শনিবার, ২৩ মার্চ ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৯ চৈত্র ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
শাহজালাল বিমানবন্দরে ময়লার ঝুড়ি থেকে ১৬ কেজি স্বর্ণ উদ্ধার  » «   ভারতে লোকসভা নির্বাচনে প্রার্থীদের প্রথম তালিকা ঘোষণা করলো বিজেপি  » «   সিলেটে ট্রাকের ধাক্কায় প্রাণ গেল সিলসিলার ম্যানেজারের  » «   নিজের চেয়ার ছেড়ে জহিরুলের পাশে এসে দাঁড়ালেন প্রধানমন্ত্রী  » «   সিলেটে নির্মাণ হতে যাচ্ছে স্মৃতিসৌধ,পররাষ্ট্রমন্ত্রীর ডিও লেটার  » «   সুখী দেশের তালিকায় বাংলাদেশের ১০ ধাপ অবনতি  » «   জাফর ইকবালকে হত্যাচেষ্টা মামলায় সাক্ষ্যগ্রহণ শুরু  » «   আইডিয়া’র ২৫ বছর পূর্তি উৎসবে র‍্যালি, আলোচনাসভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান  » «   উন্নয়ন করতে গিয়ে জীবন ও জীবিকার যেন ক্ষতি না হয় : প্রধানমন্ত্রী  » «   আজ দিন রাত সমান, আকাশে থাকবে সুপারমুন  » «   সহকর্মীর হাতে খুন হলেন তিন ভারতীয় সেনা  » «   মসজিদে হামলাধারী ব্রেন্টন আইএস থেকে ভিন্ন কিছু নয়: এরদোগান  » «   সিলেটে মেশিনে আদায় হবে যানবাহনের মামলার জরিমানা  » «   গ্যাসের দাম ১৩২% বৃদ্ধির প্রস্তাব হাস্যকর  » «   মেয়রের আশ্বাসে ২৮ মার্চ পর্যন্ত আন্দোলন স্থগিত  » «  

নতুন বছরকে ‘স্বাগত’ জানাতে কনকনে ঠাণ্ডায় ২০১৯ ডুব!



আন্তর্জাতিক ডেস্ক:: কনকনে ঠাণ্ডার মধ্যে নতুন বছরকে ‘স্বাগত’ জানাতে যখন বিশ্বজুড়ে মানুষ নানান উৎসবে মেতেছেন, ঠিক তখনই পানিতে ডুব দিয়ে হইচই ফেলে দিয়েছে ভারতের এক যুবক। নতুন বছরের সঙ্গে মিল রেখে ২০১৯টি ডুব দিয়ে নতুন বছরকে স্বাগত জানালেন তিনি। আর এই অভিনব ঘটনাটি ঘটেছে ভারতের বাঁকুড়ার শহরের বিষ্ণুপুরে।

এমন কীর্তি ঘটানো যুবকের নাম সদানন্দ দত্ত। তিনি বিষ্ণুপুর শহরের বাহাদুর গঞ্জের বাসিন্দা। শৈশব থেকেই সাঁতার সাঁতার কাটতে ভালবাসেন সদানন্দ। দক্ষ সাঁতারু হিসেবেও এলাকায় তার সুনাম রয়েছে।ভারতীয় সংবাদমাধ্যমের খবরে বলা হয়েছে, গতকাল মঙ্গলবার স্থানীয় সময় ১২টা ১০ মিনিটে বিষ্ণুপুরের ঐতিহ্যবাহী প্রাচীন লালবাঁধের পানিতে ডুব দেওয়া শুরু করেন সদানন্দ। এক, দুই, তিন, চার…এভাবে পর্যায়ক্রমে মাত্র ৪৮মিনিট ২০১৯টি ডুব দেন তিনি।

জানা গেছে, সদানন্দের এই মুহূর্তে লক্ষ্য এভাবে ডুব দিয়েই ‘গিনেস বুক অফ ওয়ার্ল্ডে’ নাম তোলা। সেই লক্ষ্যেই এগিয়ে যেতে চান তিনি৷ সদানন্দের কথায়, বিষ্ণুপুরের প্রতিটি মানুষ আমাকে ভালোবাসেন। এইভাবে তাঁর লক্ষ্যে পৌঁছানোর পাশাপাশি তাঁর একান্ত চাওয়া রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের কাছেও যেন এই বার্তা পৌঁছে দেওয়া হয়।

সূত্র: কলকাতা টোয়েন্টিফোর

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: