বুধবার, ১৯ জুন ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৫ আষাঢ় ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
ত্রিশ লাখ শহীদকে চিহ্নিত করার উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে: প্রধানমন্ত্রী  » «   খাশোগি হত্যাকাণ্ডে সালমানের জড়িত থাকার ‘বিশ্বাসযোগ্য প্রমাণ’ রয়েছে  » «   পরীক্ষামূলক স্বাস্থ্য বীমা কার্যক্রম শুরু হয়েছে: প্রধানমন্ত্রী  » «   অসুস্থ আ.ন.ম. শফিককে প্রধানমন্ত্রীর ৫ লক্ষ টাকা অনুদান  » «   কৃষকের ছেলে মুরসি যেভাবে হন মিসরের প্রেসিডেন্ট  » «   বিশ্বজুড়ে অনীহা বাড়লেও টিকায় আস্থার শীর্ষে বাংলাদেশ  » «   একাদশে ভর্তিতে দ্বিতীয় দফায় আবেদন শুরু  » «   ঢাকা-সিলেট মহাসড়কে ভারী যান চলাচল বন্ধ  » «   নতুন ও হারানো সিমকার্ডে ট্যাক্স ২০০ টাকা  » «   উত্তাল বুয়েট, ভেতরে তালা রাজপথে শিক্ষার্থীরা  » «   রোগী সেজে চেম্বারে ম্যাজিস্ট্রেট, হাতেনাতে ধরা এইচএসসি পাস ডাক্তার  » «   ইমাম বুখারীর মাজার জিয়ারত করলেন রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ  » «   বিহারে এনসেফালাইটিসে মৃত শিশুর সংখ্যা বেড়ে ১২৯  » «   সিলেট-জগন্নাথপুর সড়কে বন্ধ হয়ে যেতে পারে গাড়ি চলাচল  » «   প্রেমের টানে স্বামী-সংসার ফেলে খুলনায় জার্মান নারী  » «  

যেভাবে গণনা হবে ভারতে লোকসভা নির্বাচনের ভোট



আন্তর্জাতিক ডেস্ক:: ভারতে গত ১১ এপ্রিল থেকে শুরু হওয়া লোকসভা নির্বাচনের ভোটগ্রহণ হয়েছে। বিভিন্ন সময়ে ভোট হয়েছে মোট ৭টি ধাপে। ভারতে লোকসভার মোট আসন সংখ্যা ৫৪৫ হলেও নির্বাচন হয় ৫৪৩টি আসনে। বাকি দুটি আসন ভারতের অ্যাংলো-ইন্ডিয়ান সম্প্রদায়ের জন্য সংরক্ষিত। তাদের দুই প্রতিনিধি কে হবেন, তা ঠিক করেন ভারতের রাষ্ট্রপতি। তবে প্রায় দেড়শ’ কোটি জনসংখ্যার এ দেশটির পরবর্তী প্রধানমন্ত্রী কে হচ্ছেন তা জানা যাবে আগামী ২৩ মে।

বৃহস্পতিবার সকাল থেকেই শুরু হবে ভোট গণনার কাজ। ৯০ লাখ ভোটারের দেশ ভারতে ভোট গণনা করতে লাগবে মাত্র কয়েক ঘন্টা। কারণ একটি আসন বাদে ৫৪১টি আসনে ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিন (ইভিএম) এ ভোট নেওয়া হয়েছে। ইভিএমেই জমা আছে ভোটের ফল। এখন শুধু সারাদেশের লাখ লাখ ইভিএমের ফল যোগ করার পালা।

গণনা প্রক্রিয়া
বর্তমানে প্রতিটি আসনের ইভিএমগুলো জমা আছে নির্দিষ্ট কিছু স্ট্রং রুমে। আগামী ২৩ তারিখ স্থানীয় সময় সকাল সাড়ে ছয়টায় পর্যবেক্ষক, রিটার্নিং অফিসার বা অ্যাসিট্যান্ট রিটার্নিং অফিসার, প্রার্থী বা তার প্রতিনিধির উপস্থিতিতে স্ট্রং রুমগুলো খোলা হবে। সেনাবাহিনী এবং কেন্দ্রীয় বাহিনীর যেসব সদস্য ইলেকট্রনিকালি ট্রান্সমিটেড পোস্টাল ব্যালট সিস্টেম (ইটিপিবিএস) এর মাধ্যমে ভোট দিয়েছেন, তাদের ব্যালটগুলো খোলা হবে সকাল আটটায়।

এরপর ৮টা ১০ মিনিট ইভিএম গণনা শুরু হবে। ইভিএমের কন্ট্রোল ইউনিটের তৃতীয় অংশে থাকে ভোটের হিসেব বা রেজাল্ট সেকশন। সেখান থেকেই ইভিএমে থাকা প্রার্থীর প্রাপ্ত ভোট জানা যাবে। এই রেজাল্ট সেকশনটি জালের বাইরে থাকা প্রার্থীর এজেন্টকে দেখানো হবে।

প্রতিটি রাউন্ডের গণনার শেষে দায়িত্বপ্রাপ্ত পর্যবেক্ষক সই করবেন। পরের রাউন্ডের ইভিএম গণনাকেন্দ্রে আসবে। এ ভাবেই গণনা চলবে। পর্যবেক্ষকের সইয়ের পরেই তা নির্বাচন কমিশনের ওয়েবসাইট, নিউ সুবিধা অ্যাপ, ভোটার হেল্পলাইন অ্যাপে দেখা যাবে। ইভিএমের গণনা শেষ হওয়ার পরে ভোটার ভেরিফায়েবল পেপার অডিট ট্রেল (ভিভিপ্যাট) গণনা হবে।

ভিভিপ্যাট গণনার জন্য বিধানসভা পিছু পাঁচটি করে বুথ লটারিতে বাছাই হবে। পর্যবেক্ষক, প্রার্থী বা তাঁর প্রতিনিধির উপস্থিতিতে রিটার্নিং অফিসার লটারি প্রক্রিয়া সম্পন্ন করবেন। যদি কোনও বুথের ইভিএমের কন্ট্রোল ইউনিট প্রার্থীর প্রাপ্ত ভোট না দেখায়, তা হলে সংশ্লিষ্ট বুথের ভিভিপ্যাট গণনা হবে। ওই বুথে ভিভিপ্যাটের গণনাই চূড়ান্ত হবে। সেক্ষেত্রে লটারি প্রক্রিয়ায় ওই ভিভিপ্যাটটি থাকবে না।

ভিভিপ্যাট গণনার জন্য ভিভিপ্যাট কাউন্টিং বুথ (ভিসিবি) তৈরি হয়। এই বুথগুলো ব্যাঙ্কের ক্যাশিয়ারের কাউন্টারের মতো পাঁচ দিন থেকে ঢাকা থাকে। ভিভিপ্যাটের ১০x৫.৬ সেন্টিমিটার কাগজের বান্ডিল গুনতে জলে আঙুল ভেজানো যাবে না। ২৫টি করে ভিভিপ্যাটের কাগজ বান্ডিল করা হবে।

গণনাকর্মী
পোস্টাল ব্যালট গণনায় এক জন কাউন্টিং সুপারভাইজার, দু’জন কাউন্টিং অ্যাসিট্যান্ট, একজন কাউন্টিং মাইক্রো পর্যবেক্ষক থাকবেন।

ইভিএম গণনায় একজন কাউন্টিং সুপারভাইজার, একজন কাউন্টিং অ্যাসিট্যান্ট, একজন কাউন্টিং মাইক্রো পর্যবেক্ষক থাকবেন। দুই থেকে চারটি বিধানসভাকেন্দ্রের দায়িত্বে থাকছেন একজন প্রধান পর্যবেক্ষক। যেমন পশ্চিমবঙ্গে ১৪৪ জন প্রধান পর্যবেক্ষক গণনা প্রক্রিয়ায় থাকবেন বলে জানিয়েছে নির্বাচন কমিশন।

সূত্র: আনন্দবাজার

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: