মঙ্গলবার, ১৯ মার্চ ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৫ চৈত্র ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
সিলেটে যারা হলেন ভাইস চেয়ারম্যান ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান  » «   সালাম দিয়ে পার্লামেন্টে বক্তব্য শুরু করলেন নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী  » «   ক্রাইস্টচার্চে নিহতদের শোকসভায় তোপের মুখে চেলসি ক্লিনটন  » «   রাজধানীতে বাসচাপায় বিইউপির ছাত্র নিহত, সড়ক অবরোধ  » «   সুনামগঞ্জে আ. লীগ নেতাকে ছুরিকাঘাতে হত্যা, আটক ৩  » «   বিয়ানীবাজারে পল্লবের অর্ধেক ভোটও পাননি নৌকার আতাউর  » «   উপজেলা নির্বাচন: গোলাপগঞ্জে কে পেলেন কত ভোট  » «   একতরফা নির্বাচন গণতন্ত্রের জন্য অশনিসংকেত: মাহবুব তালুকদার  » «   উপজেলা নির্বাচন: দ্বিতীয় ধাপের ভোট গ্রহণ শেষ, চলছে গণনা  » «   পুলিশ কেন জনগণের বন্ধু নয়?  » «   ভোটার শূন্য ভোটকেন্দ্রে, দোল খাচ্ছেন নিরাপত্তা কর্মীরা  » «   অসুস্থতার কারণে খালেদা জিয়ার গ্যাটকো মামলার শুনানি পিছিয়েছে  » «   বাংলা ভাষার বঙ্গবন্ধু’ বইয়ের মোড়ক উন্মোচন করলেন প্রধানমন্ত্রী  » «   চাঁদপুরের ৫০০ বছরের পুরনো মসজিদ সংরক্ষণের সিদ্ধান্ত  » «   কাঙালের ধন চুরি…  » «  

সিঙ্গাপুরে নিজস্ব টয়লেট নিয়ে এসেছেন কিম জং উন



আন্তর্জাতিক ডেস্ক:: মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সঙ্গে বৈঠক করতে এখন সিঙ্গাপুরে অবস্থান করছেন উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং উন।

ব্যাপক নিরাপত্তা ব্যবস্থার পাশাপাশি সিঙ্গাপুরে নিজস্ব টয়লেট নিয়ে এসেছেন উ. কোরিয়ার এই নেতা।
যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্টের সঙ্গে ঐতিহাসিক বৈঠকে বসছেন উত্তর কোরিয়ার সর্বোচ্চ নেতা কিম জং উন। মঙ্গলবার সিঙ্গাপুরের সেন্তোসা দ্বীপের ক্যাপেল্লা হোটেলে মিলিত হবেন এ দুই নেতা। বৈঠক অংশ নিতে ইতোমধ্যে সিঙ্গাপুরে পৌঁছেছেন কিম জং উন, সঙ্গে নিয়ে এসেছেন নিজস্ব ভাসমান টয়লেট।

উত্তর কোরিয়ার এই নেতার সবসময় ভ্রমণ সঙ্গী হয় বেশ কিছু টয়লেট; এর মধ্যে একটি টয়লেট রয়েছে তার নিজের মার্সিডিজ গাড়ির ভেতরেও।

উত্তর কোরিয়ার সংবাদমাধ্যম ডেইলি নর্থকোরিয়া ২০১৫ সালে এক প্রতিবেদনে জানায়, কিম জং উনের ব্যক্তিগত ট্রেনেই শুধু তার বিশ্রাম কক্ষ আছে এমনটা নয় বরং তিনি মাঝারি অথবা ছোট আকারের যে গাড়ি অথবা বিশেষ বাহনে ভ্রমণ করেন না কেন তার সবগুলোই নকশা করা হয় পাহাড়ি অথবা তুষারাবৃত পথেও চলাচলের উপযোগী করে।

উত্তর কোরিয়ার এই নেতার শারীরিক অবস্থা নিয়ে সর্বোচ্চ গোপনীয়তা বজায় রাখা হয়। উত্তর কোরিয়ার গার্ড কমান্ডের সাবেক সদস্য লি ইয়ুন-কিওল বলেন, পাবলিক টয়লেট ব্যবহার করেন না উত্তর কোরিয়ার এই নেতা। বরং সফরের সময় তার আশপাশে সবসময় রাখা হয় ভাসমান টয়লেট।

তিনি বলেন, নেতার মল পরীক্ষা করলে তার শারীরিক অবস্থার তথ্য পাওয়া যেতে পারে; যে কারণে এই বর্জ্য যেখানে সেখানে বর্জন করা হয় না।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: