রবিবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৭ আশ্বিন ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
মোহামেডানসহ মতিঝিলে চার ক্লাবে অভিযান  » «   তাহিরপুরে ১০টি গাঁজার বালিশ উদ্ধার  » «   ফ্রান্সে মসজিদে গাড়ি হামলা  » «   সদলবলে মধুর ক্যান্টিনে ছাত্রদলের নবনির্বাচিত সভাপতি-সম্পাদক  » «   মুসলিম যাত্রী থাকায় ফ্লাইট বাতিল করল আমেরিকান এয়ারলাইনস  » «   মধ্যরাতে বনানীতে শাবি ভিসিপুত্রের কাণ্ড!  » «   সিলেট বিএনপিতে শোডাউনের প্রস্তুতি  » «   ‘ভূতের আড্ডায়’ অভিযান, বাতি জ্বালাতেই তরুণ-তরুণীর অপ্রীতিকর দৃশ্য  » «   মধ্যযুগীয় কায়দায় নির্যাতন, প্রধান শিক্ষকসহ গ্রেপ্তার ৩  » «   টেকনাফে ‘গোলাগুলিতে’ রোহিঙ্গা স্বামী-স্ত্রী নিহত  » «   প্রাথমিকের শিক্ষকদের সুখবর দিলেন গণশিক্ষা সচিব  » «   সাত বডিগার্ডসহ জি কে শামীমকে গুলশান থানায় হস্তান্তর  » «   মালদ্বীপে স্থায়ী জমি পেলো বাংলাদেশ  » «   শিক্ষার্থীদের ওপর হামলার প্রতিবাদে পদত্যাগ করলেন সহকারী প্রক্টর  » «   তাহরির স্কয়ারসহ মিসরজুড়ে একনায়ক সিসির বিরুদ্ধে বিক্ষোভ  » «  

কাবুলে আত্মঘাতী বোমা বিস্ফোরণে নিহত ৪৩



আন্তর্জাতিক ডেস্ক:: আফগানিস্তানের রাজধানী কাবুলে ধর্মীয় পণ্ডিতদের সভায় আত্মঘাতী বোমা বিস্ফোরণে অন্তত ৪৩ জন নিহত ও ৮৩ জন আহত হয়েছে। এর মধ্যে ২৪ জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে জানিয়েছে বিবিসি।

স্থানীয় কর্তৃপক্ষের বরাত দিয়ে ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যমটি জানায়, মহানবী হজরত মুহাম্মদ (সা.) এর জন্মদিন উদযাপনের জন্য আলেমরা একটি হলে মিলিত হলে সেখানেই বিস্ফোরণ ঘটে। ওই হলটির নাম ইউরেনাস।

হামলা সম্পর্কে কাবুল পুলিশের এক মুখপাত্র জানান, ঈদে মিলাদুন্নবী উপলক্ষে কয়েকশো আলেম এবং তাদের অনুসারীরা ওই অনুষ্ঠান কেন্দ্রে মিলিত হয়। পবিত্র কুরআন থেকে তিলাওয়াতের জন্যই এখানে জমায়েত হয়েছিল তারা।অনুষ্ঠান কেন্দ্রের এক ম্যানেজার জানিয়েছে, জমায়েতের ঠিক মাঝখানে বোমার বিস্ফোরণ ঘটায় আত্মঘাতী ওই হামলাকারী।এজন্য হতাহতের সংখ্যা এতো বেশি হয়েছে।

এটা গত কয়েক মাসের মধ্যে কাবুলের সবচেয়ে বড় হামলার ঘটনা। অন্যদিকে এই হামলাকে চলতি বছরে আফগানিস্তানের সবচেয়ে বড় ও বিধ্বংসী হামলা হিসেবে চিহ্নিত করে প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে সিএনএন।এখনও পর্যন্ত হামলার দায় স্বীকার করেনি কেউ।তবে সম্প্রতি সব বিধ্বংসী হামলা চালিয়েছে ইসলামিক স্টেট গ্রুপ। এজন্য এই হামলার পেছনেও তাদের সংশ্লিষ্টতা রয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

গত কয়েকদিন ধরে তালেবানদের হামলার সংখ্যাও বেড়েছে। সব মিলিয়ে বেশ চাপে রয়েছে দেশটির আইনশৃঙ্খলা বাহিনী।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: