বৃহস্পতিবার, ২১ মার্চ ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৭ চৈত্র ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
সুখী দেশের তালিকায় বাংলাদেশের ১০ ধাপ অবনতি  » «   জাফর ইকবালকে হত্যাচেষ্টা মামলায় সাক্ষ্যগ্রহণ শুরু  » «   আইডিয়া’র ২৫ বছর পূর্তি উৎসবে র‍্যালি, আলোচনাসভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান  » «   উন্নয়ন করতে গিয়ে জীবন ও জীবিকার যেন ক্ষতি না হয় : প্রধানমন্ত্রী  » «   আজ দিন রাত সমান, আকাশে থাকবে সুপারমুন  » «   সহকর্মীর হাতে খুন হলেন তিন ভারতীয় সেনা  » «   মসজিদে হামলাধারী ব্রেন্টন আইএস থেকে ভিন্ন কিছু নয়: এরদোগান  » «   সিলেটে মেশিনে আদায় হবে যানবাহনের মামলার জরিমানা  » «   গ্যাসের দাম ১৩২% বৃদ্ধির প্রস্তাব হাস্যকর  » «   মেয়রের আশ্বাসে ২৮ মার্চ পর্যন্ত আন্দোলন স্থগিত  » «   দরিদ্র বলে এদেশে কিছু থাকবে না : প্রধানমন্ত্রী  » «   এক সপ্তাহের মধ্যে আবরারের পরিবারকে ১০ লাখ টাকা ক্ষতিপূরণ দেওয়ার নির্দেশ  » «   গুলিবিদ্ধ বাংলাদেশি ওমরের মুখে মসজিদে হামলার লোমহর্ষক বর্ননা…  » «   আজ প্রয়াত রাষ্ট্রপতি জিল্লুর রহমানের মৃত্যুবার্ষিকী,আ. লীগের শ্রদ্ধা  » «   আল্লাহর কসম, ইসলাম গ্রহণ করে আমি সম্মানিত: মার্কিন সঙ্গীতশিল্পী  » «  

হযরত মুহাম্মাদ (সা:) কে নিয়ে যা বললেন মমতা ব্যানার্জী



আন্তর্জাতিক ডেস্ক:: পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী তৃণমূল নেত্রী মমতা ব্যানার্জী এবার হজরত মুহাম্মাদ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের মূল মিশনের কথা তুলে ধরেন। কলকাতা যুব তৃণমূলের আয়োজনে বাবরি মসজিদ ধ্বংসের ২৫তম সংহতি দিবস উপলক্ষে আয়োজিত সমাবেশে তিনি বিশ্বনবির প্রশংসা করেন।

পশ্চিম বঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ‘আমি সব ধর্মকে ভালোবাসি ও বিশ্বাস করি। যতক্ষণ জীবন থাকবে সব ধর্মের জন্য লড়াই করে যাব।’তিনি আরো বলেন, ‘সব ধর্মের মানুষের অধিকার রক্ষাই আমার জীবনের শুরু ও শেষ লক্ষ্য। এটাই আমার ভাষা এবং প্রত্যাশা। ভারতে বৈচিত্রের মধ্যে রয়েছে ঐক্য। নানা ভাষা ও নানা মতের মধ্যেই মহান ঐক্য নিয়ে আমরা বাঁচব। এটাই আমাদের শপথ, এটাই আমাদের অঙ্গীকার।’

মমতা ব্যানার্জী এ সংহতি দিবসের আলোচনা অনুষ্ঠানে বিশ্বনবিকে নিয়ে বলেন, ‘বিশ্বনবী দিবস পালিত হল ক’দিন আগে। তিনি (বিশ্বনবি) কী বলেছেন?-

তাঁকে যখন আহত করা হয়েছে, তিনি বলেছেন, ‘আমাকে আঘাত করেছ বলে আমি কাউকে আঘাত করবো না। আমি অভিশাপ দিতে পৃথিবীতে আসিনি। আমি মানুষকে মুক্তি দিতে এসেছি। আমি মানুষকে রক্ষা করতে এসেছি। আমি মানুষকে রক্ষা করতে এসেছি। এটা আমার সবচেয়ে বড় পরিচয়।’

এরপর মমতা ব্যানার্জী বলেন, ‘অসহিষ্ণুতা’ আজ একটি রাজনৈতিক দল ও সরকারের কর্মসূচি!‘ একটা সরকারের কর্মসূচি কখনো একটা ধর্ম নিয়ে হতে পারে না। সরকারের কর্মসূচি সব মানুষকে নিয়ে হওয়া উচিত।

দেশে ধর্ম, জাতি, বর্ণ নিয়ে উসকানি দেয়া হচ্ছে বলেও মমতা ব্যানার্জী অভিযোগ করে বলেন, ‘২৫ বছর আগে যে ভাগাভাগি শুরু হয়েছিল, সেই ভাগাভগি আজও চলছে।’ যা কোনোভাবে কাম্য নয়।’

উল্লেখ্য যে, ১৫২৭ খ্রিস্টাব্দে ভারতের উত্তর প্রদেশের ফৈজাবাদ জেলার অযোধ্যা শহরের রামকোট হিলের ওপর ভারতের প্রথম মুঘল সম্রাট বাবরের নির্দেশে ঐতিহাসিক বাবরি মসজিদ নির্মিত হয়। সম্রাট বাবরের নামানুসারে এ মসজিদের নামকরণ করা হয় বাবরি মসজিদ।

১৯৯২ সালে একটি রাজনৈতিক সমাবেশের উগ্র বক্তব্যের জেরে বাবরি মসজিদ সম্পূর্ণরূপে ধ্বংস করে দেয়। যদিও ভারতীয় সুপ্রিম কোর্টের আদেশ অনুযায়ী মসজিদের কোনো ক্ষতি হবে মর্মে প্রতিশ্রুতি দিয়ে সে সমাবেশের আয়োজন করা হয়।

আজ থেকে ২৫ বছর আগে সে সমাবেশে পুরো ইন্ডিয়া থেকে দেড় লাখের বেশি লোক জড়ো হয় এবং সমাবেশ শেষে বাবরি মসজিদটি ধ্বংস করে দেয়া হয়। সে সময় ভারতের প্রধান শহরগুলোতে সাম্প্রদায়িক দাঙ্গা দেখা দেয়। শুধু মুম্বাই ও দিল্লি শহরে ২০০০ হাজার মানুষের প্রাণহানি ঘটে।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: