রবিবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২০ খ্রীষ্টাব্দ | ১১ ফাল্গুন ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
ওয়াসার পানির দাম বাড়ানোর প্রস্তাব, ক্ষুব্ধ নগরবাসী  » «   শহীদের সঙ্গে প্রেম ভাঙলো কার দোষে? মুখ খুললেন কারিনা  » «   বিনামূল্যে স্বাস্থ্যসেবা পেল সখীপুরের ২ হাজারের বেশি মানুষ  » «   সিরিয়ায় যুক্তরাষ্ট্রের বড় অস্ত্রের চালান নিখোঁজ  » «   মহেশপুর সীমান্ত দিয়ে অবৈধভাবে প্রবেশকালে আটক ৪  » «   হামলাকারীকে ক্ষমা করে দিলেন লন্ডনের সেই মুয়াজ্জিন  » «   ঋণখেলাপিদের অর্থ কোথায় যায়  » «   ভাষা দিবসে কলাগাছের শহীদ মিনারে শ্রদ্ধা  » «   এক হাজার কোটি টাকা দিতে রাজি জিপি  » «   সেই জার্মান বন্দুকধারীর হিটলিস্টে বাংলাদেশিরা  » «   আরব আমিরাতে করোনাভাইরাসে বাংলাদেশি আক্রান্ত  » «   আগুনে ১০ ঘর পুড়ে ছাই  » «   ঈশ্বরদীতে বাস-মোটরসাইকেল মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত ২  » «   চট্টগ্রামে ১৪ হাজার ইয়াবাসহ সেনাসদস্য আটক  » «   ভারতে দুই স্বর্ণখনির সন্ধান, মজুত ৩৩৫০ টন  » «  

ফিফা বর্ষসেরা নির্বাচনে ভোট কারচুপির অভিযোগ



স্পোর্টস ডেস্ক:: ফিফা বর্ষসেরা ফুটবলার নির্বাচিত হয়েছেন লিওনেল মেসি। ভ্যান ডাইক এবং ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোকে পেছনে ফেলে এই পুরষ্কারটি জিতেছিলেন বার্সালোনা সুপারস্টার। আগের মত এই পুরস্কার নিয়ে শুরুতে কোন বিতর্ক ছিল না। কিন্তু এবার ফিফা বর্ষসেরা নির্বাচনে ভোট কারচুপির অভিযোগ আনলেন নিকারাগুয়ে ফুটবল দলের অধিনায়ক

দেশটির জাতীয় ফুটবল দলের অধিনায়ক হুয়ান বারেরা একটি ইন্টারভিউতে নিজের ভোট নিয়ে কথা বলেছেন। তিনি নাকি ভোটই দেননি এই নির্বাচনে। অথচ ফলাফলে দেখা যাচ্ছে তিনি মেসিকে প্রথম ভোট দিয়েছেন। আর তারপরই শুরু হয়েছে এই পুরষ্কারের গ্রহণযোগ্যতা নিয়ে প্রশ্ন। প্রশ্ন ছোড়া হচ্ছে তাহলে কি ফিফা ভোট কারচুপি করে মেসিকে বিজয়ী করেছে?

একটি সাক্ষাৎকারে বারেরা বলেন, আমি মেসিকে ভোট দেইনি। আমি ভোটই দেইনি। কিন্তু আমি লিষ্টে আমার নাম দেখে অবাক হযেছি। লিষ্টে দেখাচ্ছে আমি মেসিকে ভোট দিয়েছি। কিন্তু আমি এই বছর ভোটই দেইনি। তিনি বলেন, ফিফা আমাকে ইমেইলে একটি লিংক দিয়েছিল ভোটের জন্য। কিন্তু আমি ভোট দেইনি।

উল্লেখ্য যে ফিফার প্রকাশিত তালিকায় দেখা গেছে তিনি প্রথম ভোট দিয়েছেন মেসিকে, দ্বিতীয়টি সাদিও মানেকে এবং তৃতীয়টি রোনালদোকে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: