সোমবার, ১৩ জুলাই ২০২০ খ্রীষ্টাব্দ | ২৯ আষাঢ় ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
পানিতে দাঁড়িয়েই কয়রাবাসীর ঈদের নামাজ  » «   ২৪ ঘণ্টায় করোনা শনাক্তের রেকর্ড, মৃত্যু ৫০০ ছাড়ালো  » «   ফিনল্যান্ডে ভিন্ন আবহে ঈদ উদযাপন  » «   উপকূলে আমফানের আঘাত  » «   করোনা চিকিৎসায় ইতিবাচক ফলাফল দেখতে পেয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা  » «   করোনার টিকা আবিষ্কারের দাবি ইতালির বিজ্ঞানীদের  » «   জেলে করোনা আতঙ্কে প্রিন্সেস বাসমাহ  » «   ঘুষের প্রশ্ন কিভাবে আসে, বললেন ওষুধ প্রশাসনের ডিজি  » «   কিশোরগঞ্জে এবার করোনায় সুস্থ হলেন চিকিৎসক  » «   স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় অজ্ঞতাবশত ভুল বলিয়াছে: ডা. জাফরুল্লাহ  » «   বিশ্বে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ৩০ লাখ ছাড়িয়েছে  » «   ফ্রান্সে টানা চতুর্থদিন মৃত্যুর রেকর্ড, ৪ হাজার ছাড়াল প্রাণহানি  » «   সিঙ্গাপুরে আরও ১০ বাংলাদেশি করোনায় আক্রান্ত  » «   মিশিগানের হাসপাতালে আর রোগী রাখার জায়গা নেই  » «   ৩ হাসপাতাল ঘুরে চিকিৎসা না পেয়ে স্কুলছাত্রের মৃত্যু  » «  

ইসরায়েলি কারাগারে ফিলিস্তিনি বন্দীদের ঈদ উদযাপনে বাধা



আন্তর্জাতিক ডেস্ক:: বর্বরতার চরম পর্যায়ে পৌঁছেছে ইসরায়েলের নির্যাতনের মাত্রা। ইসরায়েলের কারাগারে বন্দী ফিলিস্তিনের শত-সহস্র শিশু কিশোর ও যুবক এবার ঈদ-উল-ফিতর উদযাপনও করতে দেয়নি কারাকর্তৃপক্ষ। এমনকি কারাগারে তারা বন্দিদের ওপর নির্যাতনের মাত্রাও বাড়িয়েছে। এ ঘটনায় নিন্দা জানিয়েছেন ফিলিস্তিনের কারাগার বিষয়ক কমিশনের চেয়ারম্যান মেজর জেনারেল কাদরি আবু বকর। খবর মিডল ইস্ট মিনটর’র।

তিনি বলেন, ফিলিস্তিনি বন্দিদের ওপর নির্যাতনের মাত্রা বেড়েই চলেছে। অত্যাচার নির্যাতন তাদের জীবনকে দুর্বিষহ করে তুলেছে। এমনকি ফিলিস্তিনের মুসলিম বন্দিদেরকে তাদের প্রধান ধর্মীয় উৎসব ঈদ-উল-ফিতরও উদযাপন করতে দেয়া হয়নি।

গত ৭ জুন দেয়া এক বিবৃতিতে বলা হয়, ‘ইসরাইলের কারাগারে ফিলিস্তিনি বন্দিদের ইচ্ছামাফিক অত্যাচার নির্যাতনে তাদের জীবনকে দুর্বিষহ করে তুলেছে। বিভিন্ন কারাগারে ধারাবাহিকভাবে রুটিনমাফিক ফিলিস্তিনি বন্দিদের নির্যাতন করা হচ্ছে। কারাবন্দিরা যেন স্থিরভাবে জীবনযাপন করতে না পারে সে জন্য তাদেরকে ঘন ঘন বিভিন্ন জেলে স্থানান্তর করা হচ্ছে।

বিবৃতিতে আরো বলা হয়, ফিলিস্তিনি বন্দিদের ওপর নির্যাতনের পাশাপাশি ঈদ-উল-ফিতর উদযাপন বন্ধের এ নির্দেশনা সব বর্বরতাকেই হার মানিয়েছে ইসরাইল।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: