শনিবার, ১৯ জানুয়ারী ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৬ মাঘ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
অ্যাসাঞ্জের গোপন বৈঠকের খোঁজ নিচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র  » «   সৌদি নারীদের বিয়ে করতে পারবে বাংলাদেশিরা, মিলবে ভাতা  » «   এমপি কয়েসের হাত ধরে বিএনপির হাবিব এখন আওয়ামী লীগে  » «   জিয়াউর রহমানের ৮৩তম জন্মবার্ষিকী আজ  » «   রোহিঙ্গাদের দেখতে আজ বাংলাদেশে আসছেন জাতিসংঘের দূত  » «   ‘দম বন্ধ হয়ে আসছে, আমাকে ছেড়ে দিন’  » «   দুই যুগে কতটা সফল ঢাকা আন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলা?  » «   কলম্বিয়ায় পুলিশ একাডেমিতে গাড়িবোমা বিস্ফোরণ, নিহত ১০  » «   সোহরাওয়ার্দীতে আজ আওয়ামী লীগের বিজয় সমাবেশ  » «   জিয়াউর রহমানের জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে কর্মসূচি ঘোষণা  » «   সীমান্তের খালে মিয়ানমারের সেতু, বন্যার আশঙ্কা বাংলাদেশে  » «   দ্বিতীয় কৃত্রিম উপগ্রহ পাঠাবে বাংলাদেশ: শাবিতে পরিকল্পনামন্ত্রী  » «   আতিয়া মহল মামলা: ৫ দিনের রিমান্ডে ৩ আসামি  » «   শেখ হাসিনা হত্যাচেষ্টা মামলা: হাইকোর্টে আপিল শুনানি শুরু  » «   টিআইবির রিপোর্টে সরকার ও ইসির আঁতে ঘা লেগেছে: বিএনপি  » «  

বাবা করলেন ধর্ষণ, মা জিজ্ঞাস করলেন কেমন লাগলো!



আন্তর্জাতিক ডেস্ক::পরিবারকে ‘অশুভ শক্তি’ থেকে রক্ষা করতেই নিজ মেয়ে (১৫) ও তার দুই বান্ধবীকে ধর্ষণ করেছেন বলে আদালতে স্বীকারোক্তি দিয়েছেন স্পেনের বার্সেলোনা শহরের এক ব্যক্তি। ধর্ষণের জন্য ‘ওডিন’ (পৌরাণিক দেবতা) তাকে নির্দেশনা দিয়েছেন বলে জেভিয়ার জি ডি নামের ওই ব্যক্তি জানান।

গতকাল সোমবার ডেইলি মেইলের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, ধর্ষণের সময় ঘটনাস্থলে উপস্থিত ছিলেন জেভিয়ারের স্ত্রীও। মেয়ের ওপর যৌন নির্যাতনে বিরুদ্ধে সে সময় কোনো পদক্ষেপ নেননি তিনি। এমনকি মেয়ে ও তার বান্ধুবীর কাছে কেমন লেগেছে বলে অনুভূতিও জানতে চান ওই নারী।

আদালতে জেভিয়ার জানান, যদি তিনি এই কাজটি না করতেন তবে পরিবারের সদস্যরা অভিশপ্ত হতেন। এদিকে নিজের বাড়িতেও কয়েক দফা কিশোরীদের ধর্ষণ করেছেন বলে প্রতিবেদনে বলা হয়।

বিবিসির প্রতিবেদনে বলা হয়, বৃহস্পতিবার আইনজীবীরা জেভিয়ারের ৪৫ বছরের কারাদণ্ডের দাবি করে। এ সময় তার স্ত্রীর নয় বছরের জেলের দাবিও জানান তারা।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: