বুধবার, ১৫ অগাস্ট ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৩১ শ্রাবণ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
১৫ আগস্ট কেন ভারতের স্বাধীনতা দিবস?  » «   খালেদার জন্মদিনে ফখরুল‘প্রাণ বাজি রেখে লড়াই করতে হবে’  » «   রাজধানীতে নির্মাণাধীন ভবন থেকে পড়ে ২ শ্রমিকের মৃত্যু  » «   ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে দীর্ঘ যানজট  » «   ঢাকায় ইলিশের কেজি মাত্র ৪০০ টাকা!  » «   অস্ট্রেলিয়ান সিনেটে প্রথম মুসলিম নারী  » «   প্রধানমন্ত্রী নয়, ইসির নির্দেশনায় চলবে প্রশাসন : নাসিম  » «   সৌদি আরবে আরও ৫ বাংলাদেশি হজযাত্রীর মৃত্যু  » «   মৃত পুরুষকে বিয়ে করলেন নারী, এরপর…  » «   যা করবেন সন্তানকে বুদ্ধিমান ও চটপটে বানাতে  » «   নিউইয়র্কে লাঞ্ছিত ইমরান এইচ সরকার  » «   কুরবানির গোশত অন্য ধর্মাবলম্বীকে দেওয়া যাবে?  » «   শাহরুখের গাড়ি-বাড়ি ও ঘড়ির দাম এত?  » «   ভ্যান চালিয়ে প্রধানমন্ত্রীর নামে জমি, এরপর…  » «   মোবাইল ফোনে নতুন কলচার্জ নিয়ে যা বলছেন গ্রাহকরা  » «  

যে কারণে প্রেমে পড়ার আগে নিজেকে চিনে নেবেন!



নিউজ ডেস্ক::সঙ্গীর সঙ্গে ডেটিংয়ে যাবেন ভালো কথা কিন্তু ডেটিংয়ে যাওয়ার আগে কিছু নিয়ম-কানুন আছে জানেন তো? কিছু বিষয় আছে যেগুলো হয়তো আপনার সঙ্গী বিরক্ত হতে পারে তাই ডেটিংয়ের আগে কিছু কিছু বিষয় এড়িয়ে চলা আপনার জন্য মঙ্গলজনক।

আপনার প্রেমের সম্পর্ক খুব ভালোভাবেই এগুচ্ছে কিন্তু হঠাৎ একটা সময় গিয়ে দেখা গেল সম্পর্কটা আর আগের মতো নেই। আপনার সঙ্গী বিভিন্ন অজুহাত দেখাচ্ছে। তার মানে আপনার সম্পর্কে ভাঙনের সৃষ্টি হচ্ছে। সে আর এই সম্পর্কটা নিয়ে এগুতে চাইছে না।

তাই প্রিয় মানুষটির সঙ্গে ডেটে যাওয়ার আগে একবার নিজেকে ভাল করে দেখুন। তবে সাজগোজ, নতুন মেকআপ, লুক চেঞ্জ- এসব নয়। নিজের ভিতরটাকে দেখুন। নিজেকে চেনেন তো? ডেটে গিয়ে যদি প্রেমটা হয়ে যায়, তবে তো সোনায় সোহাগা। উলটো দিকের মানুষটি আপনার সমস্ত মনোযোগ কেড়ে নেবে। নিজের কথা ভাবতেই ভুলে যাবেন। পরের দিন থেকে শুধু তার কীসে ভালো লাগা, কীসে সুখ, তাই আপনার ধ্যানজ্ঞান হয়ে উঠবে।

আপনি একা যে একটা সম্পূর্ণ মানুষ তা ভুলেই যাবেন। যখন এই মোহভঙ্গের সময় আসবে তখন নিজের জন্যে দুঃখ হবে না তো? আফসোস করার আগেই নিজেকে সময় দিন। নিজের মতো করেই নিজেকে চিনে নিন। তাহলে হয়তো আগামী ডেটিং একটু হলেও অন্যরকম হবে। নিজের জন্যেও বাঁচতে ইচ্ছে করবে। ভালবাসা প্রিয়জনকে দেওয়ার আগে নিজেকে দিতেই মন চাইবে।

জীবনের প্রতিটা দিন কোনও না কোনও ঘটনার জন্য আমরা বাঁচি। একটা সময় পর্যন্ত বাবা মা চাইতেন তাই ভালো রেজাল্ট করে কেরিয়ার তৈরিতেই মন পড়ে থাকত। একটা সময় সেই ধাপ পেরিয়ে এলাম। এরপর ভালো গাড়ি, ভালো বাড়ি। তারপর প্রেম। সবই নিত্য নতুন আকাঙ্খার জন্য বেঁচে থাকা। একটা সময় জীবনসঙ্গী খোঁজার পালা আসে। না না এবার আর বাবা মা নয়, আগে ডেট করে সেই মানুষটিকে বুঝে নেওয়া জরুরি। যদি মন পড়ে তাহলে তো হয়েই গেল, তাকেই মনপ্রাণ সঁপে দিয়ে নতুন জীবনে আত্মস্থ হওয়া।

কখনও ভেবেছেন, এতকিছুর মধ্যে থেকে যেতে গিয়ে নিজে কি তাই ভাবা হয়নি? নিজেকে কখনও নতুন রূপে দেখেছেন? তাহলে একদম নিজের সঙ্গে কথা বলা শুরু করুন। একা একা। নিজের সঙ্গে সময় কাটান। একা বাঁচার মধ্যেও একটা অন্যরকম ভাললাগা আছে। সেই একার পৃথিবীতে কোনও বিপদ এলে তা কীভাবে আপনি মোকাবিলা করেন, সেটাও দেখার। সেই দেখাতেই প্রণয় শুরু, নিজের প্রতি প্রণয়। নিজেকে কেমন হারকিউলিস হিরো মনে হবে, তা কল্পনাতীত। চাইলে আপনি কি কি করতে পারেন সেদিনই প্রথম জানেত পারবেন। বাড়বে আত্মপ্রেম। যা এই খোলামকুচির জীবনে বেঁচে থাকার অন্যতম রসদ।

আপনি কি উপার্জনকারী? তাহলে নিশ্চই প্রথমবারে বেতন পাওয়ার মুহূর্তটা আপনার কাছে অত্যন্ত দামি। ওই দিনটিই আপনাকে আত্মনির্ভর হতে শিখিয়েছে। নিজেকে ভাল বাসতে শিখলে এই অনুভূতি ফের ফিরে আসবে আপনার জীবনে। তাই ডেটিংয়ে যাওয়ার আগে একবার নিজেকে ভালবাসার সুযোগ করে দিন। নিজের সঙ্গেই একটা ডেট করে আসুন। তাহলে আগামীর দিনগুলো কি বিষ্ময় নিয়ে অপেক্ষা করছে, তা অনুভব করতে পারবেন।

নতুনরূপে নিজেকে জেনেছেন, দারুণ ব্যাপার। এবার তো নিজেকে একটা ট্রিট দেওয়া উচিত নাকি? তারপর না হয় ডেটের প্ল্যান করা যাবে। বন্ধুদের ভালো লাগবে বলে বিভিন্ন জায়গায় দলবেঁধে ঘুরতে গিয়েছেন। নিজের পছন্দের জায়গায় প্রায় জোর করেই বন্ধুদের নিয়ে গেছেন। তাই বলে প্রিয় জায়গায় একা একা ঘুরেছেন? বৃষ্টি ভেজা মোরামের উপর থেকে হেঁটে কাঁঠালিচাঁপার গন্ধ নিয়েছেন কখনও। সেই যে আপনার প্রিয় ফুল। যার জন্য ছুটির পর বন্ধুদের সঙ্গে ঝামেলা হত। কে কুড়িয়ে নেবে সাধের কাঁঠালিচাঁপা।

অনেক দিন পড়ন্ত বিকেলে নদির পানিতে পা ডুবিয়ে বসেননি। যান না প্রেমের ডেটে যাওয়ার আগে নিজের সঙ্গে একদিন ডেট করে আসুন। ভোরের শিশির বেজা কাঁঠালিচাঁপা থেকে শুরু করে কনে দেখা আলোয় নদীর পানি কিছুই বাদ পড়বে না। এক নির্ভেজাল দিনে নিজেকে ভালবাসতে শিখুন। তাহলেই তো আগামী ডেটে প্রিয়জনকে ভালবাসার রসদ পাবেন।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: