে টানা চতুর্থদিন মৃত্যুর রেকর্ড, ৪ হাজার ছাড়াল প্রাণহানি  » «   সিঙ্গাপুরে আরও ১০ বাংলাদেশি করোনায় আক্রান্ত  » «   মিশিগানের হাসপাতালে আর রোগী রাখার জায়গা নেই  » «   ৩ হাসপাতাল ঘুরে চিকিৎসা না পেয়ে স্কুলছাত্রের মৃত্যু  » «  

কানাইঘাট পৌর শহরে দু’গ্রামবাসীর ধাওয়া ধাওয়িতে আহত ১০



download (2)নিউজ ডেস্ক :: কানাইঘাট পৌর শহরে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে দুই গ্রামবাসীর মধ্যে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া এবং ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে ভাংচুরের ঘটনা ঘটেছে। এতে উভয় পক্ষের অন্তত ১০ জন আহত হয়েছেন। এ ঘটনায় ডালাইচর ও কুওরঘড়ি গ্রামের লোকজনদের মধ্যে তীব্র উত্তেজনা বিরাজ করছে। থানায় পাল্টাপাল্টি অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, পৌর শহরের উপজেলা রোডে কুওরঘড়ি গ্রামের মৃত আব্দুল মালিকের পুত্র জেনারেটর ব্যবসায়ী রিয়াজ উদ্দিন (৩২) এর সাথে বৃহস্পতিবার রাত ৯টার দিকে ডালাইচর গ্রামের নুরুল হকের পুত্র উপজেলা রোডের ব্যবসায়ী আমিন উদ্দিনের কথা কাটাকাটি হয়। এর জের ধরে দুজনের মধ্যে মারামারির ঘটনা ঘটে।

একপর্যায়ে কুওরঘড়ী গ্রামের কিছু লোক আমিন উদ্দিনের ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে হামলা চালিয়ে ভাংচুর করে এবং তার বসত বাড়ীতে হামলার চেষ্টা করে। এতে ডালাইচর গ্রামে লোকজনের মধ্যে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়লে তারা পাল্টা উপজেলা রোডে অবস্থিত রিয়াজ উদ্দিনের জেনারেটরের দোকানে হামলা চালিয়ে জেনারেটর পুড়িয়ে দেয়। পরে উভয় পক্ষ অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে পৌর শহরে মহড়া দিলে সংঘর্ষের ভয়ে ব্যবসায়ীরা দোকান পাট বন্ধ করে দেন। খবর পেয়ে কানাইঘাট থানা পুলিশ দ্রুত ঘটনাস্থলে গিয়ে প্রথমে কুওরঘড়ী গ্রামের লোকজনকে পৌর শহর থেকে বের করে ডাক বাংলা দিয়ে বের করে দেয়। ডালাইচর গ্রামের লোকজন পৌর শহরে পাল্টা মহড়া দিলে কানাইঘাট থানার ওসি আব্দুল আউয়াল চৌধুরী তাদের শান্ত করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনেন। ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া সংঘর্ষে অন্তত ১০ জন আহত হন। ডালাইচর গ্রামের লোকজন জানিয়েছেন,কুওরঘড়ী গ্রামের ইউপি সদস্য দুদু মিয়ার নেতৃত্বে তাদের গ্রামের ব্যবসায়ী আমিন উদ্দিনের ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে হামলা চালানো হয়।

অপরদিকে কুওরঘড়ী গ্রামের লোকজন জানিয়েছেন, ডালাইচর গ্রামের লোকজন প্রথমে কোন কারণ ছাড়াই তাদের গ্রামের জেনারেটর ব্যবসায়ী রিয়াজ উদ্দিনের উপর হামলা চালিয়ে বেধড়ক পিটিয়ে রক্তাক্ত জখম করে। এ ঘটনার প্রতিবাদ করতে গেলে তাদের উপরও হামলা করা হয়। এতে তাদের গ্রামের ৬ জন আহত হন এবং পৌর শহরে অবস্থিত কুওরঘড়ী গ্রামে দু’টি ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে হামলা করে। এ ব্যাপারে কানাইঘাট থানার ওসি আব্দুল আউয়াল চৌধুরীর সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, তুচ্ছ ঘটনা নিয়ে ডালাইচর ও কুওরঘড়ী গ্রামের লোকজনের মধ্যে বৃহস্পতিবার রাত অপ্রীতিকর ঘটনার পর বর্তমানে পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: