সোমবার, ১৮ নভেম্বর ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
নতুন সড়ক পরিবহন আইন কার্যকরের ‘বিরোধিতায়’ ১১ জেলায় বাস চালানো বন্ধ  » «   নগরীতে ৪৫ টাকা কেজি দরে বিক্রি হচ্ছে পিয়াজ, ক্রেতাদের দীর্ঘ লাইন  » «   বলিভিয়ার অশান্তির নেপথ্যে ‘সাদা সোনা’, যা পরবর্তী বিশ্বের আকাঙ্ক্ষিত বস্তু  » «   আবরার হত্যা: পলাতক চারজনের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি  » «   ‘অপকর্মে’ সংকুচিত দ. কোরিয়ার শ্রমবাজার  » «   ৩০০ টাকার পিয়াজ সরকারের দিনবদলের সনদ: ডাকসু ভিপি নুর  » «   অযোধ্যা রায় পুনর্বিবেচনার আবেদন করছে মুসলিমরা  » «   ভাঙছে শরিক দল সঙ্কটে ঐক্যফ্রন্ট  » «   হলি আর্টিসান হামলা: রায় ২৭ নভেম্বর  » «   চাকা ফেটেছে নভোএয়ারের, ভাগ্যগুণে বেঁচে গেলেন ৩৩ যাত্রী  » «   হাত-পা ছাড়াই মুখে ভর করে লিখে পিইসি দিচ্ছে লিতুন  » «   প্রধানমন্ত্রীকে দেয়া বিএনপির চিঠিতে আবরার হত্যার বর্ণনা  » «   ১৫০ যাত্রী নিয়ে মাঝ আকাশে বিপাকে ভারতীয় বিমান, রক্ষা করল পাকিস্তান  » «   বিমান ছাড়াও ট্রেন, ট্রাক, বাসে করে আসছে পেঁয়াজ: সিলেটে পরিকল্পনামন্ত্রী  » «   চুক্তির তথ্য জানতে প্রধানমন্ত্রীকে চিঠি দিল বিএনপি  » «  

গণমাধ্যমের স্বাধীনতায় হস্তক্ষেপের বিরুদ্ধে অস্ট্রেলিয়া অভিনব প্রতিবাদ



আন্তর্জাতিক ডেস্ক:: রাষ্ট্রীয় গোপনীয়তার অজুহাতে সংবাদ প্রকাশের ক্ষেত্রে বাধা দেওয়ার প্রতিবাদে সোমবার অস্ট্রেলিয়ার গণমাধ্যমগুলো অভিনব এক প্রতিবাদ করেছে। দেশটির সব দৈনিক তাদের প্রথম পাতার সংবাদগুলো কালো কালিতে মুছে দিয়েছে। কয়েক জায়গায় লাল কালির সিলে লিখেছে- ‘সিক্রেট: নট ফর রিলিজ’। খবর গার্ডিয়ানের

অস্ট্রেলিয়ায় সংবাদমাধ্যম এবং সাংবাদিকদের ওপর জারি হওয়া সাম্প্রতিক নিষেধাজ্ঞার জেরে অভিনব এই প্রতিবাদের রাস্তা বেছে নিয়েছে সে দেশের সংবাদমাধ্যম। অস্ট্রেলিয়া প্রশাসন সূত্রে বলা হয়েছিলো – তারা সংবাদমাধ্যমের স্বাধীনতায় বিশ্বাসী, কিন্তু কেউই আইনের ঊর্ধ্বে নয়। এর আগে, গত জুন মাসে অস্ট্রেলিয়ান ব্রডকাস্টিং কর্পোরেশনের অফিসে এবং এক সাংবাদিকের বাড়িতে পুলিশি তল্লাশি চালানো হয়। যে ঘটনায় বিরোধিতা করে তীব্র প্রতিবাদ জানিয়েছিলো অস্ট্রেলিয়ান সংবাদমাধ্যম।

এদিন অস্ট্রেলিয়ান সংবাদমাধ্যমের এই প্রতিবাদে সমর্থন জানিয়েছে সে দেশের বিভিন্ন টিভি, রেডিও স্টেশন এবং অনলাইন সংবাদমাধ্যমগুলো। নিউজ কর্প অস্ট্রেলিয়ার এক্সিকিউটিভ চেয়ারম্যান মাইকেল মিলার এক ট্যুইট বার্তায় জানিয়েছেন, জনসাধারণ সরকারকে জিজ্ঞাসা করুক সরকার মানুষের কাছ থেকে কী লুকোতে চায়?

রবিবারই অস্ট্রেলিয়ান সরকারের পক্ষ থেকে জানানো হয় তল্লাসির পরে তিন সাংবাদিকের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করা হতে পারে। অস্ট্রেলিয়ান প্রধানমন্ত্রী স্কট মরিসন জানিয়েছেন, তাঁরা সবসময় সংবাদমাধ্যমের স্বাধীনতায় বিশ্বাসী। কিন্তু এটাও মনে রাখতে হবে সাংবাদিকতা আইনের ঊর্ধ্বে নয়।

অস্ট্রেলিয়ান সংবাদমাধ্যমের বক্তব্য অনুসারে, যেভাবে সাম্প্রতিক সময়ে তদন্তমূলক সাংবাদিকতা হুমকির মুখে পড়ছে তাতে জনগণ জানার অধিকার থেকে বঞ্চিত হচ্ছে।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: