বুধবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৩ আশ্বিন ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
৬০ নম্বরের পরীক্ষা দিয়ে হতে হবে ছাত্রলীগ নেতা  » «   মিয়ানমার তাদের লোকদের ফেরত নিতে রাজি হয়েছে : পররাষ্ট্রমন্ত্রী  » «   রাজশাহীতে মা-ছেলে হত্যায় আ.লীগ নেতাসহ ৩ জনের মৃত্যুদণ্ড  » «   অবশেষে সেই বাংলাদেশি যুবকের লাশ ফেরত দিল বিএসএফ  » «   নিউইয়র্কে হবে শেখ হাসিনা-বিল গেটস বৈঠক  » «   ‘এবার এক দেশ, এক দলের’ ইঙ্গিত বিজেপি সভাপতির  » «   রাতে আটক, ভোরে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত  » «   জগন্নাথপুরে র‌্যাবের জালে আটকা পড়লেন ভূয়া ডাক্তার  » «   এবার ভিসি ফারজানার বিরুদ্ধে ভয়াবহ অভিযোগ  » «   রংপুর-৩ উপনির্বাচন: লাঙ্গলের ঘাঁটিতে আসিফের দিকেই ভোটের হাওয়া  » «   রিফাত হত্যা: যা বললেন সেই রিকশাচালক  » «   চতুর্থ ড্রিমলাইনার ‘রাজহংস’ উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী  » «   সুনামগঞ্জে অজ্ঞাতনামা যুবকের মরদেহ উদ্ধার  » «   বন্দরবাজার থেকে ইয়াবাসহ দুই মাদক ব্যবসায়ী আটক  » «   আফগান প্রেসিডেন্টকে লক্ষ্য করে বোমা হামলা, নিহত ২৪  » «  

জেনে নিন বিদ্যুৎ বিল কমানোর ১০ উপায়



লাইফ স্টাইল ডেস্ক:: পরিবারের মাসিক খরচের মধ্যে বিদ্যুৎ বিল অন্যতম। অন্যান্য খরচের আপনি যে হিসাবই করুন, বিদ্যুৎ বিলের হিসাব মাথায় রাখতেই হয়। মাঝে মাঝে বিদ্যুৎ বিল ধারণার চেয়ে বেশি হয়ে যায়। কিন্তু একটু সতর্ক হলে বিদ্যুৎ বিল অনেকটা কমিয়ে ফেলা যায়। এজন্য কিছু বিষয় খেয়াল রাখলেই যথেষ্ট।

১. মোবাইল ফোনে চার্জ শেষ হবার পর বিদ্যুৎ লাইনের সুইচটি অফ রাখুন। কারণ সুইচ অন থাকলে কিছুটা অতিরিক্ত বিদ্যুৎ খরচ হয়।

২. বাতির ক্ষেত্রে সিএফএল বা এলইডি ব্যবহার করুন। সিএফএল বা এলইডিতে ফিলামেন্টের তুলনায় সার্কিট ব্যবহার হওয়ায় বিদ্যুতের খরচ কমে।

৩. বৈদ্যুতিক যন্ত্র কেনার সময় যন্ত্রটির স্টার রেটিংয়ে দেখুন। যে যন্ত্রের স্টার রেটিং যত বেশি তার বিদ্যুৎ খরচ ততো কম।

৪. পুরনো তার বা পুরনো ইলেক্ট্রিক যন্ত্রে বেশি বিদ্যুৎ ব্যবহার হয়। তাই ১০ থেকে ১৫ বছরের পুরনো যন্ত্র ব্যবহার করলে বিদ্যুৎ বিল বেশি আসতে পারে।

৫. ঘন ঘন এসি চালু ও বন্ধ করলে বিদ্যুৎ খরচ বেশি। একটানা চালিয়ে রাখাই ভালো। তাহলে কম ইউনিট ব্যবহার হবে।

৬. এসির আউটলেট রোদহীন স্থানে রাখতে হবে। রোদ পড়লে এসির আউটলেট গরম হয়। বিদ্যুৎ খরচ বেশি হয়।

৭. এসির তাপমাত্রা সাধারণত ২৪ ডিগ্রির নীচে না নামানো ভালো। ২৪ ডিগ্রির নীচে নামালে অনেক বেশি বিদ্যুৎ খরচ হয়।

৮. ফ্রিজ ব্যবহারের ক্ষেত্রে দিনে এক ঘণ্টা বন্ধ রাখুন। এতে যন্ত্রও বিশ্রাম পাবে, বিদ্যুৎও বাঁচবে।

৯. ফ্রিজে কোনো খাবার রাখার আগে সেই খাবার ঠাণ্ডা করে নিন। তাতে বিদ্যুৎ খরচ কম হবে।

১০. আপনার ইলেক্ট্রনিক্স যন্ত্রগুলো নিয়মিত সার্ভিসিং করান। এতে বিদ্যুৎ খরচ কমবে।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: