শুক্রবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ১১ ফাল্গুন ১৪২৪ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
জুটি বাঁধছেন শাকিব-শ্রাবন্তী!  » «   দু’সপ্তাহের মধ্যে রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন শুরু  » «   অল্পের জন্য বেঁচে গেলেন প্রতিমন্ত্রী  » «   লামায় অবৈধভাবে প্রবেশকালে ১৪ রোহিঙ্গা আটক  » «   দুর্ঘটনায় নিহত ছাত্রদল নেতার দাফন সম্পন্ন  » «   ফেসবুকের কবলে ‘নিঃস্ব’ যুবলীগ নেতা  » «   বাস খাদে পড়ে নিহত ৩, আহত ২০  » «   প্রেসক্লাবে খাদ্যমন্ত্রী ‘খালেদার দীর্ঘ কারাবাস চায় বিএনপির নেতৃবৃন্দ’  » «   কম সাজায় জামিন আছে তবে…  » «   সীতাকুণ্ডে শিপ ইয়ার্ডে আগুনে নিহত ১  » «   জাতীয় নির্বাচনে ‌বিএনপির অংশগ্রহণ করতে হবে  » «   খালেদার অর্থদণ্ড স্থগিত, নথি তলব  » «   মাশরাফির মেয়ে কোরআনের ছাত্রী!  » «   কুপ্রস্তাব প্রত্যাখ্যান, নারীর ফ্ল্যাটে সচিবের কাণ্ড  » «   যেভাবে ব্যবসায়ী-শিল্পপতিদের ফাঁদে ফেলতো সুন্দরী জেরিন  » «  

নিখোঁজ স্বর্ণ ব্যবসায়ীর মরদেহ নোয়াখালীতে উদ্ধার : আটক ৪



নিউজ ডেস্ক::কুমিল্লার মনোহরগঞ্জ উপজেলার আশিরপাড় বাজারের স্বর্ণ ব্যবসায়ী নিতাই দেবনাথ (৩০) ৭দিন পর নোয়াখালী জেলার চাটখিল উপজেলার চাটগাঁও ইউনিয়নের একটি পুকুর থেকে মরদেহ উদ্ধার করেছে লাকসাম থানা পুলিশ।

এ ঘটনায় জড়িত সন্দেহে লাকসাম পৌর এলাকার ৭ নং ওয়ার্ডের যুবলীগের সহ-সভাপতি ছায়েদুল হক জুয়েলসহ ৪ জনকে আটক করেছে পুলিশ ।

বুধবার (১৪ ফেব্রুয়ারী) সকাল সাড়ে ৯টার দিকে চাটখিল থানা পুলিশ মরদেহ উদ্ধার করে।

নিহত স্বর্ণ ব্যবসায়ী নিতাই দেবনাথ জেলার দেবিদ্বার উপজেলার সাইতলা গ্রামের নারায়ন দেবনাথের ছেলে। তিনি দীর্ঘদিন ধরে লাকসাম পৌর শহরের সোহাগ মৎস খামারের ভিতরে কাজী আবদুর রশিদের বাড়িতে ভাড়াটিয়া হিসেবে বসবাস করছিলেন। নিতাই কুমিল্লার মনোহরগঞ্জ উপজেলার আশিরপাড় বাজারে স্বর্ণ ব্যবসা করতেন।

এর আগে স্বর্ণ ব্যবসায়ী নিতাই দেবনাথ নিখোঁজ হওয়ার ঘটনায় লাকসাম থানায় একটি সাধারণ ডায়েরী করা হয়েছিল। এছাড়াও নিখোঁজ ব্যবসায়ীর সন্ধান নিশ্চিতে সন্ধানদাতাকে ৫ লাখ টাকা প্রদানের ঘোষণা করেছেন মনোহরগঞ্জের আলোচিত প্রবাসী মোঃ মিজানুর রহমান সুমন।

পারিবারিক সূত্রে জানা যায়- গত ৭ ফেব্রুয়ারি বিকেলে স্বর্ণ ব্যবসায়ী নিতাই দেবনাথ লাকসাম পৌর শহরের ভাড়া বাসা থেকে মনোহরগঞ্জের আশিরপাড় বাজারে নিজ ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠানে যাওয়ার কথা বের হন। গভীর রাতেও তিনি বাসায় না ফেরায় তার স্ত্রী মোবাইলে ফোন করে ফোন বন্ধ পান। সকাল পর্যন্ত সকল আত্মীয়-স্বজনের বাসায় খোঁজ খবর নিয়েও সন্ধান পাননি।

এতে নিখোঁজ ব্যবসায়ীর পরিবারে উদ্বেগ-উৎকন্ঠা বেড়ে যায়। স্বর্ণ ব্যবসায়ী নিতাই দেবনাথ নিখোঁজের ঘটনায় গত ১১ ফেব্রুয়ারি রাতে তার বড় ভাই গৌরাঙ্গ দেবনাথ লাকসাম থানায় একটি সাধারণ ডায়েরী (জিডি) করেছেন। নিতাই দেবনাথ জেলার দেবিদ্বার উপজেলার সাইতলা গ্রামের নারায়ন দেবনাথের ছেলে। তিনি পরিবার-পরিজন নিয়ে প্রায় ৩০ বছর ধরে লাকসাম পৌর শহরের সোহাগ মৎস খামারের ভিতরে কাজী আবদুর রশিদের বাড়িতে ভাড়াটিয়া হিসেবে বসবাস করে আসছেন।

দীর্ঘ ৬ দিন নিখোঁজ থাকার পর লাকসাম থানা পুলিশ সন্দেহজনকভাবে লাকসাম পৌর এলাকার ৭ নং ওয়ার্ডের যুবলীগের সহ-সভাপতি ছায়েদুল হক জুয়েলসহ ৪ জনকে আটক করে।

আটককৃতদের স্বীকারোক্তি মোতাবেক গতকাল বুধবার সকাল ৯টায় তাদের স্বীকারোক্তিমতে নোয়াখালির চাটখিল উপজেলার চাটগাঁও ইউনিয়নের একটি পুকুর থেকে মরদেহ উদ্ধার করেছে থানা লাকসাম পুলিশ।
মরদেহ কুমিল্লায় নিয়ে আসলে তার স্ত্রী ও স্বজনরা নিহত নিতাই দেবনাথের লাশ বলে সনাক্ত করে। নিহতের লাশ ময়নাতদন্তের জন্য কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। এ বিষয়ে হত্যা মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

লাকসাম থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুল্লাহ আল মাহফুজ জানান, এ ঘটনায় মঙ্গলবার রাতে এ ঘটনায় জড়িত সন্দেহে লাকসাম পৌর এলাকার ৭ নম্বর ওয়ার্ডের যুবলীগের সহ সভাপতি ছায়েদুল হক জুয়েলসহ চার জনকে আটক করা হয়েছে।

তাদের স্বীকারোক্তি অনুযায়ী বুধবার সকালে নোয়াখালির চাটগাঁও ইউনিয়ন থেকে নিতাই দেবনাথের মরদেহ উদ্ধার করা হয়। এ বিষয়ে বিস্তারিত পরে জানাবো হবে বলেও জানান পুলিশের এ কর্মকর্তা।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: