বুধবার, ১৭ জানুয়ারী ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৪ মাঘ ১৪২৪ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
পাবনায় সিভিল সার্জন কার্যালয়ে কমিউনিটি ক্লিনিক-এ কমর্রত কমিউনিটি হেল্থ কেয়ার প্রোভাইডারদের অবস্থান কর্মসূচী পালন  » «   আল-আকসা সংস্কারে ইসরাইলের নিষেধাজ্ঞা!  » «   ঢাবি অধিভুক্ত ৭ কলেজের মানববন্ধন ১৮ জানুয়ারি  » «   এক সপ্তাহেও সন্ধান মেলেনি নিখোঁজ পরীক্ষার্থী বাপ্পীর  » «   উজানের দেশ সমূহ হতে বাংলাদেশে মোট ৫৭ টি নদী প্রবাহিত  » «   নরসিংদীতে অটোরিকশা চালকের লাশ উদ্ধার  » «   এ দেশে কোনো দস্যুতা চলবে না : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী  » «   স্কুল ছাত্রকে পিটিয়ে হাসপাতালে পাঠালো শিক্ষক  » «   হবিগঞ্জের স্কুল পরিদর্শনে কোরিয়ার প্রতিনিধি দল  » «   সড়কে পড়ে গিয়ে যা বললেন আইভী!  » «   বেসরকারি হাসপাতালে চলছে নৈরাজ্য!  » «   নীলফামারীতে নকল সার উদ্ধার, ২০ হাজার টাকা জরিমানা  » «   সিলেটে বোলারদের দাপট  » «   ৩ লাখ ৫৯ হাজার ২৬১ সরকারি পদ শূন্য  » «   ডাকসু নির্বাচন নিয়ে হাইকোর্টের রায় বুধবার  » «  

শাহপরান (র.) হাসপাতালে ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্প উদ্বোধন



Medical-Campনিউজ ডেস্ক:এর আগে সকালে শহরতলীর শাহপরান গেইট সংলগ্ন এলাকায় নির্মিত হযরত শাহপরান (রহ.) হাসপাতালে বিনামূল্যে চিকিৎসাসেবা কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন অর্থমন্ত্রী। সিলেটের জেলা প্রশাসন, জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ, বিএমএ ও স্বাচিপ সিলেট যৌথভাবে এ কর্মসূচির আয়োজন করে। মেডিকেল ক্যাম্পে ১৫৫ জন পুরুষ,৮৩ জন মহিলা ও ৫৩ জন শিশুকে চিকিৎসা সেবা প্রদান করা হয়।
৩০ শয্যাবিশিষ্ট হযরত শাহ পরান (রহ.) হাসপাতাল ভবিষ্যতে সদর হাসপাতালে পরিণত হবে জানিয়ে অর্থমন্ত্রী অবকাঠামোগত সকল সুবিধা থাকায় আনুষ্ঠানিক উদ্বোধনের আগেই এই হাসপাতালে চিকিৎসা বো কার্যক্রম শুরু করার নির্দেশ দেন।
মুক্তিযোদ্ধা নরেশ চন্দ্র দাশকে চিকিৎসা সেবা প্রদানের মধ্য দিয়ে মেডিকেল ক্যাম্প উদ্বোধন করা হয়। তাকে চিকিৎসা সেবা দেন স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের পরিচালক (প্রশাসন) ডা. ইহতেশামুল হক চৌধুরী দুলাল।
মেডিকেল ক্যাম্পের উদ্বোধন ঘোষণা শেষে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেন, শোকের দিনে মেডিকেল ক্যাম্প আয়োজনের মতো একটি ভালো কাজের মাধ্যমে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানসহ পরিবারের শহীদ সদস্যদের প্রতি আমরা যথার্থ সম্মান প্রদর্শণ করেছি।
তিনি বলেন, শিক্ষা ও স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিত করে ক্ষুধামুক্ত বাংলাদেশ গড়ার স্বপ্ন ছিল জাতির জনকের। তাঁর শাহাদাত বার্ষিকীতে আমরা একটি হাসপাতালের কার্যক্রম শুরু করতে পেরেছি। এ অঞ্চলের প্রত্যেক নাগরিকের চিকিৎসা সেবা নিশ্চিত করার ক্ষেত্রে এ হাসপাতাল গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে বলে আশা প্রকাশ করেন মন্ত্রী।
সিলেট সিভিল সার্জন কার্যালয় জানিয়েছে, অর্থমন্ত্রীর নির্দেশানা অনুযায়ী হাসপাতালটি আনুষ্ঠানিক উদ্বোধনের পূর্ব পর্যন্ত প্রতিদিন সকাল ৮টা থেকে বেলা আড়াইটা পর্যন্ত হাসপাতালে আউটডোর সার্ভিস প্রদান করা হবে। এসময় রোগীদের কাছ থেকে টিকেট বাবত কোন ফি নেয়া হবে না।
মেডিকেল ক্যাম্পে সিলেটের বিভাগীয় কমিশনার জামাল উদ্দিন আহমদ, সিলেটের জেলা প্রশাসক মো. জয়নাল আবেদীন, ওসমানী মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ ডা. মুর্শেদ আহমদ চৌধুরী, সিলেটের সিভিল সার্জন ডা. মো. হাবিবুর রহমান, উপজেলা চেয়ারম্যান আশফাক আহমদ, সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শফিকুর রহমান চৌধুরী, ডেপুটি সিভিল সার্জন ডা. হিমাংশু লাল রায়, খাদিমপাড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান নজরুল ইসলাম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: