শনিবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৭ আশ্বিন ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
ডিজিটাল নিরাপত্তা বিল সংসদে ফেরত পাঠানোর আহ্বান  » «   কোনো বইকে নিষিদ্ধ করা ঠিক নয় : অর্থমন্ত্রী  » «   সিলেটে বাল্যবিবাহ প্রতিরোধে লাল কার্ড প্রদর্শন ও মানববন্ধন  » «   ট্রাম্পের সঙ্গে বৈঠক হবে প্রধানমন্ত্রীর  » «   কাশ্মীর বিদ্রোহী নেতার নামে পাকিস্তানের ডাকটিকিটি প্রকাশ  » «   সংসদ নির্বাচনে হুমকি ‘সাইবার ক্রাইম’, গুজব ঠেকাতে সজাগ পুলিশ  » «   তাঞ্জানিয়ায় ফেরি ডুবি, নিহত বেড়ে ১৩৬  » «   আইনগত অনুমোদন পেলেই সংসদ নির্বাচনে ইভিএম ব্যবহার: সিইসি  » «   সরকারি চাকরিজীবীদের কার জন্য কত টাকা গৃহঋণ  » «   গণেশের ছবি দিয়ে বিজ্ঞাপন: হিন্দুদের কাছে ট্রাম্পের দলের দুঃখ প্রকাশ  » «   প্রধানমন্ত্রীর অনুমোদন পেলো কোটা বাতিলের সুপারিশ  » «   রেলের আধুনিকায়নে দুই হাজার কোটি টাকার প্রকল্প  » «   কেন মুনকে বিশেষ সেই ‘পবিত্র পর্বতে’ নিয়ে গেলেন কিম?  » «   সুখোই কিনলে ভারতকেও নিষেধাজ্ঞায় পড়তে হবে!  » «   প্রধানমন্ত্রী নিউইয়র্কের পথে লন্ডন পৌঁছেছেন  » «  

কিবরিয়া হত্যা মামলায় ৭ আসামীর হাজিরা



10. kibria hottha mamlaহবিগঞ্জ সংবাদদাতা::
সাবেক অর্থমন্ত্রী শাহ এএমএস কিবরিয়া হত্যা মামলায় ৭ আসামী হবিগঞ্জে আদালতে হাজিরা দিয়েছেন। বৃহস্পতিবার মামলার নির্ধারিত তারিখে ইতিপূর্বে উচ্চ আদালত থেকে জামিনপ্রাপ্ত ওই আসামীরা সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট রোকেয়া আক্তারের আদালতে হাজির হন। তবে কারাগারে আটক সাবেক স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী লুৎফুজ্জামান বাবর, সিলেট সিটি মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী ও হবিগঞ্জের মেয়র জি কে গউছকে এ দিন আদালতে হাজির করা হয়নি। আগামী ২৫ জানুয়ারী মামলার পরবর্তী তারিখ নির্ধারণ করা হয়েছে।

২০০৫ সালের ২৭ জানুয়ারী বিকেলে সদর উপজেলার বৈদ্যের বাজারে স্থানীয় আওয়ামী লীগ আয়োজিত ঈদপূণর্মিলনী অনুষ্ঠানে যোগ দেন সাবেক অর্থমন্ত্রী শাহ এএমএস কিবরিয়া। স্থানীয় প্রাথমিক বিদ্যালয় প্রাঙ্গণে আয়োজিত জনসভা শেষে সন্ধ্যায় ফেরার সময় দুর্বৃত্তদের ছোড়া গ্রেনেডে গুরুতর আহত হন শাহ এএমএস কিবরিয়া। পরে ঢাকায় নেয়ার পথে তিনি মারা যান। এ ঘটনায় নিহত হন তার ভাতিজা শাহ মঞ্জুর হুদাসহ আরও স্থানীয় ৩ আওয়ামী লীগ কর্মী। হামলায় আহত হন জেলা আওয়ামী লীগের বর্তমান সভাপতি এমপি অ্যাডভোকেট মো. আবু জাহিরসহ অর্ধশতাধিক নেতাকর্মী। এ ঘটনায় দায়েরী মামলার তৃতীয় দফার সম্পূরক চার্জশীটে আসামী করা হয় খালেদা জিয়ার সাবেক রাজনৈতিক উপদেষ্টা হারিছ চৌধুরী, সিলেটের মেয়র (বর্তমানে বরখাস্তকৃত) আরিফুল হক চৌধুরী ও হবিগঞ্জের মেয়র (বর্তমানে বরখাস্তকৃত) জি কে গউছকে। এর মধ্যে জি কে গউছ ২৮ ডিসেম্বর ও আরিফুল হক চৌধুরী হবিগঞ্জের আদালতে আত্মসমর্পন করার পর তাদেরকে কারাগারে প্রেরণ করা হয়। বর্তমানে গউছ হবিগঞ্জ কারাগারে আটক এবং আরিফুল হক চৌধুরী অসুস্থতার জন্য ঢাকায় চিকিৎসাধীন আছেন। উক্ত মামলায় জামিনে থাকা জেলা বিএনপি’র তৎকালীন সহ-সভাপতি একেএম আব্দুল কাইয়ূম, জমির আলী, জয়নাল আবেদীন মোমিন, মোঃ তাজুল ইসলাম, মোঃ শাহেদ আলী, মোঃ সেলিম আহমেদ ও আয়াত আলী গতকাল বৃহস্পতিবার আদালতে হাজির হন। এছাড়া জামিনে থাকা অপর আসামী জয়নাল আবেদীন জালাল আদালতে হাজির না হওয়ায় তার বিরুদ্ধে গ্রেফতারী পরোয়ানা জারি করা হয়েছে।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: