বৃহস্পতিবার, ২৩ মে ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
খালেদা জিয়ার সুবিধার্থে কেরানীগঞ্জে আদালত স্থাপনের সিদ্ধান্ত: তথ্যমন্ত্রী  » «   বুথফেরত জরিপের ফলেই ‘বিজয়োৎসব’ শুরু বিজেপির  » «   হুতি বিদ্রোহীদের হামলা, সৌদির পাশে থাকবে পাকিস্তান  » «   ধানক্ষেতে আগুনের ঘটনা তদন্তে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশ  » «   মুক্তিযোদ্ধাদের ভাতা বাড়ছে  » «   বালিশ দুর্নীতি: নির্বাহী প্রকৌশলী প্রত্যাহার  » «   এফআর টাওয়ার নির্মাণে ত্রুটি, তদন্ত প্রতিবেদনে দোষী ৬৭ জন  » «   ক্ষতিপূরণ দিতে গ্রিনলাইনকে আদালতের আল্টিমেটাম  » «   প্রখ্যাত তিন ইসলামি স্কলারের মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করছে সৌদি  » «   মৌলভীবাজারে কে এই ‘পীর’ আজাদ?  » «   ৮০ বছরের মধ্যে সাগরে ডুবে যাবে বাংলাদেশ!  » «   অনলাইনে ট্রেনের টিকিট: বিক্রি শুরুর আগেই টিকিট শেষ!  » «   আজ সিলেটের যে নয়টি এলাকায় গ্যাস সংযোগ বন্ধ থাকবে  » «   অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে খাবার বিক্রির দায়ে ইষ্টিকুটুম-মধুবনকে জরিমানা  » «   বুধবারীবাজার ইউনিয়ন আ.লীগ সভাপতি রফিক উদ্দিনের জানাযায় মানুষের ঢল  » «  

নিউজিল্যান্ডের পার্মানেন্ট ভিসা পাচ্ছেন মুসলিমরা!



আন্তর্জাতিক ডেস্ক:: গত ১৫ মার্চ শান্তির দেশ নিউজিল্যান্ডের ক্রাইস্টচার্চের ২ মসজিদে জুমআর নামাজের সময় এক খ্রিস্টান চরমপন্থীর হাতে বন্দুকের নগ্ন আঘাতে নারী ও শিশুসহ ৫৫ জন মুসল্লি শহিদ হন। আর এ হামলায় আহত হন আরো ৫০ জন।

আহত ও হত্যাকাণ্ডের শিকার মুসল্লিসহ সে সময় মসজিদে অবস্থানকারী সব মুসলিমদের জন্য পার্মানেন্ট রেসিডেন্সি তথা স্থায়ী বসবাসের সুযোগ দিতে যাচ্ছে নিউজিল্যান্ড। খবর রয়টার্স ও ডেইলি মেইল।

নিউজিল্যান্ডের ক্রাইষ্টচার্চের ২টি মসজিদে জুমার নামাজের সময় ভয়াবহ হত্যাকাণ্ডের শিকার হন মুসলিমরা। এ লক্ষ্যে নিউজিল্যান্ডের ইমিগ্রেশন ডিপার্টমেন্ট গতকাল ২৪ এপ্রিল (বুধবার) একটি নতুন ভিসা পদ্ধতি চালু করেছে।

ওই হামলার সময় দুটি মসজিদের যে কোনো একটিতে উপস্থিত ছিলেন এমন ব্যক্তিরাই এই নতুন ভিসার সুবিধা পাবেন। আল-নুর ও লিনউড মসজিদে হামলার সময় থাকা মুসল্লিদের বিশেষ ব্যবস্থায় এ ভিসা প্রদান করবে দেশটি।

উল্লেখ্য যে, ক্রাইষ্টচার্চের ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে যে পার্মানেন্ট রেসিডেন্স ভিসা চালু করা হয়েছে তা ২৪ এপ্রিল ২০১৯ থেকে কার্যকর হবে। ২০২১ সালের ২৪ এপ্রিলের পর পার্মানেন্ট রেসিডেন্স ভিসার জন্য আবেদন করা যাবে না।

নিউজিল্যান্ডের ইতিহাসে সবচেয়ে বড় সন্ত্রাসী ঘটনায় হতাহত ও মসজিদে অবস্থানকারীদের জন্য পার্মানেন্ট রেসিডেন্স তথা স্থায়ী বসবাসের সুযোগ দেশটির সরকারের এক যুগান্তকারী ও প্রশংসনীয় উদ্যোগ।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: