বুধবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৪ আশ্বিন ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
লন্ডনে মুসলিমদের ওপর গাড়ি হামলা, আহত ৩  » «   সরকারি চাকরিজীবীদের ৫% সুদে গৃহঋণের আবেদন অক্টোবরে  » «   ভারতে তিন তালাককে শাস্তিযোগ্য অপরাধ ঘোষণা  » «   স্কুলছাত্রীকে পিটিয়ে অজ্ঞান করলেন শিক্ষক  » «   বোমা দিচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র, আর ইয়েমেনে সেই বোমা ফেলছে সৌদি  » «   রাখঢাক রাখছেন না পর্নো তারকা ডানিয়েল স্টর্মি  » «   কাবা শরীফের ভেতরে প্রবেশের সুযোগ পেলেন ইমরান  » «   মিয়ানমারে নিলামে উঠছে সুচির ভাস্কর্য  » «   এক দিনেই মিলবে পাসপোর্ট  » «   ওসমানী বিমানবন্দরে বিমানে তল্লাশি : ৪০টি স্বর্ণের বার উদ্ধার, চোরাচালানী আটক  » «   কেউ বলতে পারবে না, কারো গলা টিপে ধরেছি: প্রধানমন্ত্রী  » «   সৌদি থেকে ফিরলেন ৪২ নারী গৃহকর্মী  » «   সাংবাদিক কল্যাণ ট্রাস্টে আরও ২০ কোটি টাকা অনুদান দেবেন প্রধানমন্ত্রী  » «   ইয়েমেনে দুর্ভিক্ষের ঝুঁকিতে ৫২ লাখ শিশু  » «   ‘২৩ হাজার পোস্টমর্টেম বনাম মানসিক সঙ্কট’  » «  

৮০ বছরের বৃদ্ধ-পঞ্চম শ্রেণির ছাত্রী, ধর্ষণের মূল্য ২০০ টাকা!



নিউজ ডেস্ক::ঘটনার পর আসামির পেছনে ছুটে পুলিশ। তবে এবার আসামির সঙ্গে বাদীর পেছনেও তাদের ছুটতে হচ্ছে। নাটোরের বড়াইগ্রামে স্কুল থেকে ডেকে নিয়ে পঞ্চম শ্রেণির এক ছাত্রীকে (১২) ধর্ষণের ঘটনায় এখন অভিযুক্তের সঙ্গে অভিযোগকারীকেও খুঁজছে পুলিশ।

পুলিশের ধারণা, ঘটনার পর অভিযোগ বা মামলা দায়ের না করে সমঝোতার পথ বেছে নিয়েছেন অভিযোগকারী।

বড়াইগ্রাম থানার অফিসার ইনচার্জ (তদন্ত) সৈকত হাসান বলেন, ‘ধর্ষণের ঘটনা আপোসের কোন সুযোগ নাই। মামলা বা অভিযোগ হতেই হবে। এটি স্বয়ং পুলিশ সুপারের নির্দেশ। অথচ বাদীকেই পাওয়া যাচ্ছে না। উল্টো তাকে খুঁজতেই পুলিশ পাঠানো হচ্ছে। এদিকে ধর্ষকও পলাতক। সাথে বাদীকেও খোঁজা হচ্ছে।’

জানা গেছে, উপজেলার গড়মাটি গ্রামের বাহাদুর প্রামাণিক (৮০) নামের এক বৃদ্ধ গড়মাটি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পঞ্চম শ্রেণির এক ছাত্রীকে কৌশলে ডেকে নিয়ে গতকাল বৃহস্পতিবার ধর্ষণ করে।

এলাকাবাসী জানান, ভুক্তভোগী শিশুটির মা তাকে ছোট রেখেই মারা গেছেন। বাবা ঢাকা শহরে থাকেন। ভুক্তভোগী শিশুটি ও তার ছোট বোনকে নিয়ে তার দাদি এই গ্রামে বসবাস করেন। হতদরিদ্র এই শিশুটির অসহায়ত্বের সুযোগ নিয়ে বৃদ্ধ বাহাদুর এ ঘটনা ঘটায়।

গড়মাটি এলাকার লোকজন ভুক্তভোগী শিশুটির বরাত দিয়ে শুক্রবার বিকেলে জানান, বৃদ্ধ তার আত্মীয় ও একই ক্লাসের অন্য একটি মেয়েকে দিয়ে তাকে বাজারে ডেকে আনে। পরে একটি দোকান ঘরে নিয়ে গিয়ে তাকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করেন। কাউকে কিছু বললে প্রাণে মেরে ফেলা হবে বলে জানিয়ে দিয়ে তাকে দুইশত টাকা হাতে ধরিয়ে দেন। কিন্তু মেয়েটি সঙ্গে সঙ্গে বাজারে এসে তার চাচাকে বলে দেন এবং তৎক্ষনাৎ এলাকাবাসী ঘটনাস্থল থেকে বৃদ্ধকে হাতেনাতে ধরে ফেলেন। বাহাদুর এর আগেও বেশ কয়েকটি ঘটনা ঘটিয়েছে। প্রভাবশালী হওয়ায় কেউ কিছু বলতে পারেন না। দুই স্ত্রীসহ তিনি এই গ্রামে বসবাস করেন।

জানা গেছে, দরিদ্র শিশুটির অসহায়ত্বের সুযোগে গ্রাম্য সালিসে সমাধানের মাধ্যমে বিষয়টি ধামাচাপা দেওয়ার জন্য উঠে পড়ে লেগেছে স্থানীয় একটি মহল।

বড়াইগ্রাম থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি) দীলিপ কুমার দাস বলেন, এখনো কেউ লিখিত অভিযোগ করেনি। তবে পুলিশের পক্ষ থেকে খোঁজা হচ্ছে ধর্ষক ও ভুক্তভোগী উভয়কেই। ভুক্তভোগীকে পেলেই আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ শুরু হবে।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: