রবিবার, ১৮ নভেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
চ্যারিটেবল মামলায় দণ্ডের বিরুদ্ধে খালেদার আপিল  » «   সিরিয়ায় মার্কিন বিমান হামলা; শিশু ও নারীসহ নিহত ৪৩  » «   থার্টি ফার্স্ট নাইট উদযাপনে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের নিষেধাজ্ঞা  » «   দু’দিনের মধ্যেই খাশোগি হত্যার পরিপূর্ণ তদন্ত রিপোর্ট : ট্রাম্প  » «   বিএনপির মনোনয়ন প্রত্যাশীদের সাক্ষাৎকার নিচ্ছেন তারেক  » «   বাড়িতে বাবার লাশ, পিএসসি পরীক্ষা দিতে গেল মেয়ে  » «   প্রবাসী স্ত্রীকে লাইভে রেখে সিলেটের স্বামীর আত্মহত্যা!  » «   খাশোগি হত্যা: যুক্তরাষ্ট্র-সৌদির নীল নকশা ও তুরস্কের উদ্দেশ্য  » «   দুই নম্বরি কেন ১০ নম্বরি হলেও ঐক্যফ্রন্ট নির্বাচনে থাকবে: ড. কামাল  » «   বোরকার বিরুদ্ধে সৌদি নারীদের অভিনব প্রতিবাদ  » «   আজ থেকে শুরু হচ্ছে প্রাথমিক ও ইবতেদায়ী সমাপনী পরীক্ষা  » «   সিডরে নিখোঁজ শহিদুল বাড়ি ফিরলেন ১১ বছর পর!  » «   ভাওতাবাজির জন্য সরকারকে গোল্ড মেডেল দেওয়া উচিৎ: ড. কামাল  » «   দিল্লির লাল কেল্লা দখলের হুমকি পাকিস্তানের!  » «   সত্য বলায় এসকে সিনহাকে জোর করে বিদেশ পাঠানো হয়েছে: মির্জা ফখরুল  » «  

২০ কোটি টাকায় ‘ভার্জিনিটি’ নিলামে বেচলেন যে মডেল



বিনোদন ডেস্ক::নিজের কুমারিত্ব বিক্রি কথাটা শুনতে অবাক লাগে। কিন্তু বর্তমান বিশ্বে যেন এটা খবরের শিরোনামে পরিণত হয়েছে। এমনই একটি ঘটনা ঘটেছে সম্প্রতি।

এক মার্কিন তরুণী নিজের পড়াশোনার খরচ চালাতে তার কুমারিত্ব বিক্রি করলেন। জিসেল নামের ওই ছাত্রী পার্ট টাইমে মডেলিং করেন।

জিসেলের দাবি, আবুধাবির এক ব্যবসায়ীর কাছে ৩০ মিলিয়ন অর্থাৎ ৩০ লাখ ডলারে কুমারিত্ব বিক্রি করেছেন তিনি। বাংলাদেশি টাকায় যার মূল্য আনুমানিক ২০ কোটি টাকা।

জিসেল জার্মানির একটি এসকর্ট ওয়েবসাইটের মাধ্যমে নিলামে তুলেছেন তার ‘ভার্জিনিটি’।

জানা যায়, আবুধাবির ওই ব্যবসায়ী সব চেয়ে বেশি দামে কিনে নেন জিসেলকে। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ দাম দিতে চেয়েছিলেন হলিউডের কোনো এক অভিনেতা। তৃতীয় সর্বাধিক ১৮ লাখ ডলার দাম দিতে চেয়েছিলেন এক রাশিয়ান রাজনীতিবিদ। তার দাম ছিল ২৪ লাখ ডলার।

মাত্র ১৯ বছরের ওই মডেল নিজেই একটি ভিডিও আপলোড করেছেন। সেখানেই তিনি ব্যাখ্যা দিয়েছেন যে নিজের স্কুলের পড়াশোনা চালানোর জন্য ও ভবিষ্যতে বিভিন্ন জায়গায় ঘোরার জন্য ওই টাকা তুলেছেন।

তিনি আরো বলেন, নিজের শরীর নিয়ে সে কি করবে না করবে সেটা সম্পূর্ণ তার ব্যাপার।

জিসেল বলেছেন, ‘আমি ভাবিনি যে নিলামে এত দাম উঠবে। স্বপ্ন সত্যি হওয়ার মত ঘটনা। যারা কুমারিত্ব বিক্রি করার বিরোধিতা করেন, তাদের ব্যবহারে আমি অবাক। আমি যদি ভালোবাসার মানুষ ছাড়া অন্য কারো সঙ্গে নিজেকে শেয়ার করতে চাই, সেটা আমার সিদ্ধান্ত।’

এই কাজের জন্য ওয়েবসাইট ব্যবহারকেই নিরাপদ মনে করেছেন জিসেল।

ওই ব্যবসায়ীর সঙ্গে দেখা করার সময় জিসেলকে নিরাপত্তা দেবে ওই এজেন্সি।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: