শুক্রবার, ২২ মার্চ ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৮ চৈত্র ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
সিলেটে নির্মাণ হতে যাচ্ছে স্মৃতিসৌধ,পররাষ্ট্রমন্ত্রীর ডিও লেটার  » «   সুখী দেশের তালিকায় বাংলাদেশের ১০ ধাপ অবনতি  » «   জাফর ইকবালকে হত্যাচেষ্টা মামলায় সাক্ষ্যগ্রহণ শুরু  » «   আইডিয়া’র ২৫ বছর পূর্তি উৎসবে র‍্যালি, আলোচনাসভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান  » «   উন্নয়ন করতে গিয়ে জীবন ও জীবিকার যেন ক্ষতি না হয় : প্রধানমন্ত্রী  » «   আজ দিন রাত সমান, আকাশে থাকবে সুপারমুন  » «   সহকর্মীর হাতে খুন হলেন তিন ভারতীয় সেনা  » «   মসজিদে হামলাধারী ব্রেন্টন আইএস থেকে ভিন্ন কিছু নয়: এরদোগান  » «   সিলেটে মেশিনে আদায় হবে যানবাহনের মামলার জরিমানা  » «   গ্যাসের দাম ১৩২% বৃদ্ধির প্রস্তাব হাস্যকর  » «   মেয়রের আশ্বাসে ২৮ মার্চ পর্যন্ত আন্দোলন স্থগিত  » «   দরিদ্র বলে এদেশে কিছু থাকবে না : প্রধানমন্ত্রী  » «   এক সপ্তাহের মধ্যে আবরারের পরিবারকে ১০ লাখ টাকা ক্ষতিপূরণ দেওয়ার নির্দেশ  » «   গুলিবিদ্ধ বাংলাদেশি ওমরের মুখে মসজিদে হামলার লোমহর্ষক বর্ননা…  » «   আজ প্রয়াত রাষ্ট্রপতি জিল্লুর রহমানের মৃত্যুবার্ষিকী,আ. লীগের শ্রদ্ধা  » «  

নারী চাকরিজীবীর মৃত্যুতে স্বামী পাবেন আজীবন পেনশন



নিউজ ডেস্ক:: পারিবারিক পেনশন সুবিধায় নারী-পুরুষের সমান সুযোগ সৃষ্টি করল সরকার। এতদিন পুরুষ বেসামরিক সরকারি চাকরিজীবী মারা গেলে তার স্ত্রী আজীবন পারিবারিক পেনশন সুবিধা পেতেন। এখন থেকে কোনো নারী কর্মকর্তা বা কর্মচারীর মৃত্যু হলে তার স্বামীও এ সুবিধা পাবেন।

বুধবার অর্থ মন্ত্রণালয় এক সার্কুলারে এ সুবিধা চালুর বিষয়টি জানিয়েছে। এর আগে বিপত্নীক স্বামীরা সর্বোচ্চ ১৫ বছর পারিবারিক পেনশন সুবিধা পেতেন। এ সুবিধা পাওয়ার ক্ষেত্রে বিপত্নীক স্বামীর পুনরায় বিয়ে না করার শর্ত জুড়ে দেওয়া হয়েছে। পুরুষ বেসামরিক সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীর বিধবা স্ত্রীরা আজীবন পারিবারিক পেনশন সুবিধা আগে থেকেই পেয়ে আসছেন।

একজন সরকারি কর্মী অবসরে যাওয়ার সময় শেষ মাসের মূল বেতনের ৯০ শতাংশ প্রতি মাসে পেনশন সুবিধা পেয়ে থাকেন। পারিবারিক পেনশনভোগীরাও একই সুবিধা পেয়ে থাকেন।

জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের পরিসংখ্যান ও গবেষণা সেলের সর্বশেষ তথ্য মতে, বেসামরিক সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীর ২৭ ভাগ নারী। ২০১৬ সাল শেষে সারাদেশে সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীর সংখ্যা ছিল ১৩ লাখ ৪২ হাজার ৪৫৩ জন। এর মধ্যে নারী কর্মী তিন লাখ ৬২ হাজার ২০৬ জন। মন্ত্রণালয়ের সংশ্নিষ্ট বিভাগের কর্মকর্তারা মনে করেন, সাম্প্রতিক সময়ে নারী কর্মীর হার আরও বেড়েছে।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: