বুধবার, ১৯ ডিসেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৫ পৌষ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
সু চির পুরস্কার ফিরিয়ে নিচ্ছে দক্ষিণ কোরীয় ফাউন্ডেশন  » «   তরুণ ও যুবকদের জন্য যে চমক আ. লীগ-বিএনপির ইশতেহারে  » «   নারায়ণগঞ্জে গ্যাসের আগুনে একই পরিবারের ৯ জন দগ্ধ  » «   আমার কিছু হলে দায়ী আপনারা মামা-ভাগ্নে: সিইসিকে গোলাম মাওলা রনি  » «   ভুলভ্রান্তি হলে ক্ষমাসুন্দর দৃষ্টিতে দেখবেন: শেখ হাসিনা  » «   মাহবুব তালুকদারের বক্তব্য অসত্য: সিইসি  » «   ভোটের ফলাফল প্রকাশে বিশেষ সতর্কতা অবলম্বনের নির্দেশ  » «   ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় মইনুলের জামিন  » «   বাংলাদেশের বিজয় দিবসকে অবজ্ঞা শেহবাগের!  » «   সারাদেশে ১ হাজার ১৬ প্লাটুন বিজিবি মোতায়েন  » «   প্রার্থিতা নিয়ে রিট খারিজ, নির্বাচন করতে পারবেন না খালেদা জিয়া  » «   জামায়াতের ২২ প্রার্থীর মনোনয়ন বাতিলে রুল  » «   সিলেটে প্রাধান্য উন্নয়ন ও গণতন্ত্র পুনরুদ্ধার  » «   বিএনপির ইশতেহার ঘোষণা করছেন ফখরুল  » «   আপিলেও ভোটের পথ খুলল না ইলিয়াসপত্নী লুনার  » «  

নওগাঁর সাপাহারে সাংবাদিককে লাঞ্চিত করায় আটক-৫



মনিরুল ইসলাম, সাপাহার (নওগাঁ) প্রতিনিধি: নওগাঁর সাপাহারে নওগাঁ জেলা প্রেসক্লাবের সিনিয়র দুইজন সাংবাদিক লাঞ্চিত হওয়ার ঘটনায় স্থানীয় থানায় মামলা দায়েরের পর ৫ জন কে আটক করে জেল হাজতে পাঠিয়েছে পুলিশ। গত বুধবার বিকেলে সদরের ওয়াল্টন মোড়ের সামনে গিয়াস মার্কেটে ঘটনাটি ঘটেছে।
জানা গেছে, সাপাহারের শাহজাহন আলী ও ওসমান গনি বাবুর মধ্যে গিয়াস মার্কেটের একাংশ জায়গা নিয়ে দীর্ঘদিন বিরোধ চলে আসছিলো। শাহজাহান আলী তার কিছু লোকজন নিয়ে ওই মার্কেট গত সোমবার দুুপরে দখল নেয়। এরুপ ঘটনার সংবাদ পেয়ে গত বুধবার দুপুরে নওগাঁ জেলা প্রেসক্লাবের সভাপতি চ্যানেল আই এর জেলা প্রতিনিধি সাংবাদিক ইমরুল কায়েশ ও এটিএন বাংলার প্রতিনিধি সাংবাদিক রায়হান আলম ঘটনা স্থলে এসে উভয় পক্ষে সাক্ষাতকার গ্রহণ শেষে দখলকৃত জায়গার ভিডিও চিত্র নিতে গেলে ছাত্রলীগ ও যুবলীগ নামধারী কতিপয় সন্ত্রাসী সম্পুর্ন সন্ত্রাসী কায়দায় সাংবাদিক রায়হান আলমের উপর চড়াও হয়ে বেধড়ক মারপিট সহ জোর পূর্বক তার হাত থেকে ক্যামেরা ছিনিয়ে নেয়। এর পর সাংবদিকদ্বয় মার্কেটের দখলদার শাহজাহান আলীর সরনাপূর্ন হলে তিনি পুলিশের মাধ্যমে ছিনিয়ে নেয়া ক্যামেরাটি উদ্ধার করে দেন। পরে সাংবাদিকগন স্থানীয় থানার আশ্রয় নিলে বিষয়টি মিমাংসার জন্য দখলকৃত জায়গার মালিক শাহজাহন আলী ও উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আলহাজ্ব শামসুল আলম শাহ চৌধুরী কতিপয় লোকজন সাথে নিয়ে তার অফিস কক্ষে এক শালিস বসায়। পুলিশ প্রশাসন, স্থানীয় নেতৃবৃন্দ ও সাংবাদিকগনের যৌথ আলোচনা শেষে সন্ধ্যা ৭টার দিকে মিমাংসার ফলাফল হিসেবে সাংবাদিক লাঞ্চিত দুস্কৃতকারী সন্ত্রাসীদের গ্রেফতার করে দৃষ্টান্তমুলক শাস্তির দাবিতে থানায় একটি মামলা দয়ের করা হয়। মামলা দায়েরের পর পুলিশ ছাত্রলীগ ও যুবলীগ নামধারী আনু, নুর আলম পিংকি, বাবু সরকার, আমিন ও মোখলেছুর রহমান নামের ৫ সন্ত্রাসীকে গ্রেফতার করে পুলিশ হাজতে আটকে রাখে এবং পরদিন বৃহস্পতিবার আটককৃতদের নওগাঁ জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: