বৃহস্পতিবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৭ খ্রীষ্টাব্দ | ৬ আশ্বিন ১৪২৪ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
রোহিঙ্গাদের জন্য কাজ করবে সেনাবাহিনী: কাদের  » «   রোহিঙ্গাদের সহায়তায় সৌদি-যুক্তরাষ্ট্রের ৪৭ মিলিয়ন  » «   নগরীর রাইজ স্কুলের শিক্ষা কার্যক্রম দেখে অভিভূত বিট্রিশ এমপি রুশনারা  » «   বিশ্বনাথের ৫৮ জনের চোখে ফিরবে আলো  » «   বড়লেখায় প্রতারণা মামলা : স্বামী-স্ত্রীর ১ বছরের কারাদন্ড  » «   জৈন্তাপুরে সচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষে জাল নোট প্রতিরোধমূলক কর্মশালা  » «   সিলেট অঞ্চলে মাছের কদর খুব বেশী : ব্রিটিশ এমপি রুশনারা আলী  » «   মিয়ানমার সেনাদের আর প্রশিক্ষণ দেবে না ব্রিটেন  » «   রাম রহিমের ডেরায় ৬০০ কঙ্কাল মাটিচাপা, উপরে লাগানো হয়েছে গাছ!  » «   সিলেটে তীর খেলা ও গাঁজা সেবনের অপরাধে আটক ৯  » «   রাষ্ট্রপতির সহকারী প্রেস সচিব হলেন সিলেটের ইমরানুল হাসান  » «   শ্রীমঙ্গলে অপহরণ মামলার আসামী গ্রেফতার  » «   জন্ম তারিখের জটিলতায় যেতে পারেননি রুবেল!  » «   দু’এক দিনের মধ্যেই চালের দাম কমানোর ঘোষণা  » «   হবিগঞ্জে ‘অপহৃত’ টমটম চালকের আত্মসমর্পণ!  » «  

ফের সময় পেল রাষ্ট্রপক্ষ‘সরকার এবং প্রধান বিচারপতির মধ্যে ব্রিজ অ্যাটর্নি জেনারেল’



নিউজ ডেস্ক::নিম্ন আদালতের বিচারকদের চাকরির শৃঙ্খলাসংক্রান্ত বিধিমালা গেজেট আকারে প্রকাশ করতে সরকারকে আরো এক সপ্তাহ সময় দিয়েছেন আপিল বিভাগ। সকালে গেজেট প্রকাশে রাষ্ট্রপক্ষের সময় আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহার নেতৃত্বাধীন ছয় বিচারপতির আপিল বেঞ্চ এই আদেশ দেন। রাষ্ট্রপক্ষে সময় আবেদন করেন অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম।

অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলমকে উদ্দেশ্য করে প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহা বলেন, ‘সব সময় মনে রাখবেন সরকার এবং প্রধান বিচারপতির মধ্যে ব্রিজ হল অ্যাটর্নি জেনারেল।’ এ সময় অ্যাটর্নি জেনারেল গেজেট প্রকাশে দুই সপ্তাহের সময় আবেদন করলে প্রধান বিচারপতির নেতৃত্বাধীন ছয় বিচারপতির আপিল বেঞ্চ এক সপ্তাহ সময় মঞ্জুর করেন।

গতকাল প্রধান বিচারপতির সঙ্গে বৈঠক শেষে আইনমন্ত্রী বলেছেন, ‘আগামী বৃহস্পতিবারে নিম্ন আদালতের বিচারকদের চাকরির শৃঙ্খলাসংক্রান্ত বিধিমালা গেজেট চূড়ান্ত হবে।’

এর আগেও গেজেট প্রকাশে কয়েক দফা সময় নেয় সরকার। নিম্ন আদালতের বিচারকদের চাকরির শৃঙ্খলাসংক্রান্ত বিধিমালা প্রণয়ন না করায় আইন মন্ত্রণালয়ের দুই সচিবকে ১২ ডিসেম্বর তলবও করেন আপিল বিভাগ।

গত বছরের ৭ নভেম্বর বিচারকদের চাকরির শৃঙ্খলাসংক্রান্ত বিধিমালা ২৪ নভেম্বরের মধ্যে গেজেট আকারে প্রণয়ন করতে সরকারকে নির্দেশ দিয়েছিলেন আপিল বিভাগ। ১৯৯৯ সালের ২ ডিসেম্বর মাসদার হোসেন মামলায় ১২ দফা নির্দেশনা দিয়ে রায় দেওয়া হয়। ওই রায়ের আলোকে নিন্ম আদালতের বিচারকদের চাকরির শৃঙ্খলাসংক্রান্ত বিধিমালা প্রণয়নের নির্দেশনা ছিল

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: