সোমবার, ১৪ অক্টোবর ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ২৯ আশ্বিন ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
ক্যাসিনো পঞ্চপাণ্ডবের রইল বাকি ১  » «   পুলিশের ওপর হামলা: দুই ‘জঙ্গি’ আটক  » «   সিলেট-জকিগঞ্জ সড়কে চালকদের প্রতিযোগিতায় যাত্রীবাহী বাস খাদে, আহত ৭  » «   ইনস্টাগ্রামে ট্রাম্প-ওবামাকে পেছনে ফেললেন মোদি!  » «   একটি মোবাইল চার্জারের দাম ২২ হাজার টাকা  » «   বেতন বৈষম্য: কর্মবিরতিতে সাড়ে ৩ লাখ শিক্ষক  » «   আবরার হত্যা: শেষ চার ঘণ্টার নৃশংসতার চিত্র  » «   সংবিধান পড়ে শোনালেন আমান, পুলিশ বলল ‘গো ব্যাক’  » «   বুয়েটে ভর্তি পরীক্ষা শুরু  » «   আবরার হত্যায় এবার মুজাহিদের স্বীকারোক্তি  » «   তিন সপ্তাহ ধরে কার্যালয়ে যান না যুবলীগ চেয়ারম্যান  » «   নোবেল পুরস্কার র‌্যাব-পুলিশের হাতে নয় : রিজভী  » «   বুরকিনা ফাসোতে মসজিদে ঢুকে ১৬ মুসল্লিকে গুলি করে হত্যা  » «   হবিগঞ্জে পাচারকালে ১২শ’ কেজি রসুন জব্দ  » «   সৌদি-ইরান উত্তেজনা মধ্যস্ততায় তেহরানের পথে ইমরান খান  » «  

পাকিস্তানে হামলার দায় স্বীকার আইএসের



পাকিস্তানে হামলার দায় স্বীকার আইএসের

পাকিস্তানে পুলিশ প্রশিক্ষণ কলেজে হামলার দায় স্বীকার করেছে জঙ্গি গোষ্ঠী ইসলামিক স্টেট (আইএস)। আইএস সমর্থিত আমাক নিউজ এজেন্সি জানিয়েছে, পুলিশ প্রশিক্ষণ কলেজে হামলায় আইএস যোদ্ধারা মেশিনগান এবং গ্রেনেড ব্যবহার করেছে। হামলা চালানোর পর সাহসী যোদ্ধারা ভিড়ের মধ্যে নিজেদের উড়িয়ে দিয়েছে। খবর এএফপির।

পুলিশ সূত্রে খবরে বলা হয়েছে, সোমবার রাত ১১টার দিকে অস্ত্র নিয়ে, মুখে কালো কাপড় বেধে তিন জঙ্গি হোস্টেলের ভেতর প্রবেশ করে। হোস্টেলে ঢুকেই তারা এলোপাতাড়ি গুলি চালাতে শুরু করে। সে সময় বেশ কয়েক জনকে জিম্মি করে জঙ্গিরা। এরপর হোস্টেলের ভেতরেই দুই জঙ্গি আত্মঘাতী বিস্ফোরণ ঘটায়। তৃতীয় জঙ্গি বিস্ফোরণ ঘটানোর আগেই পুলিশের গুলিতে নিহত হয়।

পুলিশ জানিয়েছে, হামলার কয়েক ঘণ্টা পরে অর্থাৎ মঙ্গলবার সকালে, ওই কলেজ চত্বর ফাঁকা করে দেওয়া হয়েছে। তবে এখনও তল্লাশি অভিযান চালানো হচ্ছে। ভয়াবহ ওই হামলায় প্রাণ হারিয়েছেন অন্তত ৬১ জন। আহত হয়েছে আরো ১১৮ জন। নিহতদের মধ্যে অধিকাংশই ক্যাডেট পুলিশ।

এদিকে, বেলুচিস্তানের আধাসামরিক বাহিনীর প্রধান মেজর জেনারেল শের আফগান পাকিস্তানি তালেবান সমর্থিত লস্কর-ই-জানভিকে ওই হামলার জন্য দায়ী করেছেন।

পাকিস্তানি তালেবানও ওই হামলার দায় স্বীকার করেছে। পাকিস্তান তালেবানের করাচি প্রধান হাকিমুল্লাহ মেহসুদের ঘনিষ্ঠ মোল্লাহ দাউদ মানসুর ওই হামলা চালিয়েছে। হামলায় চার যোদ্ধা অংশ নিয়েছিল বলে জানানো হয়েছে।

এদিকে, আইএস ওই হামলার সঙ্গে সম্পৃক্ত তিন হামলাকারীর ছবি প্রকাশ করেছে। একাধিক পক্ষ একই হামলার দায় স্বীকার করায় এ নিয়ে বিভ্রান্তি তৈরি হচ্ছে। এ বিষয়ে প্রশাসনকে আরো জোরালো ভূমিকা পালন করতে হবে।

 

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: