রবিবার, ১৯ মে ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
ভেঙ্গে যাচ্ছে সিলেট জেলা বিএনপির কমিটি!  » «   বিদেশে অবস্থানরত শ্রমিকদের প্রতি মিশনগুলোর ধারণা নেতিবাচক: পররাষ্ট্রমন্ত্রী  » «   হিজাব পরে অস্ট্রিয়ার অমুসলিম নারী সাংসদের অভিনব প্রতিবাদ  » «   গাড়ি নষ্ট, রিকশায় চড়ে অভিযানে মেয়র আরিফ  » «   মুক্তিযোদ্ধাদের ন্যূনতম বয়সের পরিপত্র অবৈধ: হাইকোর্ট  » «   কৃষক রক্ষা না করলে অভিশাপ নেমে আসবে: রিজভী  » «   ১৫তম শিক্ষক নিবন্ধনের ফল প্রকাশ, পাসের হার ২০.৫৩%  » «   মুক্তিযোদ্ধা, এতিম ও আলেমদের সঙ্গে প্রধানমন্ত্রীর ইফতার আজ  » «   রাতভর ধ্যানের পর বদ্রিনাথের পথে মোদি, রেকর্ড সংখ্যায় ভোট দেওয়ার আহ্বান  » «   জুলাই থেকে ১০ বছর মেয়াদি ই-পাসপোর্ট দেয়া হবে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী  » «   ফখরুলের আসনে মান্নাকে উপনির্বাচন করার প্রস্তাব  » «   বিমান ছিনতাই চেষ্টা: শিমলার হদিস পাচ্ছে না পুলিশ  » «   এবারের ঈদযাত্রা স্বস্তিদায়ক হবে: ওবায়দুল কাদের  » «   লন্ডনের ডেপুটি স্পিকার নির্বাচিত হলেন সিলেটের আহবাব  » «   আজ থেকে বাণিজ্যিক কার্যক্রমে বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট  » «  

মিয়ানমারের ওপর অবরোধ আরোপের সুপারিশ কানাডিয়ান দূতের



নিউজ ডেস্ক:: রোহিঙ্গা সংকট সমাধানে মিয়ানমারের ওপর অবরোধ আরোপে সমমনা দেশগুলোকে নিয়ে কার্যক্রম চালিয়ে যেতে কানাডা সরকারের প্রতি সুপারিশ করেছেন দেশটির প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ দূত বব রে।
রোহিঙ্গা সংকট নিয়ে কানাডার প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ দূতের চূড়ান্ত প্রতিবেদনে এ সুপারিশ করা হয়। বৃহস্পতিবার (২৪ মে) ঢাকার কানাডা হাইকমিশন থেকে পাঠানো এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

এতে উল্লেখ করা হয়, কানাডার প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডোর মিয়ানমার বিষয়ক বিশেষ দূত বব রে দেশটির সরকারের কাছে রোহিঙ্গা সংকট নিয়ে চূড়ান্ত প্রতিবেদন পেশ করেছেন। এই সংকট সমাধানে প্রতিবেদনে চার ভাগে ১৭টি সুপারিশ করেছেন বিশেষ দূত।

প্রতিবেদনে রোহিঙ্গা সংকটকে বাংলাদেশ ও মিয়ানমার উভয় দেশের জন্য মানবিক সংকট বলে উল্লেখ করা হয়। এছাড়া তুলে ধরা হয়েছে মিয়ানমারের রাজনৈতিক পরিস্থিতি।

কানাডার বিশেষ দূতের এ প্রতিবেদনে রোহিঙ্গা সংকট সমাধানে মিয়ানমারের ওপর অবরোধ আরোপের লক্ষ্যে কানাডার সমমনা দেশগুলোর সঙ্গে এ নিয়ে আলোচনা ও কার্যক্রম চালিয়ে যাওয়ার জন্য সুপারিশ করা হয়। একই সঙ্গে মিয়ানমারের প্রতি কানাডা সরকারের অস্ত্র নিষেধাজ্ঞা আরোপ অব্যাহত রাখার জন্য সুপারিশ করা হয়েছে প্রতিবেদনে।

রাখাইনে রোহিঙ্গাদের ওপর নৃশংসতায় যথাযথ তদন্তের সুপারিশ করা হয়েছে। সে লক্ষ্যে তথ্য-প্রমাণাদি যথাযথভাবে সংগ্রহে জোর দেওয়া হয়েছে। এসব তথ্যাদির ভিত্তিতে আন্তর্জাতিক আইনের আওতায় বিচারের সুপারিশ করা হয়েছে প্রতিবেদনে।

রোহিঙ্গা সংকট সমাধানে কানাডা সরকার শুরু থেকেই কার্যক্রম চালিয়ে আসছে। সে লক্ষ্যে কানাডার প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো গতবছর ২৩ অক্টোবর মিয়ানমার বিষয়ক বিশেষ দূত হিসেবে বব রে’কে নিযুক্ত করেন। বব রে ইতোমধ্যেই বাংলাদেশ ও মিয়ানমার সফর করেছেন। সে অনুযায়ী কানাডার বিশেষ দূত কানাডা সরকারের কাছে রোহিঙ্গা সংকট নিয়ে চূড়ান্ত প্রতিবেদন পেশ করলেন।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: