বুধবার, ২৬ জুন ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ১২ আষাঢ় ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
দুই প্রকৌশলীকে পেটালেন আওয়ামী লীগ-ছাত্রলীগ নেতারা  » «   সিলেটে বিদেশী মদসহ ৪ মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার  » «   রেল লাইন সংস্কারের দাবিতে শাহবাগে সিলেটি শিক্ষার্থীদের মানববন্ধবন  » «   আসামে নাগরিক তালিকা থেকে বাদ পড়লেন আরও এক লাখ  » «   বিশ্বনাথে ডাকাতের সঙ্গে গোলাগুলি, ৫ পুলিশ গুলিবিদ্ধ  » «   প্রাথমিকে চলতি দায়িত্বপ্রাপ্ত শিক্ষকদের জন্য সুখবর  » «   স্বাস্থ্যসনদ পেলেন সাড়ে ৬২ হাজার হজ গমনেচ্ছু  » «   হবিগঞ্জে পিস্তল ঠেকিয়ে মোটরসাইকেল ছিনতাই  » «   সাংবাদিকদের বিক্ষোভ কর্মসূচি, ক্ষমা চাইতে হবে দুদককে  » «   যুক্তরাষ্ট্রে যাবার সময় নদীতে ডুবলো শরণার্থী বাবা-মেয়ে  » «   দেশে ফিরছেন সাগরে ভাসা আরও ২৪ বাংলাদেশি  » «   অস্ট্রেলিয়ায় আগুনে পুড়ে ৩ ভাই-বোন নিহত  » «   অবশেষে বরখাস্ত ডিআইজি মিজান  » «   সরকারি চাকরিতে ডোপটেস্ট বাধ্যতামূলক করা হবে : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী  » «   ঘুষ নেয়ার ভিডিও করায় সাংবাদিককে পেটাল পুলিশ, ৪ পুলিশ সদস্য ক্লোজড  » «  

সরকার যদি পদত্যাগপত্র দেয়, আমরা ভেবে দেখবো: দুদু



নিউজ ডেস্ক:: বেগম খালেদা জিয়ার পরিবার থেকে যদি প্যারোলে মুক্তির আবেদনপত্র দেওয়া হয়, তাহলে আমরা বিবেচনা করবো -স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামালের এমন বক্তব্যের প্রত্যুত্তরে বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান শামসুজ্জামান দুদু বলেছেন, ‘আপনার সরকার যদি পদত্যাগপত্র দেয়, তাহলে আমরা ভেবে দেখবো আপনাদের শাস্তি জেলে হবে, না বাইরে।

আজ সোমবার জাতীয় প্রেস ক্লাবে জাতীয়তাব‌াদী চালক দল আয়োজিত ‘গণতন্ত্র : আজকের বাংলাদেশ’ শীর্ষক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

দুদু বলেন, একসময় বাংলাদেশের গণতন্ত্র ছিল। কিন্তু এখন বাংলাদেশে গণতন্ত্র আছে-এটা দাবি করা যাবে না। দেশে এখন গণতন্ত্র নেই গণতন্ত্রকে কবর দেয়া হয়েছে। যারা ছাত্র রাজনীতি করেন, তারা জানে্‌ গণতন্ত্রের কিছু শর্ত থাকে। তার মধ্যে একটি শর্ত হলো জনগণের ভোটের অধিকার, সে অধিকারটা কেড়ে নেয়া হয়েছে।

এসময় নির্বাচন কমিশনকে গোপাল ভাঁড়ের সঙ্গে তুলনা করে তিনি বলেন, নির্বাচনের জন্য একটি নির্বাচন কমিশন আছে। কিন্তু সেই কমিশনে বসে আছে গোপাল ভাঁড়।

সরকারের কড়া সমালোচনা করে শামসুজ্জামান দুদু বলেন, প্রশাসনের এত খারাপ-ন্যক্কারজনক ঘটনা গত ৪৭ বছরে আমরা লক্ষ্য করিনি। প্রশাসন-ডিসি-এসপি-ইউএনও মিলে রাতে ঘরে ঘরে গিয়ে জনগণকে নির্বাচনে সেন্টারে যেতে নিষেধ করে এবং রাতেই ভোট শেষ করে দেয় আর নির্বাচন কমিশন বলে ইভিএম থাকলে রাতে নির্বাচন হতো না দিনে হতো। এরা মানুষ না জানোয়ার, ঠিক বুঝতে পারি না।

দুদু বলেন, প্রধানমন্ত্রী বাংলাদেশে মুক্তিযুদ্ধ-স্বৈরতন্ত্র একসঙ্গে চালাতে চাচ্ছেন। অনেক আগে প্রধানমন্ত্রী বলেছিলেন, ১ কেজি বেগুনে ১ কেজি লবণ দেব না ২ কেজি দেবো -সেটা আমার ব্যাপার। আমি প্রধানমন্ত্রীকে বলি, ঘরে রান্না করা আর রাষ্ট্র পরিচালনা করা এক জিনিস নয়- এটা বুঝতে হবে।

শামসুজ্জামান দুদু বলেন, আপনি ইডেন কলেজে পড়েছেন, দাবি করেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় পড়েছেন। আমরা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় পড়েছি। যে বিশ্ববিদ্যালয়ে-কলেজে পড়াশোনা করে, তার ন্যূনতম জ্ঞান থাকা উচিত- গণতন্ত্র কী আর স্বৈরতন্ত্র কী?

আয়োজক সংগঠনের সভাপতি মো. জসিম উদ্দিন কবীরের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক বি এম শাজাহানের সঞ্চালনায় আলোচনা সভায় উপস্থিত ছিলেন- বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টামণ্ডলীর সদস্য আব্দুস সালাম, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট আব্দুস সালাম আজাদ, যুবদল নেতা গিয়াস উদ্দিন আল মামুন, জিনাফ সভাপতি ও কৃষক দলের সদস্য লায়ন মিয়া, মো. আনোয়ার, দেশ বাঁচাও মানুষ বাঁচাও আন্দোলনের সভাপতি ও কৃষক দলের সদস্য কে এম রকিবুল ইসলাম রিপন, সংগঠনের সিনিয়র সহ-সভাপতি মানিক তালুকদার, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মিলন তালুকদার, সাংগঠনিক সম্পাদক জুয়েল খন্দকারসহ প্রমুখ।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: