রবিবার, ২৪ জুন ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ১০ আষাঢ় ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
বাংলাদেশকে বাঁচাতে হলে আওয়ামী লীগকে বাঁচাতে হবে : ওবায়দুল কাদের  » «   নিজস্ব ভবন পেল আওয়ামী লীগ  » «   বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-১ : শুরু হচ্ছে নিয়ন্ত্রণ হস্তান্তরের কাজ  » «   ‘রাতের অন্ধকারে বছরের পর বছর ধর্ষণ করেছে বাবা’  » «   প্রধানমন্ত্রীর উপলব্ধি যথার্থ : রিজভী  » «   স্কুলের গেটে জলাবদ্ধতা, ছাত্রদের সড়ক অবরোধ  » «   তানোরে পুলিশের স্ত্রীর আত্মহত্যা  » «   কুমিল্লায় যুবকের গলা কাটা লাশ উদ্ধার  » «   সরিষাবাড়ীতে পানিতে ডুবে শিশুর মৃত্যু  » «   শ্রীপুরের বাড়িটিতে ৪টি বোমার বিস্ফোরণ  » «   প্রেমিকের খোঁজ নিতে গিয়ে প্রেমিকার করুণ পরিণতি!  » «   সমকামী বিয়ে ব্রিটিশ রাজ পরিবারে  » «   এবার বিমানেও ভিক্ষাবৃত্তি!  » «   প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে বিদায়ী সেনা প্রধানের সাক্ষাৎ  » «   মিয়ানমারকে আল্টিমেটাম  » «  

পরীক্ষায় নকল করে চাকরি পেলে উপার্জন কি বৈধ হবে?



ইসলাম ডেস্ক::নামাজ, রোজা, হজ, জাকাত, পরিবার, সমাজসহ জীবনঘনিষ্ঠ ইসলামবিষয়ক প্রশ্নোত্তর অনুষ্ঠান ‘আপনার জিজ্ঞাসা’। জয়নুল আবেদীন আজাদের উপস্থাপনায় বেসরকারি একটি টেলিভিশনের জনপ্রিয় এ অনুষ্ঠানে দর্শকদের বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর দেন বিশিষ্ট আলেম ড. মুহাম্মদ সাইফুল্লাহ।

প্রশ্ন : যারা পরীক্ষায় নকল করে পাস করে সার্টিফিকেট অর্জন করে এবং এই সার্টিফিকেট ব্যবহার করে চাকরি পায়, তাঁদের চাকরি থেকে প্রাপ্ত উপার্জন কি বৈধ হবে?

উত্তর : নকল করা ইসলামে হারাম। পরীক্ষাতে নকল যদি কেউ করে থাকেন, তাহলে তিনি হারাম কাজ করেছেন। এই হারাম কাজ করার জন্য তিনি বড় ধরনের গুনাহগার হবেন। তাই তাঁর এই কাজটি কোনোভাবেই গ্রহণযোগ্য নয় এবং শুদ্ধ নয়।

কিন্তু তিনি যদি চাকরি করেন এবং বৈধভাবে যদি চাকরির বেতন গ্রহণ করেন, তাহলে তাঁর এই চাকরির উপার্জন তার জন্য হালাল। চাকরির উপার্জন হালাল কিন্তু ওই নকল করে পাস করাটা হারাম, এর জন্য তিনি গুনাহগার হবেন। এ থেকে মুক্তির জন্য তাঁকে তওবা করতে হবে।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: