মঙ্গলবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ২ আশ্বিন ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
চতুর্থ ড্রিমলাইনার ‘রাজহংস’ উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী  » «   সুনামগঞ্জে অজ্ঞাতনামা যুবকের মরদেহ উদ্ধার  » «   বন্দরবাজার থেকে ইয়াবাসহ দুই মাদক ব্যবসায়ী আটক  » «   আফগান প্রেসিডেন্টকে লক্ষ্য করে বোমা হামলা, নিহত ২৪  » «   বিভাগীয় শহরে হচ্ছে পূর্ণাঙ্গ ক্যান্সার চিকিৎসাকেন্দ্র  » «   মৌলভীবাজার থেকে হত্যা মামলার দণ্ডপ্রাপ্ত আসামি গ্রেপ্তার  » «   হবিগঞ্জে বিজিবির অভিযানে ১৯ কেজি গাঁজা উদ্ধার  » «   উপজেলা নির্বাচন: হবিগঞ্জ আ.লীগের ১০ বিদ্রোহী প্রার্থীকে শোকজের চিঠি  » «   রোমে যে কারণে আলোচিত প্রবাসী বাংলাদেশি তরুণ  » «   বিকেলে ‘রাজহংস’ উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী  » «   বিতর্কিত আইনে কাশ্মিরের সাবেক মুখ্যমন্ত্রী গ্রেপ্তার  » «   অপমানজনক বিতাড়ণের আগে সিনেট ও ডাকসু ছাড়ুন: শোভন-রাব্বানীকে ভিপি নুর  » «   পেঁয়াজ নেই, তবুও বিক্রির ঘোষণা টিসিবির!  » «   শর্ত ভেঙে ‘অযোগ্য’ প্রতিষ্ঠানকে কাজ দিচ্ছে গণপূর্ত  » «   মেট্রোরেলের জন্য আলাদা পুলিশ ইউনিট গঠনের নির্দেশ  » «  

মৃত্যুর আগে মুরসিপুত্রের আবেগঘন স্ট্যাটাস



আন্তর্জাতিক ডেস্ক:: হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে আদালতের কাঠগড়াতেই মারা যান মিসরের সাবেক প্রেসিডেন্ট মুরসি। তার ঠিক ৩ মাস পর তারই ছেলে আবদুল্লাহ মুরসির মৃত্যু নিয়ে তৈরি হয়েছে রহস্য। বিশেষত মৃত্যুর আগে সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে মুরসিপুত্রের আবেগঘন স্ট্যাটাস অনেক প্রশ্নের জন্ম দিয়েছে মিসরবাসীর কাছে।

গত ১৭ জুন মিসরের একটি আদালতে শুনানি চলাকালে বক্তব্য দেওয়ার সময় হঠাৎ অসুস্থ হয়ে মারা যান মুরসি। তখন বলা হয়েছিলো, হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে তার মৃত্যু হয়েছে। তার ঠিক ৩ মাস পর গত বুধবার কায়রোর একটি হাসপাতালে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে ২৪ বছর বয়সী মুরসিপুত্র আবদুল্লাহ মুরসির। কিন্তু মৃত্যুর আগে বাবা মুরসিকে উদ্দেশ্য করে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে একটি আবেগঘন স্ট্যাটাস দিয়ে গেছেন তিনি। বিচারাধীন অবস্থায় মুরসির মৃত্যু যে মেনে নিতে পারছিলেন না সেটি স্পষ্ট আবদুল্লাহর স্ট্যাটাসে।

আবদুল্লাহ মুরসির সেই স্ট্যাটাসটি প্রকাশ করে কাতারভিত্তিক সংবাদ মাধ্যম আল-জাজিরা। সেখানে আরবিতে লেখা আবদুল্লাহ মুরসির স্ট্যাটাসটির অনুবাদ করলে অর্থ দাঁড়ায়- ‘আল্লাহর শপথ! হে আমার পিতা! আমার অন্তর সুস্থ হবে না, আমার ভাঙা হৃদয় জোড়া লাগবে না এবং আমার দুশ্চিন্তাও দূর হবে না; যতক্ষণ না আমি আপনার সঙ্গে আপনারই পথে মিলিত হই। (যদি আমার আকাঙ্ক্ষা আল্লাহ পূরণ করেন) তাহলে এরপর আমার জীবনে দুনিয়ার আর কোনো কিছুই আকর্ষণ করবে না।’

কারাবন্দি অবস্থায় বিনা চিকিৎসায় মুরসির মৃত্যু আবদুল্লাহ মুরসি মেনে নিতে পারেননি সেটি স্ট্যাটাসে স্পষ্ট। পিতার সঙ্গে পুত্রের আত্মার মিলিত হওয়ার আকাঙ্ক্ষাও ছিল তীব্র। আর বিশ্লেষকরাও ধারণা করছেন যে, পিতার শোকেই আবদুল্লাহ মুরসি হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: