শনিবার, ২৩ জুন ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৯ আষাঢ় ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
সাপাহারে ট্রাক ও ভ্যানের মুখো-মুখি সংঘর্ষে নিহত-২  » «   দুর্ঘটনার দিন ঢাকাতেই ছিলাম না’  » «   ভক্তদের হতাশ করেনি ব্রাজিল : অতিরিক্ত সময়ই বিশ্বকাপে টিকিয়ে রাখল নেইমারদের  » «   হাসপাতালের এক্সরে রুমে রোগীর মাকে ধর্ষণের চেষ্টা!  » «   গজারী বনে যুবতীর অর্ধগলিত লাশ  » «   ‘খালেদা চেয়েছিলেন আমি কারাগারেই মরি’: এরশাদ  » «   রাজনীতিতে ভালবাসার কোনো স্থান নেই : কাদের  » «   ফতুল্লার ব্রাজিল বাড়িতে নিজ দেশের খেলা দেখবেন রাষ্ট্রদূত  » «   সাংবাদিকদের প্রশিক্ষণ দিতে উদ্যোগ নিচ্ছে গুগল  » «   জামিনের ৭ দিন পরে ফের ইয়াবাসহ আটক  » «   প্রিয়জনের রাগ ভাঙাবেন যেভাবে!  » «   নদী ভাঙনে বড়লেখার ৫ গ্রামের মানুষের দুর্ভোগ চরমে  » «   আইসিআরসি প্রেসিডেন্ট আসছেন ৩০ জুন  » «   মা হলেন নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী!  » «   যাত্রীবাহী বাস খাদে পড়ে নিহত ২  » «  

কাতারে নিহত বড়লেখার আতিকুরের দাফন



বড়লেখা প্রতিনিধি:: কাতারে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত মৌলভীবাজারের বড়লেখা উপজেলার আতিকুর রহমানের দাফন সম্পন্ন হয়েছে। বৃহস্পতিবার (০৩ মে) রাতে উপজেলার উত্তর শাহবাজপুর ইউনিয়নের নান্দুয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় প্রাঙ্গণে জানাজা শেষে তাঁর লাশ পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয়। তাঁর অকাল মৃত্যুতে পরিবার ও এলাকায় শোকের ছায়া নেমেছে।

নিহতের পরিবার ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার উত্তর শাহবাজপুর ইউনিয়নের শ্রীধরপুর গ্রামের মৃত মস্তুফা উদ্দিনের ছেলে আতিকুর রহমান (২৬) জীবিকার তাগিদে প্রায় ৬ মাস আগে কাতারে যান। সেখানে তিনি একটি রেস্টুরেন্টে কাজ করতেন। গত ২৬ এপ্রিল স্থানীয় সময় বিকেলে পাঁচটায় রেস্টুরেন্টে অর্ডার দেওয়া খাবার একটি বাসায় পৌঁছে দিতে তিনি মোটরসাইকেলযোগে আলওয়াকরা নামকস্থানে যাচ্ছিলেন। এসময় দ্রুত গতির একটি ট্রাক তাঁকে ধাক্কা দিলে তিনি গুরুতর আহত হন।

প্রত্যক্ষদর্শীরা আহতবস্থায় উদ্ধার করে স্থানীয় একটি হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাঁকে মৃত ঘোষণা করেন। এদিকে মারা যাওয়ার প্রায় সাতদিন পর বৃহস্পতিবার সকালে কাতার এয়ারওয়েজের একটি ফ্লাইটে আতিকুরের লাশ শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে এসে পৌঁছায়। সেখান থেকে স্বজনরা তাঁর লাশ গ্রহণ করে গ্রামের বাড়িতে নিয়ে আসা হয়। লাশ বাড়িতে আনার পর তাকে শেষবারের মতো দেখতে ভিড় জমান প্রতিবেশীরা। এসময় স্বজনসহ প্রতিবেশীরা কান্নায় ভেঙে পড়েন।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: