সোমবার, ৯ ডিসেম্বর ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ২৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
লন্ডনে দ্বিতীয় জনপ্রিয় ভাষা বাংলা  » «   ঘুষের টাকাসহ হাতেনাতে সাব-রেজিস্ট্রার আটক  » «   আর কোনো হায়েনার দল বাংলার বুকে চেপে বসতে পারবে না  » «   সিলেটে মুক্তিযুদ্ধের পাণ্ডুলিপি সংগ্রহ করলেন প্রবাসী কল্যাণমন্ত্রী  » «   ফের জাতীয় পার্টির ঢাকা জেলা শাখার সভাপতি সালমা ইসলাম এমপি  » «   বিয়ানীবাজারে ৯৯০ পিস ইয়াবাসহ পেশাদার মাদক ব্যবসায়ী আটক  » «   আয়কর দিবস উপলক্ষে সিলেটে বর্ণাঢ্য র‌্যালি  » «   এবার শ্রীমঙ্গলে ট্রেনের ইঞ্জিনে আগুন  » «   বেলজিয়ামে মসজিদে তালা দেওয়ায় বাংলাদেশিদের প্রতিবাদ  » «   পায়রা উড়িয়ে জাতীয় পার্টির ঢাকা জেলা শাখার সম্মেলন উদ্বোধন  » «   ভারতের অর্থনীতির দুরবস্থা, জিডিপি কমে সাড়ে ৪ শতাংশ  » «   পায়রা উড়িয়ে সম্মেলন উদ্বোধন করলেন শেখ হাসিনা  » «   লন্ডন ব্রিজে আবারও সন্ত্রাসী হামলা, নিহত ২  » «   চীন থেকে মা-বাবার জন্য পেঁয়াজ নিয়ে এলেন মেয়ে  » «   রক্তে ভাসছে ইরাক, নিহত ৮২  » «  

‘যে কোনো মুহূর্তে রায় কার্যকর করতে পারে সরকার’



11. mahbubনিউজ ডেস্ক::
রাষ্ট্রপতির কাছে ক্ষমা না চাইলে, সরকার যে কোনো মুহূর্তে কামারুজ্জামানের মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করতে পারে বলে জানিয়েছেন অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম।
বৃহস্পতিবার সুপ্রিমকোর্টে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন।

মাহবুবে আলম বলেন, সাধারণভাবে ধরে নিতে হবে যে কোনো সময় মৃত্যুদণ্ড কার্যকর হতে পারে। তবে এর অর্থ এটা না যে ৭ দিন সময় দেয়া হবে।
এর ‌‌‌আগে সকালে আইনজীবীরা কামারুজ্জামানের সঙ্গে দেখা করলে প্রাণভিক্ষা চাইবেন কি না, তা চিন্তা করার জন্য সময় চান মানবতাবিরোধী অপরাধে মৃত্যুদণ্ডাদেশ পাওয়া এই জামায়াত নেতা। তার সঙ্গে সাক্ষাৎ শেষে কামারুজ্জামানের আইনজীবী শিশির মনির বলেন, ‘কারাবিধি অনুযায়ী তিনি সাত দিন সময় পাবেন। এ সময়ের মধ্যে তিনি চিন্তাভাবনা করবেন, তারপর যৌক্তিক ও যথাযথ সময়ে জেল কর্তৃপক্ষের কাছে তার সিদ্ধান্ত জানাবেন। এ সময়ের মধ্যে তিনি যদি আমাদের সহযোগিতা প্রয়োজন মনে করেন, তাহলে কারা কর্তৃপক্ষের মাধ্যমে আবারও আমাদের সঙ্গে দেখা করতে পারবেন।’

এ বিষয়ে জানতে চাইলে অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম বলেন, ‘অন্য আইনে সাধারণত সাত দিনের কম নয়, ২১ দিনের বেশি নয়; এর মধ্যেই দণ্ড কার্যকর করার নিয়ম রয়েছে। কিন্তু সেটি এ আইনে প্রয়োজ্য নয়। অার যদি প্রাণভিক্ষা চায়, তাহলে আবেদন নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত মৃত্যুদণ্ড দেওয়া যাবে না।’
কামারুজ্জামান যে সময় চেয়েছেন তার ‘রিজনেবল সময়’ কতটুকু তা জানতে চাইলে মাহবুবে আলম বলেন, ‘রিজনেবল (যৌক্তিক) সময় বলতে সাত দিন বোঝায় না। বরং রিজনেবল মানে হচ্ছে একটি মার্সি পিটিশন লিখতে যে সময়টুকু লাগে ততটুকুই। সুতরাং এ ক্ষেত্রে সরকার চাইলেই দণ্ড কার্যকর করা যাবে।’

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: