মঙ্গলবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২০ খ্রীষ্টাব্দ | ১৩ ফাল্গুন ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
দিল্লির বিভিন্ন স্থানে ব্যাপক সংঘর্ষে চার জন নিহত ও ৫০ জন আহত  » «   পুলিশের কব্জায় অটোরিকশা, মায়ের ক্যান্সার চিকিৎসায় শেষ সম্বলও বিক্রি  » «   ১০ লাখ শিক্ষার্থী পাবে ২৯২ কোটি টাকা  » «   ৩৪০০ টাকার পাসপোর্ট ফি ৫২০০ টাকা চেয়ে দুদকের হাতে ধরা  » «   কিশোরগঞ্জে ভাবিকে হত্যার দায়ে দেবরের মৃত্যুদণ্ড  » «   ক্ষমতাসীনরা দেশকে অন্ধকারের দিকে নিয়ে যাচ্ছে  » «   চট্টগ্রামে শিশু গৃহকর্মীর রহস্যজনক মৃত্যু  » «   মামলা তুলে না নেয়ায় স্ত্রীকে মেরেই ফেললেন স্বামী  » «   ভুয়া মুক্তিযোদ্ধা সনদে চাকরি, চার পুলিশ সদস্য কারাগারে  » «   করোনাভাইরাস : জাপানি প্রমোদতরীর আরও এক যাত্রীর মৃত্যু  » «   বঙ্গবন্ধু উপাধির ৫১ বছর  » «   ঢাকা-সিলেট ৬ লেনে এডিবির অর্থ ফেরত যাওয়ার শঙ্কা  » «   বাঈজী সরদারনি যুব মহিলালীগ নেত্রী পাপিয়ার উত্থান যেভাবে  » «   কী আছে পাপিয়ার ভিডিও ক্লিপে?  » «   ইতালিতে করোনায় আক্রান্ত ৭৯  » «  

‘ফেসবুকে মিথ্যা বললে লজ্জা পেতে হবে’



facebook-inc-news-feed_0তথ্য-প্রযুক্তি ডেস্ক:: ফেসবুকে বিভিন্ন মিথ্যা তথ্য পরিবেশনের অভ্যাস পরবর্তীতে নিজেকে ফেলতে পারে লজ্জা পাওয়ার মতো পরিস্থিতিতে। এর ফলে নিজের কাছে নিজেকেই মনে হতে পারে গুরুত্বহীন।

একটি গবেষণা প্রতিবেদনে দেখা গিয়েছে, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রায় দুই-তৃতীয়াংশ ব্যবহারকারী নিজের সত্য তথ্যকে চাপা দিয়ে ভুল তথ্য পরিবেশন করেন। এর মাধ্যমে তাঁরা নিজেকে সবার সামনে আরও আকর্ষণীয় করে উপস্থাপন করতে পারেন বলে তাঁদের কাছে মনে হয়। প্রাপ্তবয়স্ক তরুণদের মতে, তাঁরা তাঁদের সম্পর্ক, কর্মক্ষেত্রের সফলতা এবং ছুটির দিন সম্পর্কে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে মিথ্যা তথ্য উপস্থাপন করে থাকেন।

গবেষণায় সহায়তা করেছেন, এমন তরুণদের মধ্যে প্রতি ১০ জনে ১ জন জানিয়েছেন, ইতোমধ্যেই তাঁদের কাছে নিজেদের বিষাদময় লাগতে শুরু করেছে। প্রতিবেদনে বলা হয়, ১৮ থেকে ২৪ বছর বয়সী তরুন-তরুণীদের মধ্যে ১৬ শতাংশই মনে করেন মিথ্যা বলতে বলতে ইতোমধ্যেই তাঁদের মস্তিষ্ক আক্রান্ত হতে শুরু করেছে।

তাঁদের অনেকেই ডিজিটাল অ্যামনেশিয়ায় ভুগতে শুরু করে যার ফলে তাঁরা সবকিছু নিজেদের মত করে ভাবতে শুরু করে এবং প্রকৃত সত্যই ভুলতে শুরু করে। গবেষণায় আর দেখা গিয়েছে, তাঁদের মধ্যে প্রায় ৬৮ শতাংশ কোন ঘটনা সম্পর্কে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে জানাতে গেলে একেবারে খোলামেলাভাবেই মিথ্যা বলে।

এই ধরণের ঘটনা যখন একের পর এক হতে থাকে, তখন নিজের কাছে নিজেকে অপরাধী মনে হতে থাকে এবং আত্মসম্মানবোধ কমে যায়। আর এর ফলে দেখা দিতে পারে দুশ্চিন্তাগ্রস্ত হয়ে পড়াসহ আরও নানা সমস্যা।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: