রবিবার, ২৬ জানুয়ারী ২০২০ খ্রীষ্টাব্দ | ১৩ মাঘ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
লন্ডনে দ্বিতীয় জনপ্রিয় ভাষা বাংলা  » «   ঘুষের টাকাসহ হাতেনাতে সাব-রেজিস্ট্রার আটক  » «   আর কোনো হায়েনার দল বাংলার বুকে চেপে বসতে পারবে না  » «   সিলেটে মুক্তিযুদ্ধের পাণ্ডুলিপি সংগ্রহ করলেন প্রবাসী কল্যাণমন্ত্রী  » «   ফের জাতীয় পার্টির ঢাকা জেলা শাখার সভাপতি সালমা ইসলাম এমপি  » «   বিয়ানীবাজারে ৯৯০ পিস ইয়াবাসহ পেশাদার মাদক ব্যবসায়ী আটক  » «   আয়কর দিবস উপলক্ষে সিলেটে বর্ণাঢ্য র‌্যালি  » «   এবার শ্রীমঙ্গলে ট্রেনের ইঞ্জিনে আগুন  » «   বেলজিয়ামে মসজিদে তালা দেওয়ায় বাংলাদেশিদের প্রতিবাদ  » «   পায়রা উড়িয়ে জাতীয় পার্টির ঢাকা জেলা শাখার সম্মেলন উদ্বোধন  » «   ভারতের অর্থনীতির দুরবস্থা, জিডিপি কমে সাড়ে ৪ শতাংশ  » «   পায়রা উড়িয়ে সম্মেলন উদ্বোধন করলেন শেখ হাসিনা  » «   লন্ডন ব্রিজে আবারও সন্ত্রাসী হামলা, নিহত ২  » «   চীন থেকে মা-বাবার জন্য পেঁয়াজ নিয়ে এলেন মেয়ে  » «   রক্তে ভাসছে ইরাক, নিহত ৮২  » «  

পরকীয়ায় আসক্ত মায়ের বিরুদ্ধে ছেলের মামলা!



নিউজ ডেস্ক:: মা পরকীয়ায় আসক্ত। বাবা বিষয়টি টের পান। তাই মাকে বিপথ থেকে ফেরানোর চেষ্টা। এতে বাবার ওপর ক্ষুব্ধ হয়ে ওঠেন মা। এক পর্যায়ে মায়ের নির্যাতন সইতে না পেরে বাবা আত্মহত্যা করেন। এমন অভিযোগ এনে মাসহ ৫ জনের বিরুদ্ধে আদালতে মামলা করেছে তার ছেলে। আদালতের আদেশে সোমবার রাতে মামলাটি থানায় রেকর্ডভূক্ত করেছে পুলিশ।ঘটনাটি ঘটেছে বগুড়ার ধুনট উপজেলার গোপালনগর ইউনিয়নের মহিশুরা গ্রামে।

মামলা সূত্রে জানা যায়, উপজেলার মহিশুরা গ্রামের দিনমজুর আবু সাইদ প্রায় ২৫ বছর আগে প্রতিবেশী গোলেনুর খাতুনকে বিয়ে করেন। তাদের ৪ সন্তান। এ অবস্থায় গোলেনুর খাতুন প্রায় এক বছর আগে পার্শ্ববর্তী গ্রামের এক যুবকের সাথে পরকীয়া প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তোলেন বলে জানা যায়। বিষয়টি আবু সাইদ টের পেয়ে স্ত্রীকে বিপথ থেকে ফেরানোর চেষ্টা করেন। এতে স্বামীর প্রতি ক্ষুব্ধ হয়ে ওঠেন স্ত্রী।

এ বিষয় নিয়ে ২৯ মার্চ রাত ৩ টায় নিজেদের শয়ন কক্ষে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে বিবাদ শুরু হয়। তখন গোলেনুর খাতুন তার ভাই, ভাবি, বোনের সহযোগিতায় আবু সাইদকে মারধর করেন। তাদের নির্যাতনের এক পর্যায়ে আবু সাইদ কীটনাশক পান করে অচেতন হয়ে পড়েন।

এ বিষয়টি টের পেয়ে প্রতিবেশী লোকজন ঘটনাস্থল থেকে আবু সাইদকে অচেতন অবস্থায় উদ্ধার করে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করে। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ৩০ মার্চ রাত ৩ টার দিকে আবু সাইদ মারা যান।

এ ঘটনায় নিহত আবু সাইদের ছেলে নুরনবী ইসলাম বাদী হয়ে ৮ এপ্রিল বগুড়া আদালতে মামলা (মামলা নং ৬৬সি/১৯) দায়ের করেন। মামলায় গোলেনুর খাতুন, তার ভাই নজরুল ইসলাম ও ভাবি মালেকা খাতুনসহ ৫ জনকে আসামি করা হয়েছে। ঘটনার পর থেকে পলাতক থাকায় আসামিদের বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

ধুনট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ইসমাইল হোসেন বলেন, আত্মহত্যার প্ররোচনার অভিযোগে আদালতে দায়ের করা মামলাটি থানায় রেডর্কভূক্ত করা হয়েছে। এই মামলার আসামিদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: