মঙ্গলবার, ১০ ডিসেম্বর ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ২৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
লন্ডনে দ্বিতীয় জনপ্রিয় ভাষা বাংলা  » «   ঘুষের টাকাসহ হাতেনাতে সাব-রেজিস্ট্রার আটক  » «   আর কোনো হায়েনার দল বাংলার বুকে চেপে বসতে পারবে না  » «   সিলেটে মুক্তিযুদ্ধের পাণ্ডুলিপি সংগ্রহ করলেন প্রবাসী কল্যাণমন্ত্রী  » «   ফের জাতীয় পার্টির ঢাকা জেলা শাখার সভাপতি সালমা ইসলাম এমপি  » «   বিয়ানীবাজারে ৯৯০ পিস ইয়াবাসহ পেশাদার মাদক ব্যবসায়ী আটক  » «   আয়কর দিবস উপলক্ষে সিলেটে বর্ণাঢ্য র‌্যালি  » «   এবার শ্রীমঙ্গলে ট্রেনের ইঞ্জিনে আগুন  » «   বেলজিয়ামে মসজিদে তালা দেওয়ায় বাংলাদেশিদের প্রতিবাদ  » «   পায়রা উড়িয়ে জাতীয় পার্টির ঢাকা জেলা শাখার সম্মেলন উদ্বোধন  » «   ভারতের অর্থনীতির দুরবস্থা, জিডিপি কমে সাড়ে ৪ শতাংশ  » «   পায়রা উড়িয়ে সম্মেলন উদ্বোধন করলেন শেখ হাসিনা  » «   লন্ডন ব্রিজে আবারও সন্ত্রাসী হামলা, নিহত ২  » «   চীন থেকে মা-বাবার জন্য পেঁয়াজ নিয়ে এলেন মেয়ে  » «   রক্তে ভাসছে ইরাক, নিহত ৮২  » «  

রাস্তায় দাঁড়িয়ে কাঁদছে তুবা, খুঁজছে মাকে



নিউজ ডেস্ক:: ঢাকার বাড্ডায় গুজব ছড়িয়ে গণপিটুনিতে নিহত তাসলিমা বেগম রেনুর হত্যাকারীদের গ্রেফতার ও শাস্তির দাবিতে লক্ষ্মীপুরের রায়পুরে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে। মঙ্গলবার দুপুরে রায়পুর থানার সামনে এ মানববন্ধনের আয়োজন করে স্থানীয়রা।

এতে নিহত রেনুর শিশুকন্যা তুবাসহ পরিবারের লোকজন ও আত্মীয়-স্বজনরা উপস্থিত ছিলেন। এ সময় রাস্তায় দাঁড়িয়ে কাঁদছিল তুবা। মানববন্ধনে উপস্থিত লোকজনের মাঝে মাকে খুঁজছিল সে।

মানববন্ধন চলাকালে সমাবেশে বক্তব্য রাখেন রায়পুর উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মারুফ বিন জাকারিয়া, রায়পুর পৌর যুবলীগের আহ্বায়ক তানজিদ কামাল, পৌর স্বেচ্ছাসেবক লীগের আহ্বায়ক জহির পাটওয়ারী, ফ্রেন্ডস ফোরামের সভাপতি তুহিন চৌধুরী ও উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক তারেক আজিজ জনি প্রমুখ।

মানববন্ধনে বক্তরা বলেন, ছেলেধরা গুজবে দেশের বিভিন্ন স্থানে মানসিক প্রতিবন্ধী ও নিরীহ মানুষকে হত্যা করা হচ্ছে। যারা এসব হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত তাদেরকে বিচারের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দিতে হবে। যারা গুজব ছড়িয়ে রেনুকে হত্যা করেছে তাদের বিচারের দাবিতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হস্তক্ষেপ কামনা করেন তারা।

প্রসঙ্গত, গত ২০ জুলাই সকালে ঢাকার উত্তর-পূর্ব বাড্ডা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে তাসলিমা বেগম রেনুকে (৪০) প্রকাশ্যে পিটিয়ে হত্যা করা হয়। মেয়েকে ভর্তির জন্য ওই স্কুলে খোঁজ নিতে গিয়ে গণপিটুনির শিকার হয়ে নিহত হন তিনি।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: