বুধবার, ১৮ জুলাই ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৩ শ্রাবণ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
২৭ জুলাই খালেদার মুক্তি দাবিতে জাতিসংঘের সামনে বিক্ষোভ  » «   মৌসুমি বায়ু দুর্বল, বর্ষার বর্ষণ নেই  » «   সিলেটে দুর্ঘটনায় কলেজ ছাত্রের মৃত্যু  » «   হরিণাকুণ্ডুতে র‌্যাবের সাথে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ ডাকাত সদস্য নিহত  » «   পুলিশের সোর্স মামুন মাদক ব্যবসায়ীর স্ত্রীকে নিয়ে উধাও  » «   ধর্ষণে অন্তঃসত্ত্বা কিশোরি, সালিসে জরিমানার টাকা ভাগাভাগি!  » «   আইনমন্ত্রীর বাসায় প্রধানমন্ত্রী  » «   ‘এদেরকে নিয়েই মান্না সাহেব দুর্নীতির বিরুদ্ধে যুদ্ধ করিবেন’  » «   রাশিয়ায় বিশ্বকাপ দেখতে গিয়ে পুলিশের জালে বাংলাদেশী যুবক  » «   বিদেশ ও জেল থেকে আন্ডারওয়ার্ল্ড নিয়ন্ত্রণ করছে শীর্ষ সন্ত্রাসীরা  » «   বাংলাদেশে যুক্তরাষ্ট্রের নতুন রাষ্ট্রদূত মনোনীত রবার্ট মিলার  » «   বেবী নাজনীন অসুস্থ, হাসপাতালে ভর্তি  » «   কোটা আন্দোলন: ছাত্রলীগের হুমকিতে ক্যাম্পাস ছাড়া চবি শিক্ষক  » «   ভেবেই ক্লাব বদল করেছেন রোনালদো  » «   ভারতে নিষিদ্ধ, অন্য দেশে পুরস্কৃত যেসব ছবি  » «  

‘চিটাগাইঙ্গা পোয়া ও নোয়াখাইল্লা মাইয়া’



বিনোদন ডেস্ক::চিটাগাইঙ্গা পোয়া শাকিব খান ও নোয়াখাইল্লা মাইয়া বুবলী এখন এফডিসিতে। পরিচালক উত্তম আকাশের নতুন একটি সিনেমার জন্য তাঁরা দুজন বাংলাদেশের দুটি বিভাগের দুজন মানুষের চরিত্র রূপায়ণ করছেন। শুক্রবার (৬ অক্টোবর) থেকে রাজধানীর এফডিসিতে (বাংলাদেশ চলচ্চিত্র উন্নয়ন করপোরেশন) নতুন এই সিনেমার শুটিং শুরু হয়েছে। চলবে টানা কয়েক দিন। শাপলা মিডিয়ার ব্যানারে নির্মিত এই সিনেমার প্রযোজক সেলিম খান।

নায়ক শাকিব খানের বাড়ি চট্টগ্রাম না হলেও নায়িকা বুবলীর দাদাবাড়ি কিন্তু নোয়াখালী। ঢাকায় জন্ম ও বেড়ে ওঠার কারণে এই নায়িকার খুব একটা নোয়াখালী যাওয়া হয়নি। মাঝেমধ্যে পারিবারিক অনুষ্ঠানের কারণে মা-বাবার সঙ্গে গিয়েছিলেন। নতুন সিনেমায় নোয়াখালীর ভাষা রপ্ত করতে মা-বাবার কাছ থেকে সহযোগিতা নিতে হচ্ছে এই নায়িকাকে।

শাকিব খান বলেন, ‘একজন অভিনয়শিল্পী হচ্ছেন কাদামাটির মতো। চাইলেই তাঁকে সব ধরনের চরিত্রে রূপায়ণ করা সম্ভব। পরিচালক পর্দায় যেভাবে উপস্থাপনা করবেন, সেভাবেই নিজেকে সমর্পণ করলেই হয়। যেকোনো চরিত্রে অভিনয়ের ক্ষেত্রে আমি কিন্তু সব সময় পরিচালকের কাছে নিজেকে সমর্পণ করি। চট্টগ্রামের ছেলে না হলেও নতুন এই সিনেমায় আমাকে চট্টগ্রামের ভাষায় সংলাপ বলতে হবে। পুরো ইউনিটের কাছ থেকে সহযোগিতা পাচ্ছি। অন্য রকম একটা অভিজ্ঞতা হবে বলতে পারেন।’

বুবলী বলেন, ‘এই ছবিতে নোয়াখালীর আঞ্চলিক ভাষায় সংলাপ বলতে হবে। আমার বাড়ি নোয়াখালী, কিন্তু জন্ম ও বেড়ে ওঠা ঢাকায়। নোয়াখালীর ভাষা তো জানি না। নতুন করে শিখতে ও অনুশীলন করতে হয়েছে। আর এ কাজে আমাকে সহযোগিতা করছেন মা-বাবা। শুটিংয়ের আগ পর্যন্ত যখনই সুযোগ পেয়েছি, তখনই মা-বাবার সঙ্গে নোয়াখালীর ভাষায় কথা বলেছি। এ ছাড়া নাটক-সিনেমা দেখেও শেখার চেষ্টা করেছি।’

শাকিব খানের সঙ্গে এ সময়ের আলোচিত নায়িকা বুবলীর এটি পাঁচ নম্বর সিনেমা। এর আগে এই জুটির চারটি সিনেমা মুক্তি পেয়েছে। সিনেমাগুলো হচ্ছে ‘বসগিরি’, ‘শুটার’, ‘অহংকার’ ও ‘রংবাজ’।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: