রবিবার, ১৫ ডিসেম্বর ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ১ পৌষ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
লন্ডনে দ্বিতীয় জনপ্রিয় ভাষা বাংলা  » «   ঘুষের টাকাসহ হাতেনাতে সাব-রেজিস্ট্রার আটক  » «   আর কোনো হায়েনার দল বাংলার বুকে চেপে বসতে পারবে না  » «   সিলেটে মুক্তিযুদ্ধের পাণ্ডুলিপি সংগ্রহ করলেন প্রবাসী কল্যাণমন্ত্রী  » «   ফের জাতীয় পার্টির ঢাকা জেলা শাখার সভাপতি সালমা ইসলাম এমপি  » «   বিয়ানীবাজারে ৯৯০ পিস ইয়াবাসহ পেশাদার মাদক ব্যবসায়ী আটক  » «   আয়কর দিবস উপলক্ষে সিলেটে বর্ণাঢ্য র‌্যালি  » «   এবার শ্রীমঙ্গলে ট্রেনের ইঞ্জিনে আগুন  » «   বেলজিয়ামে মসজিদে তালা দেওয়ায় বাংলাদেশিদের প্রতিবাদ  » «   পায়রা উড়িয়ে জাতীয় পার্টির ঢাকা জেলা শাখার সম্মেলন উদ্বোধন  » «   ভারতের অর্থনীতির দুরবস্থা, জিডিপি কমে সাড়ে ৪ শতাংশ  » «   পায়রা উড়িয়ে সম্মেলন উদ্বোধন করলেন শেখ হাসিনা  » «   লন্ডন ব্রিজে আবারও সন্ত্রাসী হামলা, নিহত ২  » «   চীন থেকে মা-বাবার জন্য পেঁয়াজ নিয়ে এলেন মেয়ে  » «   রক্তে ভাসছে ইরাক, নিহত ৮২  » «  

তাহিরপুর উপজেলা আ.লীগ নেতার কানাডায় বাড়ি, কোটি টাকার সম্পত্তি!



নিউজ ডেস্ক:: সুনামগঞ্জ-১ (তাহিরপুর, জামালগঞ্জ, ধর্মপাশা) আসনের সংসদ সদস্য মোয়াজ্জেম হোসেন রতনের পর এবার সুনামগঞ্জের তাহিরপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের বিরুদ্ধে দুর্নীতি দমন কমিশনে (দুদক) অভিযোগ করা হয়েছে। গত সোমবার (১১ নভেম্বর) বিকেলে তাহিরপুর উপজেলার ভাটি তাহিরপুর গ্রামের মুক্তিযোদ্ধার সন্তান এমদাদ নূর দুদকের প্রধান কার্যালয়ে এ অভিযোগ জমা দেন।

অভিযোগে তাহিরপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আবুল হোসেন খা ও সাধারণ সম্পাদক অমল করের বিরুদ্ধে বিতর্কিত ও দুর্নীতি মূলক কর্মকাণ্ডে জড়িত থাকায় তাদের সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করার দাবি জানানো হয়।

অভিযোগে বলা হয়, ২০১৫ সালে তাহিরপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক পদ লাভের পর থেকে দলীয় পদবী ও ক্ষমতার অপব্যবহার করে কোটি কোটি টাকার মালিক হয়েছেন অমল কর। হঠাৎ করে তিনি আঙুল ফুলে কলাগাছ বনে গেছেন। অমল কর ২০০৮-২০১৫ সাল পর্যন্ত তাহিরপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক থাকাকালে এবং ২০১৫ থেকে ২০১৯ পর্যন্ত উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক থাকাকালে সংঘবদ্ধ সন্ত্রাসী বাহিনী সৃষ্টি করে ব্যাপক চাঁদাবাজি ও ক্ষমতার অপব্যবহার করে বিশাল সম্পত্তির মালিক হয়েছেন।

তিনি অবৈধ পথে উপার্জিত টাকায় সুনামগঞ্জ সদর উপজেলার বাঁধনপাড়া এলাকায় বহুতল বিশিষ্ট ভবনের মালিক হয়েছেন। যার বাজার মূল্য ৮ কোটি টাকা। অমল কর কানাডাতেও বাড়ি ক্রয় করেছেন। তিনি তার অবৈধ অর্থ কানাডাতে স্থানান্তর করেছেন। তার স্ত্রী ও সন্তান বর্তমানে কানাডাতে অবস্থান করছেন। তাছাড়া তিনি গত অক্টোবর মাস কানাডাতে পরিবারের সঙ্গে অবস্থান করেছেন।

অভিযোগে আরও বলা হয়, তাহিরপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অমর করের দেশ-বিদেশের অনেক ব্যাংকে কোটি কোটি টাকা জমা রয়েছে। দুদকে অভিযোগকারী মুক্তিযোদ্ধার সন্তান এমদাদ নূর বলেন, অমল কর সাংগঠনিক সম্পাদক ও সাধারণ সম্পাদক হওয়ার পর থেকে দলীয় ক্ষমতার অপব্যবহার করে বালু, পাথর, কয়লাঘাট, চুনাপাথর ঘাট, হাট-বাজার অফিসসহ বিভিন্ন উৎসে চাঁদা আদায় করে বিত্তশালী হয়েছেন এবং বিলাসী জীবন-যাপন করছেন। অতিরিক্ত টাকা হাতে আসায় তিনি বিভিন্ন দেশে ঘুরে বেড়ান। কানাডায় বাড়ি করে পরিবারকে ওই জায়গায় স্যাটেল করেছেন।

এ বিষয়ে তাহিরপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অমল কর বলেন, আমি ভ্রমণ প্রিয় মানুষ। আমি বিভিন্ন সময় ভারত, কানাডা, সিঙ্গাপুর ঘুরতে যাই। আমার কয়লার ব্যবসা রয়েছে। আমি সৎ পথে ব্যবসা করি এবং সেই টাকায় বিদেশে ঘুরতে যাই। আমার কানাডায় কোনো বাড়ি নেই। আমার পরিবার আমার সঙ্গে সুনামগঞ্জে রয়েছে।

তিনি আরও বলেন, সামনে তাহিরপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলন। এই সম্মেলনকে কেন্দ্র করে কিছু দলের বিরোধী লোকেরা আমার বিরুদ্ধে মিথ্যা অভিযোগ দিয়ে যাচ্ছে। তারা এক সময় জামায়াত-বিএনপির সঙ্গে সম্পৃক্ত ছিল।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: