শুক্রবার, ১৯ অক্টোবর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৪ কার্তিক ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
বিএনপির বিরুদ্ধে গায়েবি মামলার প্রমাণ নেই : আমু  » «   অংশ্রহণমূলক নির্বাচনের জন্য সহযোগিতা করতে প্রস্তুত ইইউ  » «   কমলগঞ্জে ট্রাক চাপায় তরুণী নিহত,চালক পালাতক  » «   বি. চৌধুরীর চায়ের দাওয়াতে যাচ্ছে ন্যাপ–এনডিপি  » «   নভেম্বরের প্রথম সপ্তাহে জাতীয় নির্বাচনের তফসিল: ইসি সচিব  » «   ঈশ্বর, মৃত্যু-পরবর্তী জীবন ও স্বর্গ নিয়ে যা ভাবতেন স্টিফেন হকিং  » «   আইয়ুব বাচ্চুর মৃত্যুতে রাষ্ট্রপতি-প্রধানমন্ত্রীর শোক  » «   সাম্প্রদায়িক সম্প্রতির দৃষ্টান্ত: এক উঠোনে মসজিদ-মন্দির  » «   খাশোগি হত্যা: যুক্তরাষ্ট্রকে সাড়ে ৭ হাজার কোটি টাকা দিল সৌদি  » «   দুর্গাপূজা যেভাবে হলো হিন্দুদের প্রধান ধর্মীয় উৎসব  » «   সিলেটে ফোনে কথা বলা অবস্থায় যুবকের হঠাৎ মৃত্যু  » «   ইরান কখনো পরমাণু বোমা বানাবে না: রুহানি  » «   সিলেটে সমাবেশের অনুমতি পেয়েছে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট  » «   বাংলাদেশে আরো সৌদি বিনিয়োগ চান প্রধানমন্ত্রী  » «   কানাডায় প্রকাশ্যে গাঁজা বিক্রি শুরু, ক্রেতাদের ভিড়  » «  

স্বামীকে মেরে ১৩ বছর ধরে সেপটিক ট্যাংকে রেখেছে স্ত্রী!



আন্তর্জাতিক ডেস্ক::সেক্স র‍্যাকেট ফাঁস করার জন্য ফরিদা ভারতী নামে এক মহিলার বাড়িতে তল্লাশি চালায় পুলিশ। কিন্তু সেই বাড়িতে ঢুকে যে এই দৃশ্য দেখা যাবে সেটা দুঃস্বপ্নেও ভাবেনি পুলিশ। সেপটিক ট্যাংক ভিতর থেকে বেরোল একটা আস্ত কঙ্কাল।

ওই মধুচক্র থেকে চার মহিলাকে উদ্ধার করার পর পুলিশ দ্বিতীয়বার ওই বাড়িতে তল্লাশি চালাতে যায়। তখনই দেখে তার স্বামীর দেহ রয়েছে সেপটিক ট্যাংকের ভিতর। ১৩ বছর আগে ওই মহিলা তার স্বামীকে খুন করে সেপটিক ট্যাংকে দেহটি ফেলে দিয়েছিল বলে প্রাথমিক তদন্তে জানতে পেরেছে পুলিশ।

গত সোমবার প্রথম ওই বাড়িতে যায় পুলিশ। মুম্বইয়ের গান্ধীপাড়ার নিজের বাড়িতে মধুচক্র চালায় ফরিদা। গোপন সূত্রে এই খবর পেয়েই পুলিশ তল্লাশি চালাতে যায়। সেইসময়েই চার মহিলাকে উদ্ধার করা হয় ওই ফরিদা সহ দু’জনকে গ্রেফতার করে পুলিশ। মঙ্গলবার রাতে পুলিশ জানতে পারে শুধুমাত্র মধুচক্র চালানোই নয়, স্বামী সহ একাধিক ব্যাক্তিকে খুনও করেছে সে।

জেরায় স্বামীকে খুন করার কথা স্বীকার করে নেয় ফরিদা। ১৩ বছর আগে স্বামী সহদেবকে হত্যা করে বাথরুমের নিচে সেপটিক ট্যাংকে দেহ ফেলে দিয়েছে বলে জানায়। এরপর বুধবার সেই দেহ খুঁড়ে বের করা হয়। মাথায় আঘাত করে স্বামীকে মেরেছিল বলে জানায় ফরিদা। খুনের কারণ এখনও জানা যায়নি। তদন্ত চালাচ্ছে পুলিশ।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: