বৃহস্পতিবার, ২৫ এপ্রিল ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ১২ বৈশাখ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
শুক্রবার শ্রীলঙ্কার মসজিদে হামলার হুমকি, নিরাপত্তা জোরদার  » «   মোটরসাইকেলে কাভার্ডভ্যানের ধাক্কা, ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রীর মৃত্যু  » «   প্রেসক্রিপশন ছাড়া অ্যান্টিবায়োটিক বিক্রিতে হাইকোর্টের নিষেধাজ্ঞা  » «   নুসরাত হত্যা: তদন্তে বেরিয়ে আসছে পুলিশ কর্মকর্তাদের গাফিলতি  » «   সিলেটের সীমান্ত দিয়ে ঢুকছে রোগাক্রান্ত ভারতীয় গরু  » «   খালেদা জিয়া সরকারের আইনগত সহায়তা পাওয়ার যোগ্য নন: আইনমন্ত্রী  » «   পরীক্ষাকেন্দ্রে ছাত্রীকে যৌন হয়রানি, ইনস্ট্রাক্টর কারাগারে  » «   নিউজিল্যান্ডের পার্মানেন্ট ভিসা পাচ্ছেন মুসলিমরা!  » «   জাফর ইকবাল হত্যাচেষ্টা মামলায় সাক্ষ্য দিলেন মহানগর হাকিম হরিদাস কুমার  » «   কান্নাজড়িত কণ্ঠে স্ত্রী-সন্তান হারানোর বর্ণনা দিলেন সুদেশ  » «   বহুদিন গোসল না করে অফিস করেছি: স্থানীয় সরকারমন্ত্রী  » «   দল বহিষ্কার করতে পারে জেনেই শপথ নিয়েছি: জাহিদুর রহমান  » «   এবার শ্রীলঙ্কায় আদালতের পাশে বোমা বিস্ফোরণ  » «   কবরের জন্য জমি চাইলে বন্দেমাতরম বলতেই হবে: বিজেপি  » «   এবার শপথ নিচ্ছেন বিএনপির জাহিদুর  » «  

কুকুরকে খাওয়ানোর দায়ে জরিমানা সাড়ে ৪ লাখ টাকা!



আন্তর্জাতিক ডেস্ক:: ঘটনাটি মুম্বাই শহরের নিসর্গ হ্যাভেন সোসাইটি নামের একটি আবাসিক এলাকার। আবাসিকের ভেতরে থাকেন একজন পশুপ্রেমী। তিনি একদিন রাস্তার দুটি পাগলা কুকুরকে বাড়িতে নিয়ে এসে খাবার খেতে দেন। কিন্তু এই কারণে আবাসিক এলাকার কর্তৃপক্ষ তাকে প্রায় সাড়ে ৪ লাখ টাকা জরিমানা করেছে।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভির এক প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে ঘটনাটি ঘটেছে মুম্বাইয়ের কান্দিভালি নামক স্থানে। এমন ঘটনার পর আবাসিক এলাকার সব সদস্য সভা করে তাকে জরিমানা করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

নিসর্গ হ্যাভেন সোসাইটির চেয়ারম্যান মিতেশ বোরা বার্তা সংস্থা এএনআইয়ে বলেন, ‘আবাসিক এলাকার ভেতরে পাগলা কুকুরকে এনে খাবার খাওয়ানোর কারণে সোসাইটির ৯৮ শতাংশ সদস্য ওই ব্যক্তিকে বাধ্যতামূলক জরিমানা করার প্রস্তাব পাশ করেছে।’

তিনি আরও বলেন, ‘সোসাইটির চেয়ারম্যান হিসেবে এটা আমার দায়িত্ব যে সংখ্যাগরিষ্ঠ সদস্যের সমর্থনের ভিত্তিতে তৈরি নিয়ম অনুসরণ করা। অনেক সদস্য এ নিয়ে অভিযোগ জানানোর পরই মূলত এমন সিদ্ধান্ত নিয়ে প্রস্তাব পাস হয়েছে।’

সোসাইটির চেয়ারম্যান মিতেশ বোরা জানান, ‘আবাসিক এলাকার বাইরে কেউ যদি কুকুরকে খাবার খাওয়ায় তাহলে তো আমাদের কোনো সমস্যা নেই। পশুপ্রাণীর প্রতি আমাদেরও ভালোবাসা আছে। এটা পশু অধিকারের বিরুদ্ধে কোনো পদক্ষেপ নয়। তাছাড়া এটা মানবাধিকারের প্রশ্নও বটে।’

জরিমানার শিকার নারী নেহা দাতওয়ানি বলেন, ‘আমাকে গত মার্চ থেকে প্রায় সাড়ে চার লাখ টাকার এই জরিমানা দিয়ে আসতে হচ্ছে।তারমধ্যে কুকুরকে খাওয়ানোর জন্য প্রতিমাসে ৯০ হাজার টাকার বেশি।তারা আমাকে প্রতিদিন ৩ হাজার টাকা করে জরিমানা ধরেছে কুকুরকে খাওয়ানোর জন্য।’

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: