শুক্রবার, ১৪ ডিসেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৩০ অগ্রহায়ণ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
২৪ ডিসেম্বর মাঠে নামছে সেনাবাহিনী, থাকবেন ম্যাজিস্ট্রেটও  » «   ইন্টারনেটে ধীর গতি ও মোবাইল ব্যাংকিং বন্ধ চায় আইনশৃঙ্খলা বাহিনী  » «   প্রার্থিতা নিয়ে শুনানি: আদালতের প্রতি খালেদা জিয়ার আইনজীবীদের অনাস্থা  » «   আওয়ামী লীগ ১৬৮ থেকে ২২০ আসনে জিতবে: জয়  » «   সিলেট-২ আসনে বিএনপির প্রার্থী তাহসিনা রুশদীর লুনার মনোনয়ন স্থগিত করেছেন হাইকোর্ট  » «   আম্বানি কন্যার বিয়েতে নাচলেন হিলারি ক্লিনটন [ভিডিও ]  » «   সিলেট-১ আসনে ধানের শীষের প্রচারণার একসঙ্গে মুক্তাদির-আরিফ  » «   সহিংসতার ঘটনা খতিয়ে দেখতে সিইসির নির্দেশ  » «   ‘ইডিয়ট’ লিখে গুগলে সার্চ দিলে কেনো আসে ট্রাম্পের ছবি?  » «   বিশ্ব ভ্রমণ করবে বাংলাদেশের প্রথম বিদ্যুৎচালিত গাড়ি  » «   খাশোগি হত্যাকাণ্ডে সৌদি আরব ছাড়পত্র পাবে না: নিক্কি হ্যালি  » «   গুগলে সবচেয়ে বেশি খোঁজ খালেদা ও হিরো আলম  » «   আস্থা ভোট, নেতৃত্বের পরীক্ষায় উতরে গেলেন তেরেসা মে  » «   ফোনালাপ ফাঁস: খন্দকার মোশাররফের বিরুদ্ধে রাষ্ট্রদ্রোহিতার অভিযোগ  » «   নির্বাচনে এজেন্ট পাওয়া নিয়ে চিন্তায় বিএনপি  » «  

শ্রেণিকক্ষে নগ্ন অবস্থায় শিক্ষক-ছাত্রী হাতেনাতে আটক!



নিউজ ডেস্ক:: বরিশাল সদর উপজেলার চরবাড়িয়া ইউনিয়নের শ্রেণিকক্ষে প্রাইভেট শিক্ষক ও জেএসসি পরীক্ষার্থীকে আপত্তিকর অবস্থায় আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেছে এলাকাবাসী।

গত শনিবার (১৭ নভেম্বর) ইউনিয়নের লামছড়ি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শ্রেণিকক্ষে এ ঘটনা ঘটেছে। আটক প্রাইভেট শিক্ষকের নাম আসাদুজ্জামান পলাশ। তিনি উপজেলার লামছড়ি গ্রামের আমজেদ হাওলাদারের ছেলে। এলাকাবাসী জানায়, বিদ্যালয়ের একটি শ্রেণিকক্ষে পলাশ প্রাইভেট পড়ান। ওই জেএসসি পরীক্ষার্থী তার ছাত্রী হওয়ার সুবাদে শনিবার সকালে সে শ্রেণিকক্ষে আসে। ওই সময় তারা দুইজন ছাড়া আর কোন শিক্ষার্থী ছিল না।

এই সুযোগে তারা অনৈতিক সম্পর্কে জড়িয়ে পড়ে। বিষয়টি বিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীরা দেখতে পেয়ে বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সদস্য নাসির হোসেন মৃধা ও রফিকুল ইসলামকে জানায়। তারা এসে উভয়কে আপত্তিকর অবস্থায় শ্রেণিকক্ষে আটক করে। একপর্যায়ে পলাশ কৌশলে পালিয়ে গিয়ে বিষয়টি সমঝোতার চেষ্টা করে। তখন ফের তাকে আটক করা হয়। পরে উভয়কে পুলিশের কাছে সোপর্দ করা হয়।

এ ব্যাপারে কাউনিয়া থানার ওসি আনোয়ার হোসেন জানান, ওই ছাত্রী ও শিক্ষক কেউ অনৈতিক সম্পর্কে জড়ানোর বিষয়টি স্বীকার করেনি। ছাত্রীর পক্ষ থেকে কোন অভিযোগও নেই। তাই উভয়কে তাদের পরিবারের জিম্মায় দেয়া হয়।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: