রবিবার, ১৬ জুন ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ২ আষাঢ় ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
বিকল্প কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা না থাকায় ভালো নেই সুনামগঞ্জের হাওরাঞ্চলের মানুষ  » «   সীমান্তে বাংলাদেশি হত্যা ‘অনাকাঙ্ক্ষিত মৃত্যু’: বিএসএফ মহাপরিচালক  » «   সর্বোচ্চ চেষ্টা’ করেও ওসি মোয়াজ্জেমকে ধরতে পারছে না পুলিশ  » «   পৃথিবীর ইতিহাসে সর্বোচ্চ তাপমাত্রার রেকর্ড কুয়েতে  » «   রোহিঙ্গা সংকট সমাধান না হলে অস্থিতিশীল হবে এশিয়া: রাষ্ট্রপতি  » «   অবশেষে ইমরান-মোদির সৌজন্য সাক্ষাৎ  » «   এমপিও পাবেন মাদরাসার সাড়ে ২১ হাজার শিক্ষক  » «   বাজেট সমালোচকদের যে গল্প শোনালেন প্রধানমন্ত্রী  » «   সুনামগঞ্জে পরিবহন সেক্টরে নৈরাজ্য ঠেকাতে প্রতিবাদ  » «   পশ্চিমবঙ্গে থাকতে হলে বাংলায় কথা বলতে হবে: মমতা  » «   ইকোসকে বিপুল ভোটে জয় পেল বাংলাদেশ  » «   মোবাইলে ১০০ টাকার কথা বললে ২৭ টাকা কেটে নেবে সরকার  » «   সাক্ষ্য দিতে চাওয়ায় প্রাণটাই কেড়ে নিল আসামিরা  » «   পশ্চিমবঙ্গকে বাংলাদেশ নয়; গুজরাট বানানো ভাল : দিলীপ ঘোষ  » «   বাজেটের প্রভাব: দাম বাড়বে যেসব জিনিসের  » «  

৯/১১ মামলা: সৌদির পর যোগ হচ্ছে আমিরাত!



আন্তর্জাতিক ডেস্ক::আমেরিকায় ২০০১ সালের ১১ সেপ্টেম্বরের সন্ত্রাসী হামলার ঘটনায় ক্ষতিগ্রস্ত ব্যক্তিদের মামলায় সংযুক্ত আরব আমিরাত বা ইউএই’র নামও যুক্ত হতে পারে। ৯/ ১১ নামে পরিচিত এ ঘটনায় ক্ষতিগ্রস্ত প্রায় ৮০০ ব্যক্তি গত মার্চে সৌদি আরবের বিরুদ্ধে ক্ষতিপূরণের মামলা করেছিলেন।

৯/১১ ঘটনায় জড়িত ১৯ বিমান ছিনতাইকারীর মধ্যে ১৫ জনই ছিল সৌদি এবং দু’জন আমিরাতের নাগরিক বলে দাবি করা হচ্ছে। কাতারের সঙ্গে সৌদি নেতৃত্বাধীন চার আরব দেশ, ইউএই, বাহরাইন এবং মিশরের চলমান কূটনৈতিক টানাপড়েনের মুখে আমিরাতের বিরুদ্ধে মামলার কথা উঠে এসেছে। মিডল ইস্ট আই নামের একটি নিউজ পোর্টাল এ খবর দিয়েছে।

এতে আরো বলা হয়েছে, এ জাতীয় মামলা করার সময়সীমা ২০১৯ সালের জানুয়ারি মাসের মধ্যেই শেষ হবে। তার আগেই ইউএই’র বিরুদ্ধে মামলা করা হতে পারে।

৯/১১ ঘটনায় স্বামী হারিয়েছেন মামলার অন্যতম বাদী ক্রিস্টেন ব্রিইটওয়েজার। তিনি বলেন, এবারে ইউএই’র দিকে নজর দেয়ার সময় এসেছে। আমাদের আইনজীবীদের এ দিকে মনোযোগ দিতে হবে বলেও জানান তিনি। তিনি আরো বলেন, ৯/১১ ঘটনায় সংযুক্ত আরব আমিরাতের হাতও পরিষ্কার নয়। ছিনতাইকারীদের সঙ্গে তাদের যোগসাজশের বিষয়টি আরো খতিয়ে দেখা উচিত বলে জানান তিনি।

৯/১১ কমিশনের প্রতিবেদনে ইউএই’র নাম ৭০ বারের বেশি উল্লেখ করা হয়েছে। সন্ত্রাসীদের অর্থ যোগানো সংক্রান্ত বিষয়েও একবার দেশটির নাম উল্লেখ করা হয়েছে। প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ৯/১১ হামলায় জড়িত বেশির ভাগ সন্ত্রাসী দুবাই হয়ে আমেরিকায় গেছে। সন্ত্রাসী হামলায় যে অর্থ ব্যয় করেছে তা ইউএই থেকে গেছে বলেও এতে উল্লেখ করা হয়েছে। পার্সটুডে

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: