সোমবার, ১৮ ফেব্রুয়ারী ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৬ ফাল্গুন ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
শুধুমাত্র আইন দিয়ে দুর্নীতি দমন করা যায় না: আইনমন্ত্রী  » «   জামায়াতের সবারই রাজ্জাকের মতো ভুল ভাঙা উচিত: ফরীদ উদ্দীন মাসঊদ  » «   সন্ত্রাসী হামলার নিন্দা জা‌নি‌য়ে মোদিকে শেখ হাসিনার বার্তা  » «   গুগলে ‘টয়লেট পেপার’ লিখলে আসছে পাকিস্তানের পতাকা  » «   পাকিস্তানের সেনাবাহিনী ও পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইট হ্যাক করেছে ভারত?  » «   সাত বছরে ৬৩ বার পেছালো সাগর-রুনি হত্যা মামলার প্রতিবেদন  » «   তিন দিনের সীমান্ত সম্মেলনে বিএসএফ প্রতিনিধিদল বাংলাদেশে  » «   বড় রাজনৈতিক দল অংশ না নেওয়া ইসির জন্য হতাশাজনক: সিইসি  » «   পাকিস্তানকে কী করতে পারবে ভারত?  » «   বঙ্গবীর ওসমানীর জন্ম-মৃত্যুবার্ষিকী রাষ্ট্রীয়ভাবে পালনের দাবি  » «   দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ায় সা’দপন্থীদের ইজতেমা শুরু  » «   মোদির স্বপ্ন কখনোই পূরণ হবে না, পাল্টা হুঙ্কার পাকিস্তানের  » «   চাকরিতে প্রবেশের বয়স ৩৫ করার খবরটি ‘টোটালি ফলস’  » «   শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ এগিয়ে যাচ্ছে: খাদ্যমন্ত্রী  » «   জামায়াত নতুন নামে পুরনো চরিত্রে ফিরে আসে কিনা তা ভাবনার বিষয়  » «  

পুত্রবধূকে মেনে না নেয়ায় শাশুড়িকে ডেকে নিয়ে হত্যা



নিউজ ডেস্ক:: বরিশালের মুলাদী উপজেলায় পুত্রবধূকে মেনে না নেয়ায় শাশুড়ি ফজিলা বেগমকে (৫০) খুন করা হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় পুত্রবধূ ফাতেমা বেগমসহ তার পরিবারের পাঁচজনকে আটক করেছে পুলিশ।

রোববার সকালে ফজিলা বেগমের মরদেহ বাড়ির সামনের খাল থেকে উদ্ধার করা হয়। নিহত ফজিলা বেগম উপজেলার সদর ইউনিয়নের দড়িচরলক্ষ্মীপুর গ্রামের প্রবাসী জাহাঙ্গীর হাওলাদারের স্ত্রী।

নিহতের ছোট ছেলে জুয়েল হাওলাদার জানান, তার বড়ভাই ওমান প্রবাসী আজাদ হাওলাদার প্রায় ৩ মাস আগে দেশে ফিরে গোপনে পাশের বাড়ির আয়নাল বেপারীর মেয়ে ফাতেমা বেগমকে বিয়ে করেন।

বিষয়টি জানাজানি হয়ে গেলে তার মা ফজিলা বেগমসহ পরিবারের সবাই বিয়ে মেনে নিতে অস্বীকৃতি জানায়। এ নিয়ে আয়নাল বেপারী ও তার পরিবারের সঙ্গে ফজিলা বেগমের পরিবারের মধ্যে বিরোধ সৃষ্টি হয়।

শনিবার রাত ৮টার দিকে আয়নাল বেপারীর ভাতিজি হালিম বেপারীর কন্যা শারমিন মোবাইলে ফজিলা বেগমকে ডেকে নেয়। রাতে বাড়ি ফিরে না আসায় তার ছেলে জুয়েল ও অন্যান্যরা বিভিন্ন স্থানে খোঁজাখুঁজি করে।

রোববার সকাল ৮টার দিকে স্থানীয় লোকজন কাজিরহাট সংলগ্ন খালে এক নারীর মরদেহ দেখতে পেয়ে জুয়েলকে সংবাদ দিলে তিনি ঘটনাস্থলে গিয়ে তার মায়ের মরদেহ শনাক্ত করেন।

মুলাদী থানা পুলিশের ওসি জিয়াউল আহসান জানান, মরদেহ উদ্ধার করে মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় আয়নাল বেপারী, তার মেয়ে ফাতেমা বেগমসহ একই পরিবারের পাঁচজনকে আটক করা হয়েছে। বিয়ের ঘটনাকে কেন্দ্র করে ফজিলা বেগম খুন হয়ে থাকতে পারেন বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করছে পুলিশ। এ ঘটনায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে বলেও জানান ওসি।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: