শনিবার, ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২০ খ্রীষ্টাব্দ | ১০ ফাল্গুন ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
Sex Cams
সর্বশেষ সংবাদ
ওয়াসার পানির দাম বাড়ানোর প্রস্তাব, ক্ষুব্ধ নগরবাসী  » «   শহীদের সঙ্গে প্রেম ভাঙলো কার দোষে? মুখ খুললেন কারিনা  » «   বিনামূল্যে স্বাস্থ্যসেবা পেল সখীপুরের ২ হাজারের বেশি মানুষ  » «   সিরিয়ায় যুক্তরাষ্ট্রের বড় অস্ত্রের চালান নিখোঁজ  » «   মহেশপুর সীমান্ত দিয়ে অবৈধভাবে প্রবেশকালে আটক ৪  » «   হামলাকারীকে ক্ষমা করে দিলেন লন্ডনের সেই মুয়াজ্জিন  » «   ঋণখেলাপিদের অর্থ কোথায় যায়  » «   ভাষা দিবসে কলাগাছের শহীদ মিনারে শ্রদ্ধা  » «   এক হাজার কোটি টাকা দিতে রাজি জিপি  » «   সেই জার্মান বন্দুকধারীর হিটলিস্টে বাংলাদেশিরা  » «   আরব আমিরাতে করোনাভাইরাসে বাংলাদেশি আক্রান্ত  » «   আগুনে ১০ ঘর পুড়ে ছাই  » «   ঈশ্বরদীতে বাস-মোটরসাইকেল মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত ২  » «   চট্টগ্রামে ১৪ হাজার ইয়াবাসহ সেনাসদস্য আটক  » «   ভারতে দুই স্বর্ণখনির সন্ধান, মজুত ৩৩৫০ টন  » «  

খুলনায় রূপালী ব্যাংক থেকে ২৩ লাখ টাকা চুরি, চোর শনাক্ত



36. khilnaনিউজ ডেস্ক::
রাষ্ট্রায়ত্ত রূপালী ব্যাংক লিমিটেডের খুলনা কর্পোরেট শাখা থেকে অভিনব কায়দায় এক নারী গ্রাহকের ২৩ লাখ টাকা চুরির ঘটনা ঘটেছে। বৃহস্পতিবার বেলা পৌনে একটার দিকে নগরীর স্যার ইকবাল রোডের শাখায় এ ঘটনা ঘটে। ব্যাংকের সিসি ক্যামেরার ফুটেজ দেখে চোরকে শনাক্ত করতে পেরেছে পুলিশ। তবে তাকে এখনও গ্রেফতার করা সম্ভব হয়নি।

ওই নারী গ্রাহকের ছেলে শেখ মো. ইমরান উদ্দিন জানান, বৃহস্পতিবার তিনি ও তার মা চাঁদ সুলতানা স্যার ইকবাল রোডের আল আরাফাহ ইসলামী ব্যাংক থেকে ২৩ লাখ ৫০ হাজার টাকা তুলে রূপালী ব্যাংকে সঞ্চয়পত্র কেনার জন্য আসেন। ২৩ লাখ টাকা একটি সাদা-কালো রংয়ের কাপড়ের ব্যাগে রাখা ছিল।

তিনি জানান, দুপুর পৌনে একটার দিকে ইমরান তার মাকে ব্যাংকের অফিসার রওশন আরার টেবিলের সামনে বসিয়ে সঞ্চয়পত্রের কাগজপত্র সংগ্রহ ও প্রস্তুত করতে যান। টাকা ভর্তি ব্যাগটি মায়ের পায়ের কাছে টেবিলের নিচে রাখা ছিল। ১টা ৫ মিনিটে মায়ের কাছে গিয়ে দেখেন ব্যাগটি নেই। ইমরান বলেন, আমার মায়ের পাশে একটি নীল ফুলহাতা শার্ট, কালো সোয়েটার, গলায় মাফলার এবং লুঙ্গি পরিহিত এক ব্যক্তি দাঁড়িয়ে ছিল। তিনি মাকে বলেছিলেন- আপনার টাকা পড়ে গেছে। মেঝেতে কয়েকটি দশ টাকা ও বিশ টাকার নোট কুড়িয়ে তুলে দেখেন, ব্যাগটি নেই।

পরে ব্যাংকের সিসি ক্যামেরার ফুটেজে দেখা যায়, ওই ব্যক্তি তার পকেট থেকে এসব টাকা মেঝেতে ফেল ব্যাগটি ছিনিয়ে নিয়ে পালিয়ে যায়। এ ব্যাপারে থানায় মামলা করা হয়েছে বলে জানান ইমরান। খুলনা সদর থানার ওসি সুকুমার বিশ্বাস বলেন, ঘটনার পর তিনি ব্যাংকে গিয়ে ভিডিও দেখেছি। চোরকে শনাক্ত করা গেছে।

তাকে গ্রেফতারে অভিযান শুরু হয়েছে বলেও জানান তিনি। ব্যাংকের সহকারী মহাব্যবস্থাপক গৌরী ভাবনা অধিকারী বলেন, ক্যামেরা সবই দেখা যাচ্ছে। আশা করছি অতি শিগগির চোরকে ধরা সম্ভব হবে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: