বৃহস্পতিবার, ২১ জুন ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৭ আষাঢ় ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
পাবনায় ছাত্রদলের কমিটি বাতিল এবং যোগ্য ও মেধাবীদের নিয়ে নতুন কমিটির দাবিতে বিভিন্ন ইউনিটের নেতৃবৃন্দের পদত্যাগ  » «   পবিত্র হজকে রাজনীতির হাতিয়ার বানিয়েছে সৌদি  » «   চুয়াডাঙ্গায় সাপের কামড়ে বৃদ্ধার মৃত্যু  » «   সিটি নির্বাচন ১৭ প্রার্থীর সাক্ষাৎকার নিয়েছে বিএনপি  » «   বৃদ্ধ মাকে মারধর, যে পরিণাম হল সন্তানের  » «   এমপিপুত্র শাবাবকে ‘শনাক্তে’ পুলিশের হাতে সিসিটিভি ফুটেজ  » «   জেনে নিন শাওয়াল মাসের ছয়টি রোজার ফজিলত  » «   মৃত্যুভয়ে ১১ তলা পাইপ বেয়ে নামে শিশুটি  » «   বিএনপির কর্মীরা এখন ঢাকায় রিকশা চালায় : ফখরুল  » «   দীপিকা-রণবীরের বিয়ের দিনক্ষণ ফাঁস!  » «   জনপ্রিয়তা বেড়েছে বিটিভির  » «   দিনদুপুরে পার্কে গণধর্ষণ, সেনাবাহিনী ঘিরে ফেলে পার্ক এলাকা  » «   ফের দক্ষিণের ১৫ রুটে বাস চলাচল বন্ধ  » «   স্বামী-সন্তানের স্বীকৃতির দাবিতে প্রবাসী স্ত্রীর অনশন  » «   সাবেক প্রেমিকা কোপাল বর্তমান প্রেমিকাকে!  » «  

হোটেলে রুম ফাঁকা নেই, ফিরিয়ে দেয়া হলো মোদিকে



আন্তর্জাতিক ডেস্ক:: ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির জন্য মহিশুরের ঐতিহ্যবাহী হোটেল ললিত মহল প্যালেসের রুম ভাড়া নিতে গিয়েছিলেন স্থানীয় কর্মকর্তারা। কিন্তু ওই হোটেল কর্তৃপক্ষ মোদির কর্মকর্তাদের শূন্য হাতে ফিরিয়ে দিয়েছে।

তারা বলেছেন, আগে থেকে একটি বিয়ের অনুষ্ঠানের জন্য হোটেলের সব রুম ভাড়া নিয়েছে স্থানীয় একটি পরিবার। আর এ কারণে হোটেল থেকে শূন্য হাতে ফিরে আসতে হয়েছে কর্মকর্তাদের; হোটেলে রাত্রিযাপন করতে পারেননি মোদি। সোমবার রাতে মহিশুরে এ ঘটনা ঘটেছে।

পরে জেলা প্রশাসন শহরের অন্য একটি হোটেলে নরেন্দ্র মোদির রাত্রি যাপনের ব্যবস্থা করে।

হোটেল ললিত মহল প্যালেসের জেনারেল ম্যানেজার জোসেফ মাথিয়াস বার্তাসংস্থা প্রেস ট্রাস্ট অব ইন্ডিয়াকে (পিটিআই) বলেন, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি, তার স্টাফ ও নিরাপত্তা কর্মকর্তাদের জন্য হোটেলের রুম ভাড়া করার জন্য জেলার উপ-কমিশনারের কার্যালয়ের এক কর্মকর্তা আমাদের কাছে এসেছিলেন।

‘একটি বিয়ের সংবর্ধনা অনুষ্ঠানের জন্য হোটেলের সব রুম ভাড়া হয়ে যাওয়ায় আমরা প্রধানমন্ত্রী ও তার সফরসঙ্গীদের রুমের ব্যবস্থা করতে পারিনি।’

মাথিয়াস বলেন, ‘বিয়ের অনুষ্ঠান ও প্রধানমন্ত্রীর আগমণ সোমবার সন্ধ্যায় কাছাকাছি সময়ে হওয়ায় এটি হয়েছে।’

তিনি বলেন, ‘হোটেলে তিনটি রুম ফাঁকা ছিল, কিন্তু প্রধানমন্ত্রী ও তার সঙ্গীদের জন্য তা পর্যাপ্ত ছিল না। নিরাপত্তার কথা বিবেচনার পাশাপাশি কর্মকর্তাদের বিশাল বহর থাকায় রুম বুক দেয়া সম্ভব হয়নি।’

তবে মহিশুর জেলা প্রশাসন প্রধানমন্ত্রীর জন্য অন্য একটি হোটেলে রাত্রিযাপনের ব্যবস্থা করে। পরে রাতে মহিশুরের হোটেল র্যাডিশন ব্লুতে অবস্থান করেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি।

সোমবার কর্নাটকের হাসান জেলার শ্রাবণ বেলগোলায় একটি ধর্মীয় অনুষ্ঠানে যোগ দিতে গিয়েছিলেন ভারতের এই প্রধানমন্ত্রী। রাজ্যে একাধিক দলীয় কর্মসূচিও ছিল তার।

সূত্র : এনডিটিভি, পিটিআই।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: