শুক্রবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৬ আশ্বিন ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
রোহিঙ্গাদের পাশে দাঁড়িয়ে দুই পুরস্কার পাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী  » «   ডিজিটাল পাঠ্যবই শিক্ষার্থী ও শিক্ষক উভয়ের জন্য সহায়ক হবে: শিক্ষামন্ত্রী  » «   কাল পবিত্র আশুরা, তাজিয়া মিছিলে ছুরি-তলোয়ার নিষিদ্ধ  » «   জেল থেকে বাসায় ফিরলেন নওয়াজ-মরিয়ম  » «   রোহিঙ্গাদের জন্য বিশ্বব্যাংকের ৫ কোটি ডলার সহায়তা  » «   রান্নাঘরের গ্রিল কেটে শাবির ছাত্রী হলে চুরি,নিরাপত্তাহীনতায় ছাত্রীরা  » «   এখনও জঙ্গি হামলার ঝুঁকিতে বাংলাদেশ : যুক্তরাষ্ট্র  » «   মোদিকে ইমরানের চিঠি: পুনরায় শান্তি আলোচনা শুরুর তাগিদ  » «   খালেদা জিয়ার অনুপস্থিতেই বিচার চলবে: আদালত  » «   ফুটপাতের খাবার বিক্রেতা থেকে সিঙ্গাপুরের রাষ্ট্রপতি!  » «   বিএনপি নেতাদের ওপর ক্ষুব্ধ তারেক রহমান!  » «   পায়রা বন্দরের নিরাপত্তায় পুলিশের বিশেষ আয়োজন  » «   সরকারের চাপের মুখে দেশত্যাগ করতে হয়েছে: এসকে সিনহা  » «   পুতিন আমাকে হত্যার চেষ্টা করেছে : রাশিয়ান মডেল  » «   বঙ্গোপসাগরে নিম্নচাপ: ৩ নম্বর সতর্ক সংকেত  » «  

সীতাকুণ্ডে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযানে ৩০টি চার্জার জব্দ



নিজস্ব প্রতিবেদক :: সীতাকুণ্ড উপজেলার বড় কুমিরা ঘাটঘর এলাকা জুড়ে ছোট ছোট গ্যারেজে অবাধে চলছিলো অবৈধ ব্যাটারি চালিত রিক্সার ব্যাটারিতে চার্জ ব্যবসা।

রোববার ( ১২ ফেব্রুয়ারি)  এমন গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে চুক্তি ভঙ্গকারী ওই সব বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন করা হয়েছে। একই সময় ৩০টি চার্জার জব্দ করেন ভ্রাম্যমান আদালত।

এতে নেতৃত্ব দেন সীতাকুণ্ড সহকারি কমিশনার (ভূমি) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো.রুহুল আমীন।

নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো.রুহুল আমীন সিটিজিনিউজকে বলেন, বড় কুমিরা ঘাটঘর রোডের দুইপাশে প্রায় অর্ধশতাধিক ছোটো ছোটো গ্যারেজে ব্যাটারি চালিত রিক্সার ব্যাটারি চার্জ হচ্ছে।প্রতিদিন ২৪ ঘন্টা চার্জ হচ্ছে।এক মিটারে ১৫ দোকানে বিদ্যুৎ সরবরাহ। প্রতিটি দোকানে তিনটা করে রিক্সা চার্জ হচ্ছে।

 উপজেলাধীন বড় কুমিরা ঘাটঘর রোড এলাকার বিভিন্ন গ্যারেজে অভিযান পরিচালনা করা হয়।এসময় সাইফুল আলম রাইস মিলে অভিযান পরিচালনাকালে দেখা যায় রাইস মিল বন্ধ কিন্তু রাইস মিলের পাশে একটা গ্যারেজ বানিয়ে প্রতিদিন ১৫ টি রিক্সায় চার্জ দেয়া হয়।

প্রতিটি রিক্সা থেকে চার্জ বাবদ ৫০/৬০ টাকা আদায় করা হয়। একই এলাকার আব্দুল্লার গ্যারেজে অভিযানকালে দেখা যায় আবাসিকের সংযোগ নিয়ে বাণিজ্যিকভাবে একসাথে ৩০ টি রিক্সায় চার্জ দেয়া হচ্ছে।প্রতিটি রিক্সা থেকে চার্জ বাবদ আদায় করা হচ্ছে ৫০/৬০ টাকা।

একই এলাকার একটি ষ্টেশনারির দোকানে অভিযানকালে দেখা যায় ষ্টেশনারির দোকানে সংযোগ নিয়ে বাণিজ্যিকভাবে পাশের ছোট ছোট ১৫ টি গ্যারেজে বিদ্যুৎ সংযোগ দিয়ে রিক্সা চার্জ দেয়া হচ্ছে।অভিযানকালে মালিককে পাওয়া যায় নি, সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে মিটার এবং তার জব্দ করা হয়।এসময় ৩০ টি চার্জার জব্দ করা হয় বলে তিনি জানান।

 

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: