বুধবার, ২৬ জুন ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ১২ আষাঢ় ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
সাংবাদিকদের বিক্ষোভ কর্মসূচি, ক্ষমা চাইতে হবে দুদককে  » «   যুক্তরাষ্ট্রে যাবার সময় নদীতে ডুবলো শরণার্থী বাবা-মেয়ে  » «   দেশে ফিরছেন সাগরে ভাসা আরও ২৪ বাংলাদেশি  » «   অস্ট্রেলিয়ায় আগুনে পুড়ে ৩ ভাই-বোন নিহত  » «   অবশেষে বরখাস্ত ডিআইজি মিজান  » «   সরকারি চাকরিতে ডোপটেস্ট বাধ্যতামূলক করা হবে : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী  » «   ঘুষ নেয়ার ভিডিও করায় সাংবাদিককে পেটাল পুলিশ, ৪ পুলিশ সদস্য ক্লোজড  » «   শেষ বয়সে খেলোয়াড়দের সুরক্ষায় প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা ‍নিতে ক্রীড়া মন্ত্রণালয়কে প্রধানমন্ত্রীর নির্দে  » «   বিএনপির নেতৃত্বে আসছেন তারেকের কন্যা!  » «   সরকারি নিয়োগের স্বাস্থ্য পরীক্ষা বেসরকারিতে!  » «   তিন বাংলাদেশিসহ চার নব্য জেএমবি জঙ্গিকে গ্রেপ্তার করেছে কলকাতা পুলিশ  » «   ‘শহীদ’ জিয়াকে নিয়ে সংসদে মমতাজের হাস্যরস  » «   বগুড়া-৬ উপনির্বাচনে বিপুল ব্যবধানে বিএনপি প্রার্থীর জয়  » «   প্রথমবার সিলেট-চট্টগ্রাম-কক্সবাজার রুটে উড়বে ইউএস-বাংলা  » «   ভূমিকম্পে কেঁপে উঠলো ইন্দোনেশিয়ায়-জাপান-অস্ট্রেলিয়া  » «  

নতুন বছরকে ‘স্বাগত’ জানাতে কনকনে ঠাণ্ডায় ২০১৯ ডুব!



আন্তর্জাতিক ডেস্ক:: কনকনে ঠাণ্ডার মধ্যে নতুন বছরকে ‘স্বাগত’ জানাতে যখন বিশ্বজুড়ে মানুষ নানান উৎসবে মেতেছেন, ঠিক তখনই পানিতে ডুব দিয়ে হইচই ফেলে দিয়েছে ভারতের এক যুবক। নতুন বছরের সঙ্গে মিল রেখে ২০১৯টি ডুব দিয়ে নতুন বছরকে স্বাগত জানালেন তিনি। আর এই অভিনব ঘটনাটি ঘটেছে ভারতের বাঁকুড়ার শহরের বিষ্ণুপুরে।

এমন কীর্তি ঘটানো যুবকের নাম সদানন্দ দত্ত। তিনি বিষ্ণুপুর শহরের বাহাদুর গঞ্জের বাসিন্দা। শৈশব থেকেই সাঁতার সাঁতার কাটতে ভালবাসেন সদানন্দ। দক্ষ সাঁতারু হিসেবেও এলাকায় তার সুনাম রয়েছে।ভারতীয় সংবাদমাধ্যমের খবরে বলা হয়েছে, গতকাল মঙ্গলবার স্থানীয় সময় ১২টা ১০ মিনিটে বিষ্ণুপুরের ঐতিহ্যবাহী প্রাচীন লালবাঁধের পানিতে ডুব দেওয়া শুরু করেন সদানন্দ। এক, দুই, তিন, চার…এভাবে পর্যায়ক্রমে মাত্র ৪৮মিনিট ২০১৯টি ডুব দেন তিনি।

জানা গেছে, সদানন্দের এই মুহূর্তে লক্ষ্য এভাবে ডুব দিয়েই ‘গিনেস বুক অফ ওয়ার্ল্ডে’ নাম তোলা। সেই লক্ষ্যেই এগিয়ে যেতে চান তিনি৷ সদানন্দের কথায়, বিষ্ণুপুরের প্রতিটি মানুষ আমাকে ভালোবাসেন। এইভাবে তাঁর লক্ষ্যে পৌঁছানোর পাশাপাশি তাঁর একান্ত চাওয়া রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের কাছেও যেন এই বার্তা পৌঁছে দেওয়া হয়।

সূত্র: কলকাতা টোয়েন্টিফোর

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: