শুক্রবার, ২২ মার্চ ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৮ চৈত্র ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
সিলেটে নির্মাণ হতে যাচ্ছে স্মৃতিসৌধ,পররাষ্ট্রমন্ত্রীর ডিও লেটার  » «   সুখী দেশের তালিকায় বাংলাদেশের ১০ ধাপ অবনতি  » «   জাফর ইকবালকে হত্যাচেষ্টা মামলায় সাক্ষ্যগ্রহণ শুরু  » «   আইডিয়া’র ২৫ বছর পূর্তি উৎসবে র‍্যালি, আলোচনাসভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান  » «   উন্নয়ন করতে গিয়ে জীবন ও জীবিকার যেন ক্ষতি না হয় : প্রধানমন্ত্রী  » «   আজ দিন রাত সমান, আকাশে থাকবে সুপারমুন  » «   সহকর্মীর হাতে খুন হলেন তিন ভারতীয় সেনা  » «   মসজিদে হামলাধারী ব্রেন্টন আইএস থেকে ভিন্ন কিছু নয়: এরদোগান  » «   সিলেটে মেশিনে আদায় হবে যানবাহনের মামলার জরিমানা  » «   গ্যাসের দাম ১৩২% বৃদ্ধির প্রস্তাব হাস্যকর  » «   মেয়রের আশ্বাসে ২৮ মার্চ পর্যন্ত আন্দোলন স্থগিত  » «   দরিদ্র বলে এদেশে কিছু থাকবে না : প্রধানমন্ত্রী  » «   এক সপ্তাহের মধ্যে আবরারের পরিবারকে ১০ লাখ টাকা ক্ষতিপূরণ দেওয়ার নির্দেশ  » «   গুলিবিদ্ধ বাংলাদেশি ওমরের মুখে মসজিদে হামলার লোমহর্ষক বর্ননা…  » «   আজ প্রয়াত রাষ্ট্রপতি জিল্লুর রহমানের মৃত্যুবার্ষিকী,আ. লীগের শ্রদ্ধা  » «  

ভুল চিকিৎসায় শিশুর মৃত্যু, এলাকাবাসীর মানববন্ধন



নিউজ ডেস্ক:: বরিশাল নগরীর ২৩ নম্বর ওয়ার্ডের ১ নম্বর সিএন্ডবি পোল এলাকায় ভুল চিকিৎসায় শিশু রিয়ানের মৃত্যুতে (৫ মাস ৪দিন) অভিযুক্তদের গ্রেফতার পূর্বক দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবিতে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে। বুধবার সকাল ১০টায় নগরীর সদর রোডের অশ্বিনী কুমার হলের সামনে স্থানীয় এলাকাবাসীর উদ্যোগে এই মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।

২৩ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর এনামুল হক বাহারের সভাপতিত্বে মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন সংরক্ষিত কাউন্সিলর রেশমী বেগম, মো. শামীম হাওলাদার এবং নিহতের বাবা আলামিন হাওলাদার ও মা শাহানাজ বেগমসহ অন্যান্যরা।

মানববন্ধনে বক্তারা শিশু রিয়ানের মৃত্যুতে অভিযুক্ত শের-ই বাংলা মেডিকেলের শিশু বর্হিবিভাগের চিকিৎসক ডা. মাহমুদ হাসান খান এবং হাসপাতাল রোডের বেস্ট ফার্মেসীর ২ কর্মচারীর দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করেন।

ঠান্ডাজনিত রোগে আক্রান্ত শিশু রিয়ানকে নিয়ে গত ৬ ফেব্রুয়ারি সকালে শের-ই বাংলা মেডিকেলের বর্হিবিভাগে যায় তার বাবা-মা। এ সময় ডা. মাহমুদ হাসান খান শিশুটির ব্যবস্থাপত্রে ইনহেলার লিখে দেন। একই সাথে তিনি হাসপাতাল রোডের বেস্ট ফার্মেসি থেকে ওই শিশুটিকে ইনহেলার দেওয়ার পরামর্শ দেন তার বাবা-মাকে। ওই দিন সন্ধ্যার পর আলামিন হাওলাদার এবং শাহানাজ বেগম শিশুটিকে হাসপাতাল রোডের বেস্ট ফার্মেসিতে নিয়ে যায়। ওই ফার্মেসির ২জন কর্মচারী শিশুটিকে ইনহেলার দেয়। এর কিছুক্ষনের মধ্যেই শিশুটি মারা যায়।

এ ঘটনায় ওইদিন রাতেই শিশুটির বাবা আলামিন হাওলাদার বাদি হয়ে অভিযুক্ত চিকিৎসক মাহমুদ হাসান খান এবং বেস্ট ফার্মেসির দুই কর্মচারীকে আসামি করে কোতয়ালী মডেল থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। ওই মামলায় এখনও কোন আসামিকে গ্রেফতার করা সম্ভব হয়নি।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: