বৃহস্পতিবার, ২২ অগাস্ট ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৭ ভাদ্র ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
তিন সিটিতে বিএনপির মেয়র প্রার্থী যারা  » «   ইতিহাসের পুনরাবৃত্তি: চিদম্বরমের সময় অমিত, অমিতের সময় চিদম্বরম গ্রেপ্তার  » «   অক্টোবর থেকে মোবাইল অ্যাপে মিলবে বিমানের টিকিট  » «   আগামীকাল জুমার নামাজের পর গণবিক্ষোভের ডাক কাশ্মীরিদের  » «   হবিগঞ্জে ডাক্তার পরিচয় দিয়ে নবজাতক চুরি, নারী আটক  » «   কলকাতায় সড়ক দুর্ঘটনায় ২ বাংলাদেশির মৃত্যু, চাঞ্চল্যকর তথ্য প্রকাশ  » «   ভীতি কাটাতে চা বিস্কুট খেতে খেতে ভাইভা দেবেন বিসিএস পরীক্ষার্থীরা  » «   তৃতীয় ড্রিমলাইনার ‘গাঙচিল’ উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী  » «   রাস্তার পাশে চা বানাচ্ছেন মমতা! ভিডিও ভাইরাল  » «   ঋণের টাকায় ভারত থেকে অস্ত্র কিনবে বাংলাদেশ  » «   কানাইঘাটে মৃত্যুর পাঁচ মাস পর কবর থেকে লাশ উত্তোলন  » «   কাশ্মীরে ফের যুদ্ধবিরতি লঙ্ঘন, গুলি চালিয়েছে পাকিস্তান  » «   রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন শুরু হতে পারে আজ  » «   পুলিশের ছেলে বিশ্বের এক নম্বর ডন  » «   জাহালম কাণ্ড: ১১ তদন্ত কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে দুদকের মামলা  » «  

স্বামীর মৃত্যুদণ্ডের খবর শুনেই প্রধানমন্ত্রীর কাছে কাসেমের স্ত্রীর খোলা চিঠি



14192093_613657818804179_8515121919581114414_nনিউজ ডেস্ক: মানবতাবিরোধী অপরাধে মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত জামায়াতে ইসলামীর নির্বাহী পরিষদ সদস্য ও দিগন্ত মিডিয়া করপোরেশনের চেয়ারম্যান মীর কাসেম আলীর রিভিউ আবেদন খারিজ করে দিয়েছেন সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগ। ফলে তার ফাঁসির রায় বহাল থাকল।

আজ মঙ্গলবার সকালে প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহার নেতৃত্বে পাঁচ সদস্যের আপিল বেঞ্চ এ রায় দেন। এ রায়ের পর তার পরিবারে শোকের ছায়া নেমে আসে।

এর আগে গত ১০ আগস্ট রাজধানীর মিরপুর ডিওএইচএসের বাসা থেকে মীর কাসেম আলীর ছেলে আইনজীবী মীর আহমাদ বিন কাসেম আরমানকে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর পরিচয়ে তুলে নেয়া হয়েছে বলে অভিযোগ করেছে তার পরিবার।

স্বামীর মৃত্যুদণ্ড বহালের সংবাদ ও সন্তানকে ফিরে পেতে মীর কাসেমের স্ত্রী খন্দকার আয়শা খাতুন তার ফেসবুকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বরাবর নিবেদন মূলক একটি স্ট্যাটাস দেন। সেখানে নিজেরে ছেলেকে প্রধানমন্ত্রীর কাছে ভিক্ষা চান তিনি।
পাঠকদের জন্য মীর কাসেমের স্ত্রীর ফেসবুক স্ট্যাটাসটি হুবহু তুরে ধরা হলো:

মাননীয় প্রধান মন্ত্রী

যথাযথ সম্মানপুর্ক নিবেদন

আমি এক অসহায় মা। মীর কাসেমের মৃত্যুদন্ড বহাল থাকায় আপনার নিকট আমার এবং আমার পরিবারের পক্ষ থেকে আরজ এই যে আমার পরিবারে কোন পুরুষ লোক নেই। আমার সন্তান ছোট ছেলে ব্যারিস্টার মীর আহমআদ আলী ঈ একমাত্র তার বাবা &আমাদের পরিবারের যাবতীয় কাজ করত। অর অবর্তমানে আমরা খুবেই অসহায়।

তাই মাননীয় প্রধানমন্ত্রী গত ৯ ঈ আগস্ট সাদা পোষাকে উঠিয়ে নেয়ার পরে আজ পর্যন্ত কোন খোঁজ পাইনি।

জনাব প্রধানমন্রী, আমি স্বামীর এই শেষ মুহুর্তে তাকে অবশ্য ঈ আমাদের মাঝে পেতে হবে। অকে ছাড়া আমাদের কোন কাজই করতে পারা সম্ভব নয়।

যে কোন ভাবেই হোক মানবীয়ভাবে এবং বাস্তব প্রোয়োজনেই আমাদের কাছে আরমান ফিরয়ে দিতে দিন।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: