বুধবার, ২৩ অক্টোবর ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৮ কার্তিক ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
প্রাথমিক শিক্ষকদের সমাপনী ও বার্ষিক পরীক্ষা বর্জনের ঘোষণা  » «   পুলিশের ‘জামাই’ বলে কথা!  » «   জাস্টিন ট্রুডোকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার অভিনন্দন  » «   ফের বাড়ছে পেঁয়াজের দাম!  » «   সুনামগঞ্জে চিকিৎসকের ওপর হামলায় চেয়ারম্যান গ্রেফতার  » «   পদ হারিয়ে যা বললেন ওমর ফারুক চৌধুরী  » «   ২৯ রোহিঙ্গা মিয়ানমারে ফিরেছে, জানেই না বাংলাদেশ  » «   একনেকে ৫ প্রকল্পের অনুমোদন, ব্যয় হবে ৪৬৩৬ কোটি  » «   ফেসবুক ব্যবহারকারীদের সিলেটের এসপির সর্তকতা  » «   বায়তুল মোকাররমে হেফাজতের বিক্ষোভ সমাবেশ শুরু  » «   হবিগঞ্জে স্ত্রীকে গলাকেটে হত্যা, স্বামী আটক  » «   পুতিনের সঙ্গে বৈঠকের পর গুরুত্বপূর্ণ পদক্ষেপ নেবে তুরস্ক  » «   এমপিও নিয়ে দুপুরে গণমাধ্যমের সঙ্গে শিক্ষামন্ত্রীর মতবিনিময়  » «   মৌলভীবাজারে চাঁদাবাজির চেষ্টায় ‘ভূয়া ডিবি পুলিশ’ আটক  » «   নতুন মেরুকরণের পথে জাতীয় পার্টি  » «  

রথীশ চন্দ্র হত্যা : প্রেমিক কামরুল মাস্টার ১০ দিনের রিমান্ডে



নিউজ ডেস্ক::রংপুরের বিশেষ জজ আদালতের পাবলিক প্রসিকিউটর-পিপি রথিশ চন্দ্র ভৌমিক বাবুসোনাকে হত্যার ঘটনায় গ্রেপ্তার তাজহাট উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষক কামরুল ইসলামকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ১০ দিনের রিমান্ডে পেয়েছে পুলিশ।

বৃহস্পতিবার (৫ এপ্রিল) রাত পৌনে ১০টার দিকে রংপুরের অতিরিক্ত চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক আরিফা ইয়াসমিন মুক্তা এই রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

এর আগে রংপুরের কোতোয়ালি থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) আল আমিন জিজ্ঞাসাবাদের জন্য কামরুলের ১০ দিনের রিমান্ড আবেদন করেন। শুনানি শেষে বিচারক ১০ দিনই রিমান্ড মঞ্জুর করেন। এছাড়াও রথিশ চন্দ্রের স্ত্রী স্নিগ্ধা সরকার দীপা ও দুই স্কুলছাত্র আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন। পরে তাদের কারাগারে নিয়ে যাওয়া হয়।

প্রসঙ্গত, পাঁচ দিন ধরে নিখোঁজ থাকার পর গত মঙ্গলবার দিবাগত রাত দুইটার দিকে নগরীর তাজহাট মোল্লা পাড়ার একটি বাসা থেকে রথিশ চন্দ্রের গলিত লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।

রংপুরের বিশেষ জজ আদালতের পাবলিক প্রসিকিউটর-পিপি রথিশ চন্দ্র ভৌমিক

জঙ্গি-জামায়াত বা ব্যক্তিগত বিরোধসহ বিভিন্ন কারণে তিনি নিখোঁজ হতে পারেন এমন ধারণা থেকে তাকে উদ্ধারে অভিযান চালায় আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। পরে মরদেহ উদ্ধারের পর আইনশৃঙ্খলা বাহিনী জানায় স্ত্রীরই পরিকল্পনাতেই খুন হন আইনজীবী রথিশ।

খুনের সঙ্গে জড়িত থাকতে পারে এমন সন্দেহে নিহত রথিশ চন্দ্রের স্ত্রী দীপা ভৌমিক, কন্যা অদিতি ভৌমিক এবং দীপা ভৌমিকের কথিত প্রেমিক কামরুল ইসলাম জাফরীকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।

মরদেহ উদ্ধারের পর র‌্যাবের মহাপরিচালক বেনজির আহমেদ জানান, ২৯ মার্চ রাতেই রথিশ চন্দ্র ভৌমিককে হত্যা করা হয়। এ হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় রথিশের স্ত্রী রিতা ভৌমিক ও তার এক সহযোগী জড়িত।

বেনজির আহমেদ বলেছিলেন, আটকের পর রথিশের স্ত্রী রিতা ভৌমিককে জিজ্ঞাসাবাদ করে জানা গেছে দুই মাস আগেই রথিশকে হত্যার পরিকল্পনা করেছিল তারা। তবে নানা কারণে সেটা তখন সম্ভব হয়নি। রিতার দেয়া তথ্য অনুযায়ী মঙ্গলবার রাতে রথিশের মরদেহ উদ্ধার করা হয়। পারিবারিক অশান্তি, বিদ্বেষ ও অবিশ্বাস এবং স্ত্রী রিতা ভৌমিকের ‘পরকীয়া’ কর্মকাণ্ড এ হত্যাকাণ্ডের পেছনে রয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: